ঝকঝকে আবহাওয়াকে সাক্ষী রেখে কলকাতা-সহ রাজ্যের অধিকাংশ অঞ্চল থেকে বিদায় নিল বর্ষা

0

কলকাতা: ষষ্ঠীর পর সপ্তমীতেও ঝকঝকে আবহাওয়া কলকাতা-সহ গোটা পশ্চিমবঙ্গে। আর এই আবহাওয়াকে সাক্ষী রেখেই পশ্চিমবঙ্গের অধিকাংশ অঞ্চল থেকে বিদায় নিয়েছে বর্ষা। মঙ্গলবার দুপুরের বুলেটিনে এমনই জানিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। যদিও বৃষ্টির পালা রাজ্যে এখনই শেষ হচ্ছে না।

সোমবার রাজ্যের পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলি থেকে বিদায় নিয়েছিল দক্ষিণপশ্চিম মৌসুমি বায়ু। ২৪ ঘণ্টা পর রাজ্যের অধিকাংশ অঞ্চল থেকেই বর্ষা বিদায় নিয়ে নিল। বর্তমানে দক্ষিণ ও উত্তর ২৪ পরগণার কিছু অঞ্চল এবং পূর্ব মেদিনীপুরের কিছু অঞ্চলে এখনও বর্ষা রয়ে গিয়েছে।

উল্লেখ্য, গত কয়েকদিন ধরেই রাজ্যের আবহাওয়ায় উল্লেখযোগ্য একটি পরিবর্তন লক্ষ্য করা যাচ্ছিল। তা হল হাওয়ার গতিপথ বদল। দখিণা হাওয়াকে সরিয়ে দিয়ে ধীরে ধীরে ঢুকে পড়ছিল উত্তুরে হাওয়া। গত সপ্তাহ ধরে কলকাতা ও পার্শ্ববর্তী অঞ্চলের বিক্ষিপ্ত কিছু জায়গায় ঝড়বৃষ্টি হলেও রাজ্যের বেশিরভাগ জায়গাই পুরোপুরি শুকনো ছিল।

তবে রবিবারের পর কলকাতাতেও আবহাওয়া শুকিয়ে গিয়েছে। সোম এবং মঙ্গলবার কলকাতায় কার্যত মেঘমুক্ত আকাশ ছিল। বয়েছে উত্তুরে হাওয়াও।

উল্লেখ্য, এ বছর উত্তর ভারত থেকে বর্ষার বিদায় শুরু হয়েছিল স্বাভাবিক নির্ঘণ্টের ২০ দিন পর, ৬ অক্টোবর। কিন্তু পশ্চিমবঙ্গ থেকে বিদায় নিল স্বাভাবিক নিয়ম মেনেই। অর্থাৎ, এই মুহূর্তে দেশ থেকে বর্ষার বিদায় অত্যন্ত দ্রুতগতিতে হচ্ছে।

তবে বৃষ্টির পালা এখনই থামবে না রাজ্যে। বরং অষ্টমী থেকে ফের বিক্ষিপ্ত রূপ নিয়ে ফিরতে পারে বৃষ্টি। বঙ্গোপসাগরে তৈরি হচ্ছে একটি নিম্নচাপ, যার অভিমুখ ওড়িশা-অন্ধ্রপ্রদেশের দিকে। তার পরোক্ষ প্রভাবেই দক্ষিণবঙ্গে বাড়বে বৃষ্টি।

আরও পড়তে পারেন

কলকাতায় ১৮০, তবুও পশ্চিমবঙ্গের দৈনিক সংক্রমণে উদ্বেগের কোনো বৃদ্ধি নেই

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন