আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস সত্যি করে প্রবল বৃষ্টি নামল শহর কলকাতায়। বিকেলে ঘণ্টা দেড়েকের বৃষ্টিতেই জলমগ্ন হয়ে পড়ল উত্তর থেকে দক্ষিণ কলকাতার বিস্তীর্ণ এলাকা। সঙ্গে দেখা দেয় তীব্র যানজট।

সোমবার বিকেল সাড়ে তিনটে থেকেই ঘন মেঘে ছেয়ে যেতে থাকে কলকাতার আকাশ। বিকেল চারটের একটু পরেই নামে প্রবল বৃষ্টি। প্রবল বৃষ্টিতে দৃশ্যমানতা কমে যায়। মাত্র দেড় ঘণ্টায় অতি প্রবল বৃষ্টির ফলে জল জমে যায় উত্তর কলকাতার সেন্ট্রাল আভিনিউ, ঠনঠনিয়া, ব্র্যাবোর্ন রোড, এম জি রোড, মুক্তারামবাবু স্ট্রিট, মধ্য কলকাতার পার্ক সার্কাস, মৌলালী, পার্ক স্ট্রিট। দক্ষিণ কলকাতার সাদার্ন অ্যাভিনিউ, ঢাকুরিয়া, বালিগঞ্জ, যোধপুর পার্ক, যাদবপুর, গড়িয়া, পাটুলি থেকেও জল জমার খবর পাওয়া গেছে। মধ্য কলকাতার সেন্ট জেভিয়ার্স কলেজের কাছে শর্ট স্ট্রিটে গাছ পড়ে যাওয়ায় যান চলাচলে বিঘ্ন ঘটেছে। প্রবল বৃষ্টি আর জল জমার জন্য তীব্র যানজটের কবলে পড়ে শহর। ‘মা’ ফ্লাইওভারের ওপরেও তীব্র যানজট হয়ে যায়।

কলকাতা পুরসভার অধিকাংশ পাম্পিং স্টেশনে জল নামানোর জন্য পাম্প চালিয়ে দেওয়া হয়েছে। পাম্পিং স্টেশনগুলিতে রেকর্ড করা বৃষ্টির পরিমাণে দেখা যাচ্ছে যোধপুর পার্কে সব থেকে বেশি বৃষ্টি হয়েছে। দেড় ঘণ্টায় সেখানে বৃষ্টির পরিমাণ ১০৪ মিলিমিটার। চেতলায় বৃষ্টি হয়েছে ৯০ মিলিমিটার।    

এত কম সময়ের মধ্যে এত বৃষ্টি কলকাতার কাছে খুবই বিরল। তাই মুখ থুবড়ে পড়ে শহরের যান চলাচল। আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস, এই মুহূর্তে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের ওপর দিয়ে বিস্তার করছে নিম্নচাপ। সেই সঙ্গে যোগ হয়েছে নতুন করে সৃষ্টি হওয়া ঘূর্ণাবর্ত। এর প্রভাবে আগামী ৪৮ থেকে ৭২ ঘণ্টায় ভারী বৃষ্টি চলবে দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জায়গায়। কোথাও কোথাও দু-এক পশলা অতি ভারী বৃষ্টিরও সম্ভাবনা আছে। 

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here