ওয়েবডেস্ক: বেসরকারি আবহাওয়া সংস্থা ওয়েদার আল্টিমার সূত্র ধরে গত বুধবারই খবর অনলাইন জানিয়েছিল শনিবার থেকে সোমবার পর্যন্ত প্রবল ঝড়বৃষ্টি হতে পারে দক্ষিণবঙ্গে। সেই ঝড়বৃষ্টি এখনও শুরু হয়নি ঠিকই, কিন্তু ইতিমধ্যেই সতর্কতা জারি করে দিয়েছে আবহাওয়া দফতর। আলিপুর আবহাওয়া দফতর থেকে শুক্রবার দুপুরে এই সংক্রান্ত একটি বিবৃতি প্রকাশ করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার থেকে উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জায়গায় জোর ঝড়বৃষ্টি হচ্ছে। শিলাবৃষ্টিও হয়েছে কোথাও কোথাও। শুক্রবার সকালের পর থেকেই আবার দফায় দফায় ঝড়বৃষ্টি শুরু হয়েছে। উত্তরবঙ্গের ব্যাপারে মৌসম ভবন লিখেছে, শুক্রবার উত্তরবঙ্গের সব ক’টি জেলাতেই ঘণ্টায় ৬০ থেকে ৭০ কিলোমিটার বেগে ঝড় বয়ে যেতে পারে। সেই সঙ্গে হতে পারে ভারী বৃষ্টি। শনিবার দাপট কিছুটা কমলেও ঝড়বৃষ্টি জারি থাকবে।

অন্য দিকে দক্ষিণবঙ্গের জন্য শুক্রবার থেকে সোমবার পর্যন্ত ঝড়বৃষ্টির সতর্কতা জারি করেছে আবহাওয়া দফতর। শুক্রবার বাঁকুড়া, বীরভূম, দুই বর্ধমান, নদীয়া এবং মুর্শিদাবাদে ঘণ্টায় ৪০ থেকে ৫০ কিমি বেগে ঝড় বয়ে যাওয়ার সম্ভাবনার কথা জানিয়েছে তারা।

কিন্তু শনিবার এবং রবিবার ঝড়বৃষ্টির দাপট আরও বাড়বে বলে জানানো হয়েছে। ওই দু’দিন সমগ্র দক্ষিণবঙ্গের জন্যই চরম সতর্কতা (লাল সতর্কতা) জারি করে রেখেছে তারা। ঘণ্টায় ৬০ থেকে ৭০ কিমি বেগে ঝড়ের পাশাপাশি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনার কথাও বলা হয়েছে এই বিবৃতিতে।

আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, এই মুহূর্তে বিহার থেকে ওড়িশা পর্যন্ত একটি অক্ষরেখা বিস্তৃত রয়েছে। আগামী ৪৮ ঘণ্টায় সেটি আরও শক্তিশালী হবে। সেই সঙ্গে ঝাড়খণ্ড এবং দক্ষিণবঙ্গ সন্নিহিত অঞ্চলে একটি ঘূর্ণাবর্ত তৈরি হবে জানানো হয়েছে। এর প্রভাবেই ঝড়বৃষ্টির দাপট এতটা বাড়বে বলে জানানো হয়েছে।

ঝড়বৃষ্টির সময়ে সাধারণ মানুষকে সতর্ক থাকার অনুরোধ করা হয়েছে মৌসম ভবনের তরফ থেকে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here