Connect with us

মালদা

মুখ্যমন্ত্রীকে নিয়ে অশালীন মন্তব্য, গ্রেফতার ওয়েইসির দলের নেতা

মালদা: সোশ্যাল মিডিয়ায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে নিয়ে অশালীন মন্তব্য করায় গ্রেফতার আসাদউদ্দিন ওয়েইসির দল এআইএমআইএম নেতা মোতিউর রহমান। বুধবার গভীর রাতে তাঁকে মালদার চাঁচলে নিজের বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। 

পেশায় মাদ্রাসা শিক্ষক মোতিউরবাবুর বিরুদ্ধে মুখ্যমন্ত্রীকে নিয়ে অশালীন মন্তব্য করার অভিযোগ দায়ের হয় চাঁচল থানায়। তাঁকে গ্রেফতার করে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৫০৫, ৫০৯ ও তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৬৭ ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। 

আরও পড়ুন ৬ মাস বাদে ফিরছেন রাহুল গান্ধী, কংগ্রেসে প্রস্তুতি তুঙ্গে

তবে এই ঘটনায় পুলিশের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছে স্থানীয় এআইএমআইএম নেতৃত্ব। তাদের দাবি, বিনা কারণেই ওই নেতাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সংগঠনের এক নেতা বলেন, “আমাদের এখানে মিটিং মিছিল করতে দেওয়া হচ্ছে না। ভুয়ো মামলা দিয়ে সংগঠনের সদস্যদের গ্রেফতারির চেষ্টা চলছে। মোতিউরের গ্রেফতারি তৃণমূলের চক্রান্ত। পশ্চিমবঙ্গে যে হারে এআইএমআইএমের সংগঠন বাড়ছে তাতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ভয় পেয়েছেন।” 

মালদা

মালদায় বজ্রপাতে মৃত ৩

মালদা: বজ্রপাতে তিন জনের মৃত্যু হল মালদায় (Malda)। বৃহস্পতিবার বিকেলে এই ঘটনাটি ঘটে হরিশ্চন্দ্রপুর (Harishchandrapur) থানা এলাকায়। গুরুতর আহত হয়েছেন এক জন।

বৃহস্পতিবার দুপুরের পর থেকেই প্রবল ঝড় শুরু হয় মালদার বিভিন্ন প্রান্তে। ঝড়বৃষ্টির মধ্যেই হরিশ্চন্দ্রপুর থানা এলাকায় তিনটে জায়গায় ভয়াবহ বজ্রপাত হয়। মারা যান তিন জন।

মৃতদের মধ্যে রয়েছে হরিশ্চন্দ্রপুর ১ নম্বর ব্লক এলাকার বারদুয়ারী দক্ষিণ রামনগর গ্রামের মিঠু কর্মকার। মাঠে কাজ করছিলেন সে সময়। বাজ পড়ে প্রাণ হারান।

বাকি দু’ জনও মাঠে কাজ করছিলেন। এ ছাড়াও বজ্রপাতের ফলে রামনগর এলাকার কৃষ্ণ সাহা নামের এক ব্যাক্তি গুরুতর আহত হন।

তাঁকে প্রথমে হরিশ্চন্দ্রপুর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এর পর অবস্থার অবনতি ঘটায় তাকে চাঁচল সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়েছে। এই ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর কলকাতা ও তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে বিক্ষিপ্ত ঝড়বৃষ্টি হলেও রাতের দিকে সাংঘাতিক বজ্রপাত হয়। শহরবাসীর মধ্যে অনেকেই এতে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন।

Continue Reading

মালদা

শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনে মৃত্যু মালদহের অভিবাসী শ্রমিকের

মালদহ: শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনে মৃত্যুমিছিল যেন থামছেই না! এ বার গুজরাতের সুরত থেকে বাড়ি ফেরার পথে ট্রেনের মধ্যেই মৃত্যু হল মালদহের (Maldah) এক বছর পঞ্চাশের বাসিন্দার।

ঘটনায় প্রকাশ, গত ৩০ বছর ধরে সুরতের হোটেলে কাজ করতেন মালদহের হরিশচন্দ্রপুরের ১ নম্বর ব্লকের বাসিন্দা বুধিয়া পাহাড়ি। করোনাভাইরাস লকডাউনের (Coronavirus lockdown) জেরে গত কয়েক মাস আটকে ছিলেন সেখানেই। পরে শ্রমিক স্পেশাল ট্রেন (Shramik Special Train) চালু হতে বাড়ি ফেরার স্বপ্ন সফল হওয়ার দিকে এগিয়ে যায়।

সহযাত্রীরা জানিয়েছেন, সুরত (Surat) থেকে শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনে ওঠেন বুধিয়া। মাঝপথেই তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। ওই ট্রেনটি মালদহে পৌঁছানোর আগেই তাঁর মৃত্যু হয় বলে জানা যায়। ট্রেনটি মালদহ পৌঁছানোর পর সমস্ত যাত্রী নেমে আসার পর তাঁর মৃতদেহ উদ্ধার করে রেল পুলিশ। মৃতদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায় পুলিশ।

সূত্রের খবর, টিবি রোগে আক্রান্ত ছিলেন বুধিয়া। এর আগেই একাধিক বার অসুস্থ হয়ে পড়েছেন এই রোগের কারণে। কিন্তু শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনে কোনো চিকিৎসা না পেয়ে তাঁর মৃত্যু হয়। ওই ট্রেনে ছিলেন তাঁর দু’একজন পড়শি। জানা যায়, এ দিন ভোরে রামপুরহাটের কাছাকাছি তাঁর মৃত্যু হয়।

রবিবার মালদহে ফেরার কথা ছিল তাঁর। ফিরলেনও। তবে প্রাণহীন দেহে!

Continue Reading

দেশ

বেঙ্গালুরুতে আটক পশ্চিমবঙ্গের শ’ পাঁচেক শ্রমিক, ফেরাতে আর্জি মুখ্যমন্ত্রীকে

খবর অনলাইন ডেস্ক: নাম মনিরুল মণ্ডল, বয়স ২০। মালদার বামনগোলার বাড়ি থেকে মাস চারেক আগে বেঙ্গালুরু এসেছেন নির্মাণশিল্পী হিসাবে। করোনাভাইরাস (coronavirus) সংক্রমণের জেরে প্রায় দেড় মাস ধরে চলছে লকডাউন। এখন তিনি কর্মহীন। খুবই আতান্তরে পড়েছেন। যে ভাবেই হোক, বাড়ি ফিরতে চান।

মনিরুল অসংখ্য পরিযায়ী শ্রমিকের (Migrant workers) একজন। এ রকম দেড়-দু’ হাজার পরিযায়ী শ্রমিক আটকা পড়েছেন বেঙ্গালুরুর (Bengaluru) অদূরে হোয়াইটফিল্ডে (Whitefield)। আটকে থাকা পরিযায়ী শ্রমিকদের শ’ পাঁচেক পশ্চিমবাংলার। বাদ বাকি ওড়িশা, অসম প্রভৃতি রাজ্যের। এঁদের জমানো টাকাও প্রায় শেষ হওয়ার মুখে। তাই এঁরা নিজের রাজ্যে ফিরে আসতে চান। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Bandyopadhyay) কাছে পশ্চিমবঙ্গ (West Bengal) থেকে যাওয়া পরিযায়ী শ্রমিকদের কাতর আর্জি, যে করেই হোক, তাঁদের নিজের জায়গায় যেন ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়।

আরও পড়ুন: হায়দরাবাদে আটকে বাংলার শ্রমিক, ঘরছাড়ার কথা জানিয়ে দিয়েছেন ঠিকাদার

মনিরুল বলছিলেন, এই পরিযায়ী শ্রমিকেরা নির্মাণশিল্প ছাড়াও আরও অন্যান্য শিল্পের সঙ্গে যুক্ত। এঁরা হোয়াইটফিল্ডের একটি গ্রামে কলোনি করে বাস করেন। এখানে শ’ পাঁচেক ঘর আছে। প্রত্যেক ঘরে তিন-চার জন করে থাকেন।

