Granny

ওয়েবডেস্ক: ময়নাগুড়ির দক্ষিণ খাগড়াবাড়ি গ্রাম পঞ্চায়েতের হাতির বাড়ি গ্রামে এ বার গ্র্যানি আতঙ্ক। ব্লু হোয়েল এবং মোমোর পর এই ভয়ঙ্কর খেলাই এখন ত্রাসের সৃষ্টি করেছে গোটা এলাকা জুড়ে। স্থানীয় সূত্রে খবর, এখনও পর্যন্ত এই ভয়ঙ্কর গেমের পাল্লায় পড়ে অসুস্থ হয়ে পড়েছে তিন জন।

জানা গিয়েছে, ওই গ্রামের বাসিন্দা শিবু লোহার নামে এক যুবকও আক্রান্ত হয়েছেন ওই গেমে। হোয়াটসঅ্যাপে শিবু পেয়েছিলেন গ্র্যানি গেমের লিঙ্ক। সেটিতেই ক্লিক করতেই ভয়ঙ্কর এক বৃদ্ধার ছবি ভেসে ওঠে। যা দেখে তৎক্ষণাৎ তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরিবারের তরফে দাবি করা হয়েছে, ওই ঘটনার পর ঘর থেকে বেরনো বন্ধ করে দিয়েছেন শিবু। তবে শুধু শিবু নন, অনেকেরই মোবাইলে ঢুকে পড়েছে এই ভয়ঙ্কর গেমের লিঙ্ক। কে বা কারা এই লিঙ্ক হোয়াটসঅ্যাপ মারফত পাঠাচ্ছে, তা জানা যায়নি।

এই একই আতঙ্কে অসুস্থ হয়ে পড়ছেন দশম ও একাদশশ্রেণিতে পাঠরত দুই ছাত্র। তারা মোবাইলে গ্র্যানির ছবি দেখার পর থেকেই অসুস্থ বলে দাবি করা হয়েছে। তবে এদের মধ্যে এক জন গেমটিতে ঢুকে প্রথম ধাপ খেলার পরই অসুস্থ হয়ে পড়ে। সেই ছাত্রটি জানায়, প্রথম ধাপ খেলার পর মোবাইলে তারই প্রতিচ্ছবিকে নৃশংস ভাবে খুন করার দৃশ্য ভেসে ওঠে। রক্তে ভেসে যায় মোবাইলের স্ক্রিন।


আরও পড়ুন: প্রেমিকের সঙ্গে স্ত্রীকে শুয়ে থাকতে দেখার পর স্বামী তুলে নিলেন ধারালো অস্ত্র

অবশ্য, ভয়ঙ্কর এই গ্র্যানি গেমটি সহজেই পাওয়া যায় গুগল অ্যাপস স্টোর থেকে। যে খেলায় ওই বিদঘুটে দেখতে বৃদ্ধার ঘর থেকে বেরনোর পথ খুঁজে বের করতে হয় খেলুড়েকে। গেমটিতে দাবি করা হয়ে থাকে, ওই ঘরের মধ্যে কোনো কিছু পড়ার শব্দও শুনতে পায় ওই বৃদ্ধা।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন