নিজস্ব প্রতিনিধি, বর্ধমান: দু’-এক জোড়া নয়। একই সঙ্গে ১৬ জোড়া যুগলের বিয়ে একই রাতে। মুখের কথা নয়।
গোটা বর্ধমানকে সাক্ষী রেখে বিশাল ধুমধাম করে  ৩২ জন পাত্রপাত্রী নিজেদের বৈবাহিক জীবন শুরু করল একই ছাঁদনাতলা থেকে। উদ্যোক্তা কঙ্কালেশ্বরী কালীমন্দির গণবিবাহ কমিটি। গণবিবাহ বলে আয়োজনের কোনো ত্রুটি বা খামতি রাখেননি আয়োজকরা। যৌতুক হিসাবে পাত্রকে দেওয়া হয় সাইকেল, খাট বিছানা, আলমারি ও সোনার আংটি। সঙ্গে দেওয়া হয় এক মাসের চাল, ডাল, লবণ-সহ মশলা। গণবিবাহের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিধায়ক রবিরঞ্জন চট্টোপাধ্যায়, পৌরপিতা খোকন দাস-সহ জেলা প্রশাসনের আধিকারিকরা।
সকল পাত্রপাত্রী বর্ধমানের বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দা। কনেদের তালিকায় রয়েছেন বিভিন্ন সম্প্রদায়ের মেয়েরা। পরিবার আর্থিক ভাবে শক্তিশালী নয়, তাই তাদের সাহায্য করার জন্য এই উদ্যোগ। উদ্যোক্তারা ভেবেছেন ওদের ভবিষ্যতের কথাও। মেয়েদের দেওয়া হয়েছে সেলাই মেশিন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here