মনিরুল জানান, লকডাউনের পর প্রথম দু’ সপ্তাহ তাঁদের কোম্পানি রোজ দু’ বেলা করে খাইয়েছে। তার পর থেকে নিজেদেরই পয়সা খরচ করে খেতে হচ্ছে। রোজগার নেই, এ দিকে সামান্য যেটুকু জমানো পয়সা আছে তা একটু একটু শেষ হয়ে যাচ্ছে। অবস্থা এমন পর্যায়ে পৌছেছে যে অনেকেই কান্নাকাটি শুরু করেছেন।   

ইতিমধ্যে কয়েক দিন আগে আশেপাশের গ্রাম থেকে গ্রামবাসীরা এসে তাঁদের ওপর চড়াও হন। তাঁদের অভিযোগ, মনিরুলরা সোশ্যাল ডিসট্যান্সিং মানছেন না। একই অভিযোগে পুলিশও এসেছিল। তাঁরা তাঁদের কলোনি থেকে বেরোবেন না, মনিরুলরা এই আশ্বাস দেওয়ার পর এই ব্যাপারটা মিটেছে।

মনিরুলের কথায়, “পশ্চিমবঙ্গ থেকে যাওয়া পরিযায়ী শ্রমিকদের বেশির ভাগই মালদা-মুর্শিদাবাদ থেকে যাওয়া। বামনগোলার বাড়ি্তে বাবা-মা ভাইবোনেরা রয়েছেন। মা তো রোজ কান্নাকাটি করছেন, বলছেন ফিরে আসতে। কিন্তু ফিরব কী করে? দিদি (মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়) তো সকলের কথা ভাবেন, বিশেষ করে গরিব মানুষের কথা। আমাদের কষ্টের কথা ভেবে যদি এখান থেকে ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করেন, তা হলে কৃতজ্ঞ থাকব।”

যোগাযোগের নম্বর

তবে বাইরে আটকে থাকা পশ্চিমবঙ্গবাসীদের রাজ্যে ফিরিয়ে আনার জন্য ব্যবস্থা করেছে রাজ্য সরকার। লকডাউনের কারণে অন্য রাজ্যে যাঁরা আটকে পড়েছেন, তাঁদের নোডাল অফিসার পি বি সেলিমের সঙ্গে যোগাযোগ করতে অনুরোধ করা হচ্ছে। তাঁর সঙ্গে যোগাযোগের টোল ফ্রি নম্বর ১০৭০, ল্যান্ডলাইন নম্বর ০৩৩-২৩৫৬১০৭৫, হোয়াটস অ্যাপ নম্বর +৯১ ৯৮৩০১ ৫৪১০১, ইমেল [email protected]।    

কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রীর আর্জি

এ দিকে পরিযায়ী শ্রমিকদের রাজ্যে থেকে যাওয়ার জন্য আবেদন করেছেন স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রী বিএস ইয়েদিউরাপ্পা।

কর্নাটকের (Karnataka) মুখ্যমন্ত্রীর অফিসের তরফে মুখ্যমন্ত্রীর একটি ভিডিওবার্তা প্রকাশ করা হয়েছে। সেখানে তিনি শ্রমিকদের উদ্দেশে বলেন, “অন্য দেশের তুলনায় ভারতে কোভিড ১৯ পরিস্থিতি অনেকটাই ভালো। এর কারণ সাধারণ মানুষের সহযোগিতা। আমরা দ্রুত রাজ্যে অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড আবার শুরু করতে চাইছি। তাই পরিযায়ী শ্রমিকদের কাছে আমাদের আবেদন, দয়া করে রাজ্যে থেকে যান আর সরকারের পরবর্তী নির্দেশের দিকে নজর রাখুন।”

Continue Reading
Advertisement
Harsh Vardhan
দেশ11 mins ago

করোনা আক্রান্তের সংখ্যায় আমরা উদ্বিগ্ন নই: কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী

শিল্প-বাণিজ্য47 mins ago

এইচডিএফসির অংশীদারিত্ব বিক্রি করছে চিনের কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক

শিক্ষা ও কেরিয়ার1 hour ago

প্রকাশিত হল আইসিএসই এবং আইএসসি ফলাফল, মিলল না মেধা তালিকা!

