বিজেপি ও তৃণমূলের সংঘর্ষেই ফলাফলের ইঙ্গিত পাচ্ছেন মুকুল রায়!

0
1656
fire

ওয়েবডেস্ক:  রাজ্য নির্বাচন কমিশনের ঘোষণা অনুযায়ী আগামী সোমবারই পঞ্চায়েত নির্বাচনে মনোনয়ন জমা করার শেষ দিন। কিন্তু গত কয়েক দিন ধরে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে শাসক ও বিরোধী দলের মধ্যে চরম সংঘর্ষ ঘটে চলেছে তা নিয়ে উদ্বিগ্ন তৃণমূল। আর এই বিষয়টিকেই নিজেদের সাফল্যের প্রথম ধাপ হিসাবে মনে করছে রাজ্য বিজেপি।

“গত এক সপ্তাহ ধরেই নির্বাচনের মনোনয়ন জমা করা নিয়ে দু’তরফের সংঘাত ইঙ্গিত দিচ্ছে রাজ্যের সর্বত্র বিজেপির উপস্থিতি। বিজেপি যে কোনো ভাবেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এক ইঞ্চি জমি ছাড়বে না, সেটাও প্রমাণ হয়ে গিয়েছে। ফলে এখান থেকেই পরিষ্কার হয়ে যাচ্ছে ফলাফলের দিকটিও”। মন্তব্য করেছেন প্রাক্তন তৃণমূল সাংসদ এবং বর্তমানে বিজেপির পঞ্চায়েত নির্বাচন কমিটির আহ্বায়ক মুকুল রায়।

আরও পড়ুন: পঞ্চায়েত ভোটে কেন্দ্রীয় বাহিনী চায় না সিপিএম, কেন?

এখনও পর্যন্ত রাজ্যের ২০টি জেলায় যে সংখ্যক মনোনয়ন জমা পড়েছে তাতে দেখা গিয়েছে শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেসের থেকে খুব একটা পিছিয়ে নেই বিজেপি। যেখানে সিপিএম-সহ অন্যান্য বামপন্থী দল এবং জাতীয় কংগ্রেস প্রার্থী দিতে অপারগ, সেখানেও চরম সংঘাতের মধ্যে দিয়ে প্রার্থী মনোননয় পেশ করেছে বিজেপি। দলের এক নেতা বলেন, ‘রাজ্য সরকারের কেন্দ্রীয় বাহিনীতে অনীহা প্রমাণ করছে তাদের মনে আশঙ্কা দানা বেঁধেছে। গত পাঁচ বছরে গ্রামোন্নয়নের কাজ যদি সঠিক ভাবে হয়েছে বলে দাবি করছেন তৃণমূল নেতারা। তা হলে কেন্দ্রীয় বাহিনী নিয়ে এত আশঙ্কা কেন?’

আরও পড়ুন: পঞ্চায়েত মনোনয়ন: হামলা-পালটা হামলায় রণক্ষেত্র জলপাইগুড়ির মালবাজার

তবে তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদক পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, “ওদের পায়ের তলায় মাটি নেই। তাই হিংসা ছড়াচ্ছে। কিন্তু বাংলার মানুষ তৃণমূলের সঙ্গেই আছেন।”

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here