Samir mahat
সমীর মাহাত

“কুড়মালি ভাষা বাঁচাও কমিটি”র আয়োজনে রবিবার ঝাড়গ্রামের কেন্দ্রীয় বাসস্ট্যান্ডে অনুষ্ঠিত হল, কুড়মালি ভাষার গতিপ্রকৃতি নিয়ে আলোচনা চক্র। উপস্থিত ছিলেন পশ্চিমবঙ্গ কুড়মালি ডেভেলপমেন্ট বোর্ডের চেয়ারপার্সন তথা কবি- লেখক সুনীল মাহাত, ভাইস চেয়ারপার্সন শ্রীকান্ত মাহাত ও রথীন্দ্রনাথ মাহাত, ঝুমুরসম্রাট বিজয় মাহাত, সংগঠনের সম্পাদক অজিত মাহাত , শিক্ষক আলাপ মাহাত সহ বহু কুড়মি সমাজের বিশিষ্ট ব্যক্তিরা।

এদিন সুনীলবাবু বলেন,”এটি একটি ভাষা হয়ে দাঁড়াবে এ ধারণা অনেকেরই ছিল না, ছোটবেলায় পুরুলিয়ার শিবাজি সেবা সদনের ওখানে হরিপদ মাহাত স্ক্রিপ্ট তৈরি করে ভাষা চর্চা শুরু করেন কয়েক জন সহযোগীদের নিয়ে।”

প্রতিবেদকের এই অনুবাদ কবিতাটি “শান্তিদীপ” ও”সংহতি” পত্রিকায় পূর্বেই প্রকাশিত হয়েছে। অনুবাদের ক্ষেত্রে কবির মূল কবিতার ছন্দ ও মাত্রার মান অপরিবর্তিত। আক্ষরিকের বদলে ভাবানুবাদ করতে গিয়ে কয়েকটি শব্দের কুড়মালি রূপ দেওয়া সম্ভব হয়নি।

হুঁইশার মাঝি

গুপা পাথৈরা কুধা রুখা বালি তেড় পাইরাতে,
হুঁইশার মাঝি ফাঁইফ্ছে জল পত্ ভুলেঞেছে মাঝি ,
ফয়ার পাল ধরবি বেলুয়া কেবাআছে বেড়ি ঝাঁঝি,
কই মুইসান আউগা করান আগুই হাঁকাছি,
দমে ভারি ঝড় পাইরাতে পড় সঁগে লৌকা পাইর্ কাতে।।

আঁধার রাইত মাঁঞ মনতর সঁঘিরা সাবধান
বলে আওগাতে পুন্নাকাইলা বেথা জমাট পরাণ,
বুজবুজি কাঢ়ে হা ফফরা ছাতি পিঁজাল চাড় হেঁজড়ান,
পথের হাঁটাই সোবকে বাঁটাই অধিকার পাওয়াতে।।

মরৈনা জাত মৈরছে ডুবকে যে নাঁঞ জানে সাঁতার
দেইখ্ ব মাঝি আইজ মুরাদ মাঁপন হিঁচড়ে আনার
“হিন্দু ন অরা মুসলিম” কনঅনাঁঞ সুইধাবার?
মাঝি তুঁই বল ডুইবছে মানুষ একেই মাঁঞের এক সাথে।।

গুপাবাজা পথ পেলু পথ সংঘ্ হাড়হিড়াছেই বাজ
পেছুর লকের মন গিলা সোব দওয়া ভওয়া আজ।
মাঝি নকি তুঁই পথ বিল্ হাবি পুচকাবি পথ সঙ
চলে হায়ারাচা তবু তুঁই বাঁচা ভুখলা ভার টানিতে।

ওহে মাঝি তর আগুরইদকে পলাশি ডাহির মাথা
ক্লাইভের চাকু বাঙালি রকতে রাঙা ইমাথা উমাথা।
গঙ্গা জলে টুইভ্কে গেছে ভারতেই বেলাটা
বেলা উঠা ফের ফের উঠবেক হামদেরই রকতে।।

ফাঁস নিঞে যারা গাহে গেল সোব বাঁইচে থাকার গান
ডিডিঞাঁয় আছে নিথানিতে অরা হবেক বদাছিয়ান!
ইপাশ উপাস আইজ জাইত নিস্তার জান জাহান।
মাঝি হুঁইশার ফাঁইফছে জল লড়ন লৌকাতে।।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন