‘রাজীব কুমারকে বাঁচাতে দিল্লি যাচ্ছেন মমতা’, বিরোধীদের দাবিকে নস্যাৎ করলেন মুখ্যমন্ত্রী

Mamata Banerjee
ফাইল ছবি

ওয়েবডেস্ক: আচমকা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দিল্লি সফর নিয়ে ছড়িয়েছে হাজারও জল্পনা। মঙ্গলবার মুখ্যমন্ত্রীর দিল্লি সফরের উদ্দেশ্য প্রশাসনিক কারণেই বলে জানিয়েছে নবান্ন। তবুও বিরোধীদের খোঁচা, রাজীব কুমারকে বাঁচাতেই দিল্লি যাচ্ছেন তিনি। তবে এ দিন কলকাতা ছাড়ার মুহূর্তে বিমানবন্দরে দাঁড়িয়ে সেই দাবিকে নস্যাৎ করলেন তিনি।

প্রায় দেড় বছর বাদে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে সাক্ষাৎ হতে চলেছে মমতার। এ দিন তিনি জানান, “আমি তো দিল্লি খুব কমই যাই। কলকাতাতেই থাকি। দিল্লিতে রাষ্ট্রপতি, সংসদ ভবন, প্রধানমন্ত্রী রয়েছেন। তাই কখনও কখনও রাজ্যের কাজে যেতে হয়। এটা রুটিন কাজ”।

একই সঙ্গে তিনি বলেন, “দিল্লি যাচ্ছি, কারণ রাজ্যের কিছু টাকা পাওনা রয়েছে। এ ছাড়া এয়ার ইন্ডিয়া, গেইল নিয়ে কিছু সমস্যা রয়েছে। সুযোগ পেলে সে সব নিয়ে বলব। রাজ্যের নাম পরিবর্তনের ব্যাপারেও প্রধানমন্ত্রীকে বলব। ফারুখ আবদুল্লাকে কেন গৃহবন্দি করে রাখা হয়েছে, সে সব নিয়েও আলোচনা করব”।

[ আরও পড়ুন: ‘শুধু রাজীব কুমার নন, বিপদে পড়তে পারেন আরও অনেকেই’, বিস্ফোরক ভারতী ঘোষ ]

গত সোমবারই জানা যায়, পর দিন প্রশাসনিক কাজে দিল্লি যাচ্ছেন মমতা। তিনি কলকাতায় ফিরবেন আগামী ২০ সেপ্টেম্বর। তবে বিরোধীরা মমতার দিল্লি সফরের নেপথ্যে রাজীব কুমারের ছায়া দেখছেন। বামফ্রন্ট এবং কংগ্রেসের তরফে কটাক্ষ করে বলা হচ্ছে, “রাজীব কুমারকে বাঁচাতে দিল্লি যাচ্ছেন মমতা”। এর আগেও গত ফেব্রুয়ারি মাসে সিবিআই রাজীবকে গ্রেফতার করতে গেলে ধর্নায় বসেন মমতা।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.