সাজা ঘোষণার পরে এক অভিযুক্ত।

কলকাতা: পুলিশ কনস্টেবল অসীম দাম হত্যাকাণ্ডে সাত জনের বিরুদ্ধে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের নির্দেশ দিল ব্যারাকপুর আদালত। বুধবার অভিযুক্তদের দোষী সাব্যস্ত করে আদালত।

বৃহস্পতিবার সকালে ব্যারাকপুর আদালতের বিচারক তাপসকুমার মিত্র দোষী সাব্যস্ত সাত জনের বক্তব্য শোনেন৷ কিন্তু, অভিযুক্তদের তরফে তেমন কোনও উত্তর না পাওয়ায় তাদের সশ্রম যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের নির্দেশ দেয় আদালত৷

উল্লেখ্য, ২০১২ সালের ৮ মার্চ দোলের দিন, ভাগ্নির শ্লীলতাহানি রুখতে গিয়ে উত্তর ২৪ পরগনার বিশরপাড়ায় আক্রান্ত হয়েছিলেন কলকাতা পুলিশের কনস্টেবল অসীম দাম৷ অসীমবাবুকে হকি স্টিক দিয়ে পিটিয়ে, ধারালো অস্ত্রে কুপিয়ে বাড়ির সামনে আধমরা অবস্থায় ফেলে যাওয়া হয়। এর তিন দিন পরে মৃত্