কলকাতা: জুন-জুলাইয়ে অনাবৃষ্টির ফলে দক্ষিণবঙ্গে চূড়ান্ত বৃষ্টির ঘাটতি দেখা দিয়েছিল। আগস্ট পড়তেই সেটা ধীরে ধীরে কমছে। এর কারণ একের পর এক নিম্নচাপ তৈরি হওয়া। বর্তমানে যে নিম্নচাপ মধ্য ভারতে চলে গিয়েছে, তার প্রভাবে রবিবার দিনভর ব্যাপক বৃষ্টি হয় দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলায়। তাতে বৃষ্টির ঘাটতি আরও কিছুটা কমেছে। তবে এই সপ্তাহের মাঝামাঝি ফের নতুন একটি নিম্নচাপের সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে।

এই মুহূর্তে দক্ষিণবঙ্গের মধ্যে হুগলি জেলায় বৃষ্টির পরিস্থিতি সব থেকে ভালো। এই জেলায় স্বাভাবিকের ৯১ শতাংশ বৃষ্টি হয়ে গিয়েছে। অর্থাৎ ঘাটতি রয়েছে মাত্র ৯ শতাংশের। এর পরেই পূর্ব মেদিনীপুর জেলা, সেখানে ঘাটতি মাত্র ১১ শতাংশে এসে ঠেকেছে। পুরুলিয়া, পশ্চিম মেদিনীপুরেও বৃষ্টির ঘাটতি কমেছে অনেকটা।

তবে কলকাতা, দক্ষিণ এবং উত্তর ২৪ পরগণায় বৃষ্টির ঘাটতি এখনও চল্লিশ শতাংশের ওপরে। সেটা কিছুটা চিন্তা রাখছে। যদিও আবহাওয়া বিশেষজ্ঞদের আশা আগস্ট শেষ হওয়ার আগেই এই ঘাটতি অনেকটাই কমে যাবে।

তবে বর্তমান নিম্নচাপটির প্রভাব কেটে যাওয়ায় মঙ্গলবার বৃষ্টির কোনো সম্ভাবনাই কার্যত নেই দক্ষিণবঙ্গে। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা বেড়ে পঁয়ত্রিশ ডিগ্রি সেলসিয়াসে চলে যেতে পারে। এমনকি বুধবারও সারা দিন গরম থাকতে পারে দক্ষিণবঙ্গে। তবে ওই দিন সন্ধ্যার পর থেকে ফের বৃষ্টির সম্ভাবনা তৈরি হবে।

আবহাওয়া দফতর থেকে জানানো হয়েছে যে বৃহস্পতিবার নাগাদ বঙ্গোপসাগরে নতুন নিম্নচাপটি তৈরি হবে। ওই নিম্নচাপও যথেষ্ট শক্তিশালী হতে পারে। তার প্রভাবে বৃহস্পতিবার থেকে পরের কয়েকদিন দক্ষিণবঙ্গে ফের কয়েক দফায় ভারী বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

আরও পড়তে পারেন

গান্ধী-নেহরুকে অপমান করে দেশের ইতিহাস বিকৃত করছে কেন্দ্র, তোপ দাগলেন সনিয়া

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন