খবরঅনলাইন ডেস্ক: অক্টোবরের শেষে দুর্গাপুজো হলে বৃষ্টিহীন হওয়াটাই স্বাভাবিক। কিন্তু এ বার সেটা হবে না। বরং পুজোর সব ক’টা দিনই বৃষ্টিতে ভিজতে চলেছে গোটা রাজ্য। ষষ্ঠী থেকে অষ্টমী ভারী বর্ষণেরও সম্ভাবনা রয়েছে।

কলকাতা হাইকোর্টের রায়ের পর এ বার পুজোয় প্যান্ডেল-হপিং বন্ধ করতে হবে অত্যুৎসাহী মানুষদের। ফলে আবহাওয়া কী ধরনের আচরণ করল, তা নিয়ে হয়তো বিশেষ কারও মাথাব্যাথা নেই। তবে প্যান্ডেল-হপিং বন্ধ থাকলেও অনেকেই হয়তো পুজোর কলকাতাকে উপভোগ করতে বেরোতেন। আগামী দিনের আবহাওয়া যে সেই উৎসাহেও ভাটা ফেলবে তা বলাই বাহুল্য।

Loading videos...

কলকাতা তথা দক্ষিণবঙ্গে পুজোর আবহাওয়া ঠিক কেমন থাকবে, সেটা নির্ভর করছে বঙ্গোপসাগরে তৈরি হতে চলা একটি নিম্নচাপের ওপরে। মঙ্গলবার নাগাদ মধ্য-বঙ্গোপসাগরে সেটা তৈরি হয়ে যেতে পারে। প্রাথমিক ভাবে তার অভিমুখ অন্ধ্রপ্রদেশ-ওড়িশা উপকূলের দিকে এলেও, উপকূলের কাছাকাছি গিয়ে সে অভিমুখ বদল করতে পারে।

বেসরকারি আবহাওয়া সংস্থা ওয়েদার আল্টিমা জানাচ্ছে, জেট স্ট্রিমের কারণে নিম্নচাপটি অন্ধ্রপ্রদেশ উপকূলের কাছে এসে অভিমুখ বদল করে উত্তর-উত্তরপূর্বমুখী হতে পারে। অর্থাৎ তার অভিমুখ থাকতে পারে পশ্চিমবঙ্গ-বাংলাদেশ উপকূলের দিকে। সপ্তমীর দিন, তথা আগামী শুক্রবার সেটা সুন্দরবন অঞ্চল দিয়ে স্থলভূমিতে ঢুকে পাড়ি দিতে পারে উত্তরপূর্ব ভারতের দিকে।

সাগরে যতক্ষণ পথ পাড়ি দেবে, ততক্ষণে সে শক্তি বাড়িয়ে গভীর নিম্নচাপে পরিণত হতে পারে। তবে সেটা ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হবে না।

এর ফলে ষষ্ঠী থেকে বৃষ্টির দাপট বাড়বে দক্ষিণবঙ্গে। ষষ্ঠী থেকে অষ্টমী পর্যন্ত দক্ষিণবঙ্গের বিস্তীর্ণ অঞ্চলে দফায় দফায় বৃষ্টি হতে পারে। দু’ এক পশলা ভারী বৃষ্টি হতে পারে। উপকূলবর্তী অঞ্চলে অতি ভারী বর্ষণের সম্ভাবনাও এক্কেবারে উড়িয়ে দেওয়া যায় না। কলকাতায় জল জমে যাওয়ার মতো বৃষ্টিরও সম্ভাবনা রয়েছে এই দু’ দিনের মধ্যে।

অষ্টমী থেকে নিম্নচাপটি উত্তরপূর্ব ভারতের দিকে এগিয়ে যাবে। এতে দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টির দাপট কিছুটা কমলেও বন্ধ হবে না। বরং, জলীয় বাষ্প টানার ফলে দশমী পর্যন্ত হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি চলতেই থাকবে দক্ষিণবঙ্গে। স্বস্তি থেকে উত্তরবঙ্গেও বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে, দু’ এক পশলা ভারী বৃষ্টি হলেও ভাসানো বৃষ্টির কোনো আশঙ্কা করা হচ্ছে না।

উল্লেখ্য, সোমবার দুপুরের পর কলকাতার কিছু অংশে বিক্ষিপ্ত বৃষ্টি হয়েছে। এই মুহূর্তে বঙ্গোপসাগরে যে ঘূর্ণাবর্তটি রয়েছে, তার প্রভাবেই এই বৃষ্টি। মঙ্গলবারও এমন বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। পঞ্চমী, অর্থাৎ বুধবার থেকে বৃষ্টি ক্রমশ বৃদ্ধি পাবে দক্ষিণবঙ্গে।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

রাজ্যের সব পুজো প্যান্ডেল ‘নো এন্ট্রি জোন’, ঐতিহাসিক রায় কলকাতা হাইকোর্টের

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.