পূর্ব বর্ধমানের সভায় মুখ্যমন্ত্রী। ছবি: টুইটার

কালনা: ধান সংরক্ষণ ও বহনের জন্য দু’টি প্রকল্প চালু হল পশ্চিমবঙ্গে। শুক্রবার কালনার সভায় পলি গোলা ও পলি চাতাল নামে এই জোড়া প্রকল্পের আনুষ্ঠানিক সূচনা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

পূর্ব বর্ধমান, হুগলি, উত্তর দিনাজপুর, পূর্ব মেদিনীপুর ও জলপাইগুড়ির দশ জনের হাতে এই দুই প্রকল্পের কাগজ তুলে দেন মুখ্যমন্ত্রী। প্রাথমিক ভাবে এই ৫ জেলায় পাইলট প্রজেক্ট গড়ে ২৬ হাজার প্রান্তিক কৃষককে এই প্রকল্পের আওতায় আনা হবে।

আরও পড়ুন বেলুন দিয়ে বিপদসীমা নির্ধারণ, দিঘা-মন্দারমণিতে বিশেষ উদ্যোগ প্রশাসনের

রাজ্যের কৃষি বিপণন দফতরের মাধ্যমে এই প্রকল্পটি রূপায়িত হচ্ছে। গোলাগুলিতে ৫০০ কেজি পর্যন্ত ধান রাখা যাবে। চাতালটি ৪৮ বর্গমিটারের। ঠিক হয়েছে, এই পাঁচ জেলায় সাফল্য মিললে বাকি জেলাগুলিতেও এই প্রকল্প চালু করা হবে।

ধানের গোলা পূর্ব বর্ধমানে এ বছর আমন ধানে সেচের সঙ্কট দেখা দেয়। এই বিষয়টিকে মাথায় রেখে সেচের স্থায়ী সমাধানে উদ্যোগী হয়েছে রাজ্য সরকার। শুক্রবার কালনার সভায় সেই ঘোষণাও করেন মুখ্যমন্ত্রী। এর জন্য নিম্ন দামোদর অববাহিকায় ২৭৬৮ কোটি টাকায় একটি বেসিন প্রজেক্ট তৈরি হবে। এই প্রকল্পের কাজ শেষ হয়ে গেলে সেচের সমস্যা মিটবে বলে মনে করা হচ্ছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here