দেশ2 hours ago

বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা বাতিল করুক ইউজিসি, দাবি রাহুল গান্ধীর

দেশ3 hours ago

কোভিড-১৯ রোগীর নাম কেন প্রকাশ করা হবে? সরকারের কাছে জবাব চাইল হাইকোর্ট

দেশ4 hours ago

পশ্চিম চম্পারণে বাহিনীর সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে হত ৪ মাওবাদী

দেশ6 hours ago

বৃহস্পতিবার সুপ্রিম কোর্টে আবেদন, পরের দিনই এনকাউন্টার!

atm
প্রযুক্তি6 hours ago

এটিএম ব্যবহারের সময় কার্ড ক্লোনিং ডিভাইসগুলি থেকে সতর্ক থাকুন

দেশ8 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ২৬৫০৬, সুস্থ ১৯১৩৪

কলকাতা2 days ago

কলকাতায় লকডাউনের আওতায় পড়া এলাকাগুলির পূর্ণাঙ্গ তালিকা প্রকাশিত

দেশ3 days ago

দ্রুত গতিতে বাড়ছে সুস্থতা, ভারতে এক সপ্তাহেই করোনামুক্ত লক্ষাধিক

ক্রিকেট2 days ago

১১৬ দিন পর শুরু আন্তর্জাতিক ক্রিকেট, হাঁটু গেড়ে বসে জর্জ ফ্লয়েডকে স্মরণ ক্রিকেটারদের

কেনাকাটা3 days ago

বাচ্চার জন্য মাস্ক খুঁজছেন? এগুলোর মধ্যে একটা আপনার পছন্দ হবেই

রাজ্য3 days ago

বৃহস্পতিবার বিকেল পাঁচটা থেকে রাজ্যের কনটেনমেন্ট জোনগুলিতে কড়া লকডাউন

দেশ1 day ago

সক্রিয় করোনা রোগীর ৯০ শতাংশই আটটি রাজ্যে!

রাজ্য1 day ago

ঘুমের মধ্যেই চলে গেলেন মহীনের অন্যতম ‘ঘোড়া’ রঞ্জন ঘোষাল

কেনাকাটা

কেনাকাটা19 hours ago

ঘরের একঘেয়েমি আর ভালো লাগছে না? ঘরে বসেই ঘরের দেওয়ালকে বানান অন্য রকম

খবরঅনলাইন ডেস্ক : একে লকডাউন তার ওপর ঘরে থাকার একঘেয়েমি। মনটাকে বিষাদে ভরিয়ে দিচ্ছে। ঘরের রদবদল করুন। জিনিসপত্র এ-দিক থেকে...

কেনাকাটা3 days ago

বাচ্চার জন্য মাস্ক খুঁজছেন? এগুলোর মধ্যে একটা আপনার পছন্দ হবেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক : নিউ নর্মালে মাস্ক পরাটাই দস্তুর। তা সে ছোটো হোক বা বড়ো। বিরক্ত লাগলেও বড়োরা নিজেরাই নিজেদেরকে বোঝায়।...

কেনাকাটা4 days ago

রান্নাঘরের টুকিটাকি প্রয়োজনে এই ১০টি সামগ্রী খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক : লকডাউনের মধ্যে আনলক হলেও খুব দরকার ছাড়া বাইরে না বেরোনোই ভালো। আর বাইরে বেরোলেও নিউ নর্মালের সব...

কেনাকাটা5 days ago

হ্যান্ড স্যানিটাইজারে ৩১ শতাংশ পর্যন্ত ছাড় দিচ্ছে অ্যামাজন

অনলাইনে খুচরো বিক্রেতা অ্যামাজন ক্রেতার চাহিদার কথা মাথায় রেখে ঢেলে সাজিয়েছে হ্যান্ড স্যানিটাইজারের সম্ভার।

নজরে