মালদহে প্লাস্টিকের কারখানায় বিস্ফোরণে মৃত ৫, মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে ঘটনাস্থলে ফিরহাদ হাকিম, আর্থিক সাহায্য

0

খবর অনলাইন ডেস্ক: বৃহস্পতিবার সকাল ১১টা নাগাদ মালদহের সুজাপুরে একটি প্লাস্টিক কারখানার ভয়াবহ বিস্ফোরণে মৃত কমপক্ষে পাঁচ, আহত অনেকে। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ ঘটনাস্থলে পৌঁছান রাজ্যের পুর ও নগরোন্নয়নমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। মৃত এবং আহদের পরিবারকে আর্থিক সাহায্য ঘোষণা করে রাজ্য।

জানা যায়, এ দিন সকাল ১১টা নাগাদ স্থানীয় একটি প্লাস্টিক কারখানায় বিস্ফোরণটি হয়। কর্মরত শ্রমিকরা সকলেই ওই এলাকারই বাসিন্দা। মোট জনা পঞ্চাশেক শ্রমিক ওই কারখানায় কাজ করতেন। কাজ চলাকালেই একটি ক্রাশার মেশিন সশব্দে ফেটে যায়। এই বিস্ফোরণে এখনও পর্যন্ত ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। আরও পাঁচজনকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে।

Loading videos...

পুলিশ জানিয়েছে, বিস্ফোরণকাণ্ডে মৃত্য়ু হয়েছে পাঁচ জনের। আহত পাঁচ জনের মধ্যে কয়েক জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। প্রমিলা মণ্ডল (৪৫), জুলি বেওয়া (৩৫), জুলেখা বিবি (২৫), আবু শাহেদ (৪৫), মুসা শেখ (৫০) আহত হয়েছেন। এঁরা প্রত্যেকেই কারখানার কর্মী বলেই জানা গিয়েছে।

বিস্ফোরণের খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে যান মালদহের পুলিশ সুপার অলোক রাজোরিয়া, জেলাশাসক রাজর্ষি মিত্র। ঘটনাস্থল ঘিরে তাঁরা উদ্ধারকাজ শুরু করেন। ফরেনসিক দলের তত্ত্বাবধানে শুরু হয় তদন্ত। ঘটনাস্থলে যান রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী তথা স্থানীয় নেতা কৃষ্ণেন্দু নারায়ণ চৌধুরিও।

অন্যদিকে বিস্ফোরণের খবর পাওয়ার পরই নড়েচড়ে বসে নবান্ন। হেলিকপ্টারে করে ঘটনাস্থলে যান ফিরহাদ হাকিম। রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় মৃত এবং আহতদের পরিবারের উদ্দেশে রাজ্যের তরফে আর্থিক সাহায্য় ঘোষণা করেন। বলা হয়, মৃতদের পরিবারকে ২ লক্ষ এবং আহতদের ৫০ হাজার টাকা করে আর্থিক সাহায্য দেওয়া হবে।

পাশাপাশি তিন বলেন, “মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে আমরা সবাই বৈঠক করেছি। জেলাশাসক এবং পুলিশ সুপারের সঙ্গে আমরা প্রতিনিয়ত যোগাযোগ রাখছি”।

আরও পড়তে পারেন: অপরাধ রুখতে সিসিটিভি-তে মুড়ছে জয়নগর!

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.