এসএসকেএমে মুখ্যমন্ত্রী, মুকুল রায় তুললেন নতুন দাবি

0
Mamata Banerjee and Mukul Roy
মুকুল রায় এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রতিনিধিত্বমূলক ছবি

ওয়েবডেস্ক: এনআরএস-কাণ্ডের জেরে রাজ্য জুড়ে চিকিৎসা পরিষেবা বিপর্যস্ত হয়ে যাওয়ার তিন দিনের মাথায় এসএসকেএম হাসপাতালে বৃহস্পতিবার গিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি হাসপাতালে দাঁড়িয়েই জুনিয়র ডাক্তারদের চরম হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন, চার ঘণ্টার মধ্যে কাজে যোগ না-দিলে পুলিশ কঠোর ব্যবস্থা নেবে। সরকারি সহযোগিতা বন্ধ করে দেওয়া হবে। হস্টেলেও থাকতে দেওয়া হবে না। মুখ্যমন্ত্রীর এমন মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতেই স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসাবে তাঁর পদত্যাগ দাবি করলেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়।

মুখ্যমন্ত্রী এসএসকেএমে জুনিয়র চিকিৎসকদের হুঁশিয়ারি দেওয়ার ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই মুকুল বলেন, “আহত চিকিৎসকদের প্রতি কোনো সহানুভূতি নেই। এ ধরনের মন্তব্য স্বৈরাচারী মনোভাবের প্রকাশ”।

রোগীর পরিজনদের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে মমতা বলেন, “এনআরএসে ওরা ডাক্তার নয়, ওরা আউটসাইডার।কী ভেবেছে কী ওরা? ডাক্তারদের কাজ পরিষেবা দেওয়া। অনেকে নাটক করছে। যারা নাটক করছে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। কাদের বুদ্ধিতে এ সব কাজ করছে? ডাক্তারিতে হিন্দু-মুসলমান হয় না। একই সঙ্গে তিনি আগামী চার ঘণ্টার মধ্যে কাজে যোগ না-দিলে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার কথাও জানান”।

এ প্রসঙ্গে মুকুল বলেন, “স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসাবে ব্যর্থ তিনি। এ মুহূর্তে তাঁর পদত্যাগ করা উচিত”। মুকুলের অভিযোগ, “হিটলারকেও হার মানিয়েছেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী। জুনিয়র চিকিৎসকদের হস্টেল ছাড়ার যে কথা তিনি বলছেন, তা অনৈতিক”।

প্রসঙ্গত, এ দিন মমতার হুঁশিয়ারির পরেও কর্মবিরতি প্রত্যাহারে অরাজি জুনিয়র ডাক্তাররা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here