হাসপাতালে রেখে সারমেয় চিকিৎসার সুযোগ খাস কলকাতাতেই

0

কিছুদিন আগেই এসএসকেএম-এ এক তৃণমূল নেতার পোষা কুকুরের ডায়ালিসিস করার চেষ্টায় সরগরম হয়েছিল রাজ্য রাজনীতি। সে যাত্রা তেমন কিছু হয়নি তবে পোষ্যের সুচিকিৎসা নিয়ে রাজ্যবাসীর চিন্তাটাও যে হেলাফেলার বিষয় নয়, সেই বিষয়টা সামনে এসেছিল ওই ঘটনায়। তবে আর নয়। বাড়িতে বুলডগ, ডোবারম্যান, অ্যালসেশিয়ান, জার্মান বস্কার, ডালমেশিয়ান অসুস্থ হলে যারা চিন্তায় পরে যান, তাদের চিন্তা কিছুটা কমল এবার ।

বেলগাছিয়া প্রাণী ও মৎস্য বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে কুকুরের চিকিৎসার জন্য চালু হল ১০ বেডের বিশেষ ইন্ডোর ওয়ার্ড। রাজ্যের প্রানীসম্পদ দফতরের উদ্যোগে এটি চালু করা হয়েছে। এর আগে এই বিশ্ববিদ্যালয়ে কেবল আউটডোরেই কুকুরের চিকিৎসা মিলত। কিন্তু এবার হাসপাতালে রেখেই চিকিৎসা চলবে। ২৪ ঘন্টাই এই পরিষেবা পাওয়া যাবে বলে প্রাণী ও মৎস্য বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা গিয়েছে। এছাড়া একই সঙ্গে এখানে আধুনিক একটি অপারেশন থিয়েটার ও একটি ক্রিটিকাল কেয়ার ইউনিটও চালু করা হয়ছে।

dog-1

পশ্চিমবঙ্গ প্রাণী ও মৎস্য বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য পূর্ণেন্দু বিশ্বাস জানিয়েছেন, ‘রাজ্যে এই ধরনের ইন্ডোর ওয়ার্ড এই প্রথম’। আপাতত ১০টি বেডের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। পরে চাহিদা অনুযায়ী আস্তে আস্তে বেডের সংখ্যা বাড়ানো হবে। ক্যাম্পাসের ক্রিটিকাল কেয়ার ৪ টি কুকুরের একসঙ্গে চিকিৎসা করা যাবে। এখানে প্রায় ২৪ ঘন্টাই এই পরিষাবা মিলবে। এখানে যে আউটডোর আছে সেখানে ১০ টা থেকে ৫ টা পর্যন্ত চিকিৎসা হয়। তাছাড়া আমাদের এখানে ইমারজেন্সি ইউনিটও আছে। সেখানেও ২৪ ঘন্টাই ১ জন ডাক্তার থাকেন চিকিৎসার জন্য’।

প্রাণীসম্পদ মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ বলেন, “শহরে এখন বহু বাড়িতেই কুকুর আছে। কিন্তু তাদের শরীরখারাপ হলে তাদের চিকিৎসার কোন পরিকাঠামো ছিল না। বেলাগাছিয়ায় কুকুরদের জন্য বিশেষ ১০ বেডের ইন্ডোর ওয়ার্ড চালু করা হয়েছে। এবার রাজ্যের অন্যান্য জেলা সদর ও ব্লকে এই ধরনের পরিষেবা চালু করতে বিশেষ উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে”।           

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন