বর্ষাকে ত্বরান্বিত করতে বঙ্গোপসাগরে হাজির নিম্নচাপ, প্রাক-বর্ষার পরিস্থিতি গোটা রাজ্যে

0
1270

কলকাতা: অস্বস্তিকর গরমের পরিস্থিতি অবশেষে শেষ হল। সরকারি ভাবে প্রাক-বর্ষার পরিস্থিতি এখন গোটা রাজ্যে। সেই সঙ্গে থমকে থাকা বর্ষাকে ত্বরান্বিত করতে বঙ্গোপসাগরে হাজির হয়েছে একটি নিম্নচাপ। এই নিম্নচাপের হাত ধরেই আর দু’তিন দিনের মধ্যে মৌসুমী বায়ুর পদার্পণ ঘটবে রাজ্যে। এমনই জানিয়েছে আবহাওয়া দফতর।

এ বছর কেরল এবং উত্তরপূর্ব ভারতে তড়িঘড়ি হাজির হয়ে গিয়েছিল বর্ষা। তার পরই অবশ্য নট নড়নচড়ন, বিশেষ করে পূর্ব প্রান্তে। এক দিকে পশ্চিম প্রান্তে যখন রাতারাতি মুম্বইয়ের কাছাকাছি পৌঁছে গিয়েছে বর্ষা, তখন পূর্বে এ রকম ভাবে থমকে যাওয়ায় চিন্তিত হয়ে পড়েছিলেন বর্ষাপ্রত্যাশীরা। বর্ষার এই বিপরীতধর্মী চরিত্রের কারণ ছিল আরব আগরে একটি নিম্নচাপ। ওই নিম্নচাপটি পূর্ব উপকূল থেকে মৌসুমী বায়ুর সব শক্তিকে ছিনতাই করে নেয়। পূর্বে বর্ষাকে গতিপ্রাপ্ত করার জন্য ছিল প্রয়োজন ছিল একটি নিম্নচাপ। অবশেষে সেটি হাজির।

আবহাওয়া দফতরের সূত্রে বলা হয়েছে, দক্ষিণ ওড়িশা এবং উত্তর অন্ধ্র উপকূল লাগোয়া অঞ্চলে এই নিম্নচাপ সৃষ্টি হয়েছে। কেমন আচরণ করবে এই নিম্নচাপটি? বেসরকারি আবহাওয়া সংস্থার ওয়েদার আল্টিমার কর্ণধার তথা আবহাওয়া বিশেষজ্ঞ রবীন্দ্র গোয়েঙ্কা বলেন, “আরব সাগর থেকে জলীয় বাস্প নিজের কাছে টেনে নিচ্ছে এই নিম্নচাপটি। আগামী ৪৮ ঘণ্টায় এটি গভীর নিম্নচাপে পরিণত হবে এবং পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় সেটি অতি-গভীর নিম্নচাপে পরিণতও হতে পারে।” এই নিম্নচাপের প্রভাবে পশ্চিমবঙ্গ-সহ সমগ্র পূর্ব ভারতে যে মৌসুমী বায়ু ছড়িয়ে পড়বে সে ব্যাপারে আশাবাদী রবীন্দ্রবাবু। এই নিম্নচাপের প্রভাব সরাসরি পশ্চিমবঙ্গের ওপর পড়বে কি না, সেটা এখনই বলা যাবে না, তবে পশ্চিমবঙ্গ উপকূলে না এলেও, এর প্রভাবেই আগামী রবি এবং সোমবার জোরদার বৃষ্টি হতে পারে কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গে।

তবে ইতিমধ্যেই প্রাক-বর্ষার পরিস্থিতি গোটা রাজ্যে। রোজই দুপুরের পর কয়েক পশলা বৃষ্টি হচ্ছে দক্ষিণবঙ্গে। এর ফলে সকালের পর তাপমাত্রাও খুব একটা বেশি বাড়তে পারছে না। বর্ষা না আসা পর্যন্ত রোজই এ রকম বৃষ্টি হবে বলে পূর্বাভাস আবহাওয়া দফতরের।

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here