Connect with us

রাজ্য

পশ্চিমবঙ্গের বেশ কিছু জায়গায় ফের কড়া লকডাউনের জল্পনা

কলকাতার ১৯টি রাস্তাকে পুরোপুরি সিল করে দেওয়া হচ্ছে।

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: করোনার (Coronavirus) সংক্রমণ উত্তরোত্তর বাড়তে থাকায় রাজ্যের একাধিক শহরে ফের কড়া লকডাউনের (Lockdown) জল্পনা। ইতিমধ্যে কলকাতার অতি সংক্রমিত বেশ কিছু জায়গায় ফের কড়া লকডাউন ফিরিয়ে আনার সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে রাজ্য। একই ভাবে উত্তর ২৪ পরগণাতেও এই পরিকল্পনা বাস্তবায়িত করার চেষ্টা হচ্ছে।

লকডাউনে কলকাতার বেশ কিছু ওয়ার্ড

নবান্ন সূত্রে খবর, কলকাতার ১৯টি রাস্তাকে পুরোপুরি সিল করে দেওয়া হচ্ছে। এর মধ্যে ৭, ১৩, ৩১, ৭৪, ৯৪ নম্বর ওয়ার্ডে দু’টি করে রাস্তা রয়েছে। এ ছাড়াও ভবানীপুরের ৭০ ও দেশপ্রিয় পার্কের লাগোয়া ৮৫ নম্বর ওয়ার্ডে তিনটি করে রাস্তা পুরোনো লকডাউনের নিয়মে সিল করা হচ্ছে।

Loading videos...

বরো হিসাবে ১, ৩, ৮, ৯ ও ১০ নম্বরে সংক্রমিত রোগীর সংখ্যা বেশি। তাই সেখানেও বিশেষ নজর দেওয়া হচ্ছে।

কলকাতার বিভিন্ন থানার ওসি-দের নিজেদের এলাকায় করোনা হটস্পট চিহ্নিত করতে বলা হয়েছে। কলকাতার ছবিটা তুলে ধরে পুরসভার মুখ্য প্রশাসক ফিরহাদ হাকিম বলেন, নবান্ন ‘হটস্পট আইন’ বলবৎ করার পথে হাঁটতে পারে।

যদিও সংক্রমণ রুখতে কলকাতায় ‘কড়া পদক্ষেপ’ বলতে নির্দিষ্ট ‘এরিয়া সিল’ না আগের মতো ‘সার্বিক লকডাউন’ তা স্পষ্ট করেননি পুরমন্ত্রী।

কলকাতায় বেশি আক্রান্ত বহুতলের বাসিন্দারা

কলকাতায় গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনা আক্রান্ত (Coronavirus) হয়েছেন ২৮১ জন। এর মধ্যে মাত্র ৩৭ জন বস্তিবাসী। বাকি ২৪৪ জনই ফ্ল্যাট এবং বহুতল ও পাকা বাড়ির বাসিন্দা।

পুরসভার তথ্য, গত দশ দিনে মহানগরে নতুন আক্রান্তদের ৪০ শতাংশ ফ্ল্যাট বাড়ি, ৪৫ শতাংশ পাকাবাড়ি এবং মাত্র ১৫ শতাংশ বসতি এলাকার বাসিন্দা।

শহরের সংক্রমণের হার বৃদ্ধির নেপথ্যে যে এক শ্রেণির সম্পন্ন গৃহস্থের ‘চরম উদাসীনতা ও উন্নাসিকতা’ দায়ী, তা এই তথ্য দিয়ে সোমবার জানিয়েছেন কলকাতার মুখ্য প্রশাসক ও পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম (Firhad Hakim)।

রাজ্যের মত হল, বাইরের রাজ্য থেকে অনেকেই করোনা আক্রান্ত হয়ে কলকাতায় ফিরেছেন। সে কারণে ছড়িয়ে পড়ছে এই ভাইরাস। তাদের আশা, আগামী কয়েক দিন উড়ান পুরোপুরি বন্ধ করে দেওয়া আর স্পেশাল ট্রেনের সংখ্যা কমিয়ে দেওয়ার ফলে নতুন সংক্রমণ কিছুটা কমতেও পারে।

উত্তর ২৪ পরগণা নিয়ে রাজ্যের ভাবনা

কড়া লকডাউনের পথে হাঁটতে চলেছে বারাসতও (Barasat)। মঙ্গলবার থেকে চায়ের দোকান ও খাবারের স্টল বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে জেলা পুলিশ। একই সঙ্গে ফুটপাথের উপর সব খাবারের স্টলও বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে পুলিশ।

বারাসাতের পাশাপাশি বিধাননগর, দক্ষিণ দমদম, বসিরহাট পুরসভাতেও করোনার বাড়বাড়ন্ত চিন্তায় রাখছে প্রশাসনকে।

উত্তর ২৪ পরগনা জেলা প্রশাসনের একটি খসড়া পরিকল্পনা তৈরি করেছে। ওই পরিকল্পনায় ১৪ দিনের জন্য বাজার, গণপরিবহণ, ধর্মীয় স্থান বন্ধ রাখার প্রস্তাব রয়েছে। মাত্র ২০ শতাংশ কর্মী নিয়ে অফিস-কারখানা চালানোর কথা বলা হয়েছে।

মালদায় লকডাউন

বুধবার থেকে সাত দিনের জন্য জেলার ইংরেজবাজার (English Bazar), পুরাতন মালদা (Old Malda) এবং কালিয়াচকের তিনটি এলাকায় কার্যত লকডাউনের পথে হাঁটতে চলেছে প্রশাসন ও পুলিশ।

বুধবার সকাল থেকে সাত দিন পর্যন্ত এই বিধি কার্যকর থাকবে। বেলা ২টো পর্যন্ত নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী কেনাবেচা চললেও তার পর থেকে সমস্তই বন্ধ হবে, বাইরে বার হতেও নিষেধাজ্ঞা থাকবে।

শিলিগুড়িতে লকডাউন-জল্পনা

গত কয়েক দিনে শিলিগুড়িতে (Siliguri) যে ভাবে করোনা-আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে তাতে শহরে নতুন করে লকডাউন আরোপ করার দাবি করেছেন দার্জিলিংয়ের সাংসদ রাজু বিস্তা। সাংসদ ছাড়াও রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতরের কর্তাদের একাংশও লকডাউনের কথা ভাবছে।

শিলিগুড়ির ৪৬, ২৮, ১৮ নম্বরের মতো বেশ কিছু ওয়ার্ডে সংক্রমণ যে ভাবে বাড়ছে তাতে ওই এলাকাগুলিতে পূর্ণ লকডাউনের কথা ভাবা উচিত বলে চিকিৎসকদের একাংশের মত। প্রশাসনের তরফে শহরের বেশ কিছু বাজার বন্ধ রাখা হয়েছে।

১৪ দিন বন্ধ রাখা হয়েছিল শিলিগুড়ি নিয়ন্ত্রিত বাজার এবং চম্পাসারি বাজার। তবে লাগোয়া ৪৬ নম্বর ওয়ার্ডে তাতেও সংক্রমণ ঠেকানো যায়নি। তাই এলাকাভিত্তিক পূর্ণ লকডাউন জরুরি, বলছে প্রশাসনের একাংশও।

রাজ্য

রাজ্যে আরও কমল দৈনিক সংক্রমণের হার, ১৩ জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা এক অঙ্কে

সুস্থতার হার ৯৭ শতাংশে ছুঁইছুঁই।

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রাজ্যে দৈনিক সংক্রমণের হার আরও কিছুটা কমল শুক্রবার। সংক্রমণের হারটি ধীরে ধীরে দুই শতাংশের নীচে চলে যাওয়ার ইঙ্গিত দিচ্ছে। অন্যদিকে, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যের ১৩টি জেলায় দৈনিক সংক্রমণ ছিল এক অঙ্কে।

রাজ্যের কোভিড তথ্য

গত ২৪ ঘণ্টায় পশ্চিমবঙ্গে নতুন করে কোভিডে (Covid 19) আক্রান্ত হয়েছেন ৬২৩ জন। এর ফলে রাজ্যে মোট কোভিডরোগীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৫ লক্ষ ৬৪ হাজার ৯৮ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৬৫৬ জন। এর ফলে এখনও পর্যন্ত রাজ্যে মোট কোভিডজয়ীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৫ লক্ষ ৪৬ হাজার ৮৪৯ জন। নতুন করে আরও ১৬ জনের মৃত্যু হওয়ায় রাজ্যে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১০ হাজার ২৬।

Loading videos...

রাজ্যে বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৭ হাজার ২২৩ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ৪৯ জন সক্রিয় রোগী কমেছে রাজ্যে। রাজ্যে সুস্থতার হার বর্তমানে ৯৬.৯৪ শতাংশ।

দৈনিক সংক্রমণের হার আরও কমল

তবে আক্রান্তের সংখ্যা কমলেও রাজ্যে দৈনিক সংক্রমণের হার কিছুটা বেড়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ৩০ হাজার ৫৬০টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। ফলে এ দিন দৈনিক সংক্রমণের হার ছিল ২.০৩ শতাংশ।

এ দিকে রাজ্যে সামগ্রিক সংক্রমণের হারও আরও কিছুটা কমেছে। এখনও পর্যন্ত রাজ্যে মোট ৭৫ লক্ষ ৯১ হাজার ১২১টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। সংক্রমণের হার রয়েছে ৭.৪৩ শতাংশ।

হাসপাতাল শয্যা-তথ্য

সুস্থতা বাড়তে থাকায় হাসপাতালের শয্যা কিন্তু ধীরে ধীরে বাড়ছে রাজ্যে। বর্তমানে রাজ্যে সরকারি এবং বেসরকারি মিলিয়ে মোট ১০২টি হাসপাতালে কোভিড চিকিৎসা হচ্ছে। রাজ্য জুড়ে মোট ১২ হাজার ৮৪০টি শয্যা চিকিৎসার জন্য চিহ্নিত রয়েছে। এর মধ্যে মাত্র ৮.২০ শতাংশ শয্যা বর্তমানে ভরতি রয়েছে।

কলকাতায় কমলেও উত্তর ২৪ পরগণায় সক্রিয় রোগী বাড়ল

কলকাতা এবং উত্তর ২৪ পরগণায় নতুন সংক্রমণ দুশোর নীচে নেমে এসেছে। যদিও, কলকাতায় কমলেও উত্তর ২৪ পরগণায় সক্রিয় রোগীর সংখ্যা বেড়ে গিয়েছে।

কলকাতায় গত ২৪ ঘণ্টায় ১৭১ জন এবং উত্তর ২৪ পরগণায় ১৮৫ জন নতুন করে কোভিডে আক্রান্ত হয়েছেন। কলকাতায় ১৮৫ আর উত্তর ২৪ পরগণায় ১৪৯ জন সুস্থ হয়েছেন। দুই জেলাতেই ৫ জন করে রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

কলকাতায় এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১ লক্ষ ২৬ হাজার ৪২১। উত্তর ২৪ পরগণায় মোট আক্রান্ত ১ লক্ষ ২০ হাজার ৪২। কলকাতায় বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ১,৪২০ জন এবং উত্তর ২৪ পরগণায় ১,৭৯৩।দুই জেলায় মৃত্যু হয়েছে যথাক্রমে ৩,০৪০ এবং ২,৪২৭ জনের।

পড়শি জেলাগুলিতে সংক্রমণ অপরিবর্তিত

কলকাতার পড়শি তিন জেলায় সংক্রমণচিত্রটি কার্যত অপরিবর্তিত রয়েছে। দক্ষিণ ২৪ পরগণায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৭ জন, সুস্থ হয়েছেন ১৭ জন।

হুগলিতে ৩৩ জন আক্রান্ত এবং ৩৮ জন সুস্থ হয়েছেন। হাওড়াতে নতুন করে আক্রান্ত করে আক্রান্ত ২৯ এবং সুস্থ হয়েছেন ৩৭ জন। হুগলিতে সক্রিয় রোগী ৩৭১, হাওড়ায় ৩২৬ এবং দক্ষিণ ২৪ পরগণায় ৩২৪।

১৩ জেলায় নতুন সংক্রমণ এক অঙ্কে

শুক্রবার রাজ্যের ১৩টি জেলায় নতুন সংক্রমণ ছিল এক অঙ্কের ঘরে। এই জেলাগুলি হল আলিপুরদুয়ার (১), কোচবিহার (১), ঝাড়গ্রাম (১), কালিম্পং (২), দক্ষিণ দিনাজপুর (৩), পুরুলিয়া (৪), পশ্চিম মেদিনীপুর (৪), জলপাইগুড়ি (৫), উত্তর দিনাজপুর (৫), পূর্ব মেদিনীপুর (৫), বাঁকুড়া (৭), পূর্ব বর্ধমান (৭), মুর্শিদাবাদ (৮)।

Continue Reading

রাজ্য

ভোট প্রস্তুতি তুঙ্গে! রাজ্যে আসছে নির্বাচন কমিশনের ফুল বেঞ্চ

বুধবার রাজ্যে আসছে কমিশনের ফুল বেঞ্চ।

Published

on

election commission of india
নির্বাচন কমিশন। ফাইল ছবি

কলকাতা: আগামী বুধবার (২০ জানুয়ারি) রাজ্যে আসছে নির্বাচন কমিশনের ফুল বেঞ্চ।

এর আগে দু’দিনের সফরে রাজ্যে এসেছিলেন উপ নির্বাচন কমিশনার সুদীপ জৈন। তিনি গত বৃহস্পতিবারই দিল্লি ফিরেছেন। কলকাতা ছাড়ার আগে জানিয়েছিলেন, খুব শীঘ্রই রাজ্যে আসছে কমিশনের ফুল বেঞ্চ। একই সঙ্গে বেশ কয়েকটি জায়গায় আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন জৈন।

এ দিন জানা যায়, আগামী বুধবার বিকেল সাড়ে ৪টে নাগাদ রাজ্যে পৌঁছাবে কমিশনের ফুল বেঞ্চ। বৃহস্পতিবার নির্বাচন সম্পর্কিত সমস্ত বিভাগের ঊর্ধ্বতন আধিকারিকদের সঙ্গে দফায় দফায় বৈঠক করবে কমিশন।

Loading videos...

বৈঠক হবে বিভিন্ন জেলার ডিএম-এসপিদের পাশাপাশি প্রশাসনের পদস্থ আধিকারিকের সঙ্গেও। এ ছাড়া আয়কর দফতরের আধিকারিক এবং বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের প্রতিনিধিদের সঙ্গেও বৈঠক করবে কমিশনের ফুল বেঞ্চ।

নির্বাচন কমিশন সূত্রে খবর, রাজ্যে আসতে পারেন মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরা, নির্বাচন কমিশনার সুশীল চন্দ্র এবং রাজীব কুমার। তার পরেই ফেব্রুয়ারির মাঝামাঝি বিধানসভা ভোটের বিজ্ঞপ্তি জারি করতে পারে কমিশন।

বিবেচনায় করোনা

করোনা সংক্রমণ এড়াতে এ বার প্রায় ২৫ হাজারের মতো বুথ বাড়ানোর পরিকল্পনা রয়েছে কমিশনের। ভোটগ্রহণ কেন্দ্রের জন্য স্থান বাছাইয়েরও কাজ চলছে।

গত বিধানসভা ভোটে রাজ্যের ২৯৪টি বিধানসভা কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ হয়েছিল ছ’টি পর্যায়ে। তবে এ বার নির্বাচনের পর্যায় সংখ্যাও বাড়ানো হতে পারে। ক’টি পর্যায়ে ভোটগ্রহণ হবে, তা এখনই বলা সম্ভব না হলেও পর্যায়ের সংখ্যা যে বাড়বে, তেমনটাই ইঙ্গিত দিয়েছে কমিশন।

এ বারের ভোটে ৮০ বছরের ঊর্ধ্বে হলে পোস্টাল ব্যালটের সুবিধা পাওয়া যাবে। শারীরিক ভাবে অক্ষমরাও পোস্টাল ব্যালটে ভোট দিতে পারবেন। আবেদন করলে নির্বাচন কমিশন বাড়িতে পৌঁছে যাবে।

চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ

শুক্রবার ২০২১ বিধানসভা ভোটের আগে রাজ্যের চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করেছে নির্বাচন কমিশন। নতুন তালিকা অনুযায়ী, রাজ্যে এখন মোট ভোটারের সংখ্যা ৭ কোটি ৩২ লক্ষ ৯৪ হাজার ৯৮০। ভোটারের সংখ্যা বেড়েছে ২০ লক্ষ ৪৫ হাজার ৫৯৩।

সংশোধিত তালিকায় পুরুষ ভোটার ৩ কোটি ৭৩ লক্ষ ৬৬ হাজার ৩০৬ এবং মহিলা ভোটারের সংখ্যা ৩ কোটি ৫৯ লক্ষ ২৭ হাজার ৮৪, পাশাপাশি তৃতীয় লিঙ্গের ভোটার রয়েছেন ১ হাজার ৭৯০ জন।

আরও পড়তে পারেন: রোজভ্যালি-কাণ্ডে শুভ্রা কুণ্ডুকে গ্রেফতার করল সিবিআই

Continue Reading

রাজ্য

শতাব্দী রায়ের ‘মানভঞ্জনে’ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়

শনিবার দিল্লি যাচ্ছেন না শতাব্দী রায়।

Published

on

বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি শতাব্দী রায়

খবর অনলাইন ডেস্ক: দিনভর টানাপোড়েনের পর শুক্রবার সন্ধ্যায় তৃণমূল সাংসদ শতাব্দী রায় (Satabdi Roy) পৌঁছেছিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Abhishek Banerjee) ক্যামাক স্ট্রিটের অফিসে। ‘আপাতত’ বরফ গলল সেখানেই!

বৃহস্পতিবার ফেসবুকের পোস্টে বিস্ফোরক মন্তব্য়ের পর এ দিন তিনি সংবাদ মাধ্যমের কাছে জানান, দিল্লি যাচ্ছেন। অমিত শাহের (Amit Shah) সঙ্গে সাক্ষাতের সম্ভাবনাও জিইয়ে রাখেন। স্বাভাবিক ভাবেই বীরভূমের সাংসদের ‘মানভঞ্জনে’ দলের একের পর নেতা তাঁকে ফোন করেন।

এ দিন শতাব্দীর বাড়িতে যান প্রাক্তন সাংসদ কুণাল ঘোষ (Kunal Ghosh)। বাড়িতে গিয়ে ‘বেসুরো’ দলীয় সাংসদের সঙ্গে সাক্ষাৎ প্রসঙ্গে তিনি অবশ্য সংবাদ মাধ্যমকে জানান, “আমার বহুদিনের বন্ধু শতাব্দী। তাই গল্প করতে এসেছি”।

Loading videos...

এর কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই জানা যায়, শতাব্দীকে সঙ্গে নিয়ে অভিষেকের অফিসে পৌঁছান কুণাল। সন্ধে সাড়ে ৬টা নাগাদ ক্যামাক স্ট্রিটে যুব তৃণমূল সভাপতি ও ডায়মন্ড হারবারের সাংসদের অফিসে আসেন শতাব্দী ও কুণাল। সেখানে শতাব্দীর ক্ষোভ নিয়ে প্রায় ঘণ্টা দুয়েক আলোচনা হয়।

সূত্রের খবর, ওই বৈঠকে তাঁকে ‘বোঝানো’র চেষ্টা চলে, তিনি যাতে অন্যরকম কোনো পদক্ষেপ না করেন। কোথায় বা কী বিষয়ে তাঁর ক্ষোভ রয়েছে, সেই ক্ষোভ মেটাতে কী করতে হবে, এই সমস্ত বিষয় নিয়েই আলোচনা হয়।

বৈঠক শেষে শতাব্দী বলেন, “আমার যে কথাগুলো বলার ছিল, যে অভিযোগ-অভিমান ছিল, তা অভিষেককে বলেছি। সব কিছু বলার পর আমার মনে হয়েছে, সমস্যার সমাধান হবে। আমি দলে আছি। আমাদের প্রত্যেকের দরকার, এ মুহূর্তে দলের সঙ্গে থাকা”।

একই সঙ্গে তিনি জানিয়ে দেন, “শনিবার দিল্লি যাচ্ছি না। ফেসবুক লাইভ-ও করছি না। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গেই আছি”।

আরও পড়তে পারেন: ক্ষোভ প্রশমনে শতাব্দী রায়কে ফোন তৃণমূল নেতৃত্বের

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
বিদেশ3 days ago

১৯৫৩ সালের পর থেকে প্রথম কোনো মহিলার মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করল মার্কিন সরকার

শিল্প-বাণিজ্য3 days ago

ফের বাড়ল পেট্রোল-ডিজেলের দাম!

বিনোদন3 days ago

কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে ‘অভিযাত্রিক’, সিনেমার ‘মাস্টার’দের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি

দেশ23 hours ago

করোনার টিকা নেওয়ার পর অসুস্থ হলে দায় নেবে না কেন্দ্র

দেশ3 days ago

গ্রেফতার অ্যালকেমিস্ট কর্ণধার কেডি সিং!

দেশ15 hours ago

নবম দফার বৈঠকেও কাটল না জট, ফের কৃষকদের সঙ্গে আলোচনায় বসবে কেন্দ্র

কলকাতা2 days ago

বাগবাজার ব্রিজের কাছে বস্তিতে বিধ্বংসী আগুন, ছড়াল পার্শ্ববর্তী বহুতলেও

কলকাতা2 days ago

অগ্নিকাণ্ডে গৃহহীনদের ঘর তৈরি করে দেবে পুরসভা, বাগবাজারে জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

কেনাকাটা

কেনাকাটা4 days ago

৯৯ টাকার মধ্যে ব্র্যান্ডেড মেকআপের সামগ্রী

খবর অনলাইন ডেস্ক : ব্র্যান্ডেড সামগ্রী যদি নাগালের মধ্যে এসে যায় তা হলে তো কোনো কথাই নেই। তেমনই বেশ কিছু...

কেনাকাটা1 week ago

কয়েকটি ফোল্ডিং আইটেম খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক: এমন অনেক কিছুই থাকে যেগুলি সঙ্গে থাকলে অনেক সুবিধে হত বলে মনে হয়, কিন্তু সব সময় তা পাওয়া...

কেনাকাটা1 week ago

রান্নাঘরের কাজ এগুলি সহজ করে দেবেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরের কাজ অনেক বেশি সহজ করে দিতে পারে যে সমস্ত জিনিস, তারই কয়েকটির খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন...

কেনাকাটা1 week ago

ম্যাক্সিড্রেসের নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সুন্দর ম্যাক্সিড্রেসের চাহিদা এখন তুঙ্গে। সামনেই কোনো আনন্দ অনুষ্ঠানের নিমন্ত্রণ থাকলে ম্যাক্সি পরতে পারেন। বাছাই করা কয়েকটি ড্রেসের...

কেনাকাটা2 weeks ago

রকমারি ডিজাইনের ৯টি পুঁটলি ব্যাগের কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: বিয়ের মরশুমে নিমন্ত্রণে যেতে সাজের সঙ্গে মিলিয়ে ব্যাগ নেওয়ার চল রয়েছে। অনেকেই ডিজাইনার ব্যাগ পছন্দ করেন। তেমনই কয়েকটি...

কেনাকাটা2 weeks ago

কস্টিউম জুয়েলারির দারুণ কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: বিয়ের মরশুম আসছে। নিমন্ত্রণবাড়ি তো লেগেই থাকে। সেখানে আজকাল সোনার গয়নার থেকে কস্টিউম বা জাঙ্ক জুয়েলারি পরে যাওয়ার...

কেনাকাটা2 weeks ago

রুম হিটারের কালেকশন, ৬৫০ থেকে শুরু

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ভালোই শীত চলছে। এই সময় রুম হিটারের প্রয়োজনীয়তা খুবই। তা সে ঘরের জন্যই হোক বা অফিস, বা কোথাও...

কেনাকাটা3 weeks ago

চোখের যত্ন নিতে কিনুন এগুলি, খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক: অনেকেই আছেন সারা দিনের ব্যস্ততার মাঝে যদিও বা পা, হাত বা মুখের টুকটাক যত্ন নেন, কিন্তু চোখের বিশেষ...

কেনাকাটা4 weeks ago

ফিলগুড প্রোডাক্ট! পছন্দ হবেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দিনের মধ্যে কিছু সময় যদি নিজের মতো করে নিজের জন্য দেওয়া যায় তা হলে মন যেমন ভালো থাকে...

কেনাকাটা4 weeks ago

জায়গা বাঁচানোর জন্য বিভিন্ন রকমের অর্গানাইজার, দেখে নিন খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রোজকার ঘরে ব্যবহারের জন্য এমন অনেক জিনিস আছে যেগুলি থাকলে যেমন জায়গার সাশ্রয় হয় তেমনই সময়েরও। জায়গা বাঁচানোর...

নজরে