‘জয় হিন্দ’: হাড়গোড় গুঁড়ো হয়ে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দিলীপের

0
Dilip Ghosh and Mamata
প্রতীকী ছবি

ওয়েবডেস্ক: গত বৃহস্পতিবার ভাটপাড়া এবং নৈহাটিতে গাড়ির সামনে জয় শ্রীরাম ধ্বনি শুনে মেজাজ হারিয়েছিলেন
মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি এর যথোপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়ার কথাও জানান। একই সঙ্গে জয় হিন্দ বাহিনী গঠনের কথাও বলেন মমতা। শুক্রবার দিল্লি থেকে বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ এ প্রসঙ্গে প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে কড়া হুঁশিয়ার দিলেন।

যাঁরা তাঁর গাড়ির সামনে স্লোগান তুলেছিলেন, তাঁদের দেখে নেওয়ার হুমকি দিয়েছিলেন মমতা। তিনি বলেন, “বুকের পাটা থাকে তো সামনে আয়, চামড়া গুটিয়ে দেব”। একই সঙ্গে পুলিশকে বলেছিলেন যাবতীয় ব্যবস্থা নিতে। শুক্রবার সকালে জানা যায়, এলাকা থেকে ১০ জনকে আটক করা হয়েছে। পরে অবশ্য পুলিশ জানায়, অন্য মামলায় অভিযুক্ত ওই ১০ জনকে ব্যক্তিগত বন্ডে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

এ দিন দিলীপবাবু বলেন, লোকসভার শেষ দফা ভোটের আগেই মুখ্যমন্ত্রীর ব্যবহারে বোঝা গিয়েছিল তিনি হারতে চলেছেন। যে কারণে ফল ঘোষণার পর থেকে তিনি ফ্রাস্টেশনে ভুগছেন। তিনি গণতন্ত্রে বিশ্বাসী নন। মানুষ জয় শ্রীরাম বললে তিনি উত্তেজিত হয়ে যাচ্ছেন। গাড়ি থেকে নেমে ধমক দিচ্ছেন। গ্রেফতারের দাবি জানাচ্ছেন।

একই সঙ্গে মমতার জয় হিন্দ বাহিনী গঠন প্রসঙ্গেও মুখ খুলেছেন দিলীপ। তিনি হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন, “এ সব করতে যাবেন না। তাহলে হাড়গোড় গুঁড়ো হয়ে যাবে”।

প্রসঙ্গত, উত্তর ২৪ পরগনার নৈহাটিতে ঘরছাড়াদের ঘরে ফেরাতে আয়োজিত একটি প্রতিবাদ মঞ্চে দাঁড়িয়ে মমতা বলেন, ‘বঙ্গ জননী বাহিনী’ ও ‘জয় হিন্দ বাহিনী’ গড়ে তোলা হবে।তৃণমূলের কর্মীরা কাজ করবেন এই বাহিনীতে। রাজ্যের প্রতিটি ব্লকে থাকবে এই বাহিনী। থাকবে আলাদা ইউনিফর্ম।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here