কলকাতা: রাজ্যের আদিবাসী উন্নয়নে গঠিত নতুন কমিটির শীর্ষপদে বসানো হল সিপিএম বহিষ্কৃত সাংসদ ঋতব্রত বন্দ্যোপাধ্যায়কে। শুক্রবার নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যের আদিবাসী উন্নয়ন বোর্ডের প্রতিনিধিদের নিয়ে আয়োজিত বৈঠকে এ কথা ঘোষণা করেন।

Ritabrata Banerjee

শোনা যায়, ঋতব্রতকে সিপিএম থেকে বহিষ্কারের পর থেকেই তিনি মমতার প্রশস্তি শুরু করেন। তখন থেকেই ওয়াকিবহাল মহল দাবি করেছিলেন, তিনি সম্ভবত তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিতে পারেন। সাম্প্রতিক কালে ঋতব্রত এ বিষয়ে একাধিক উদ্যোগে শামিল হন। যা দেখে তৃণমূলের একাংশ যথেষ্ট ক্ষোভ প্রকাশ করে। তাদের মতে, সিপিএম থেকে বহিষ্কৃত কোনো নেতাকে দলে নিলে তৃণমূলের ভাবমূর্তি নষ্ট হতে পারে। তবে এ বিষয়ে যাবতীয় সিদ্ধান্ত গ্রহণের দায়িত্ব এক মাত্র তৃণমূলনেত্রীর। তিনি ঋতব্রতকে ওই কমিটির শীর্ষপদে বসিয়ে দলীয় কর্মী-সমর্থকদের প্রতি নিজের সিদ্ধান্ত স্পষ্ট করে দিলেন।

জানা গিয়েছে, নবগঠিত ওই কমিটিতে থাকছেন প্রতি জেলা থেকে দুই জন করে প্রতিনিধি। আদিবাসীদের উন্নয়ন সম্পর্কে যাবতীয় তথ্য সংগ্রহ করে ওই কমিটি সেই বার্তা পৌঁছে দেবে মুখ্যমন্ত্রীর কাছে। পাশাপাশি আদিবাসীদের অসুবিধার দিকগুলিও কমিটি খুঁজে বের করবে। এবং তা সমাধানের জন্য মুখ্যমন্ত্রীর দৃষ্টিগোচরে নিয়ে আসবে।

আরও পড়ুন: পৃথক ভাবে প্রত্যেক প্রদেশ কংগ্রেস নেতার বক্তব্য শুনলেন রাহুল গান্ধী

তবে সব মিলিয়ে ঋতব্রতর তৃণমূলে প্রবেশ নিয়ে তৈরি হওয়া গুঞ্জনে যে দাঁড়ি পড়ল, তা বলাই বাহুল্য।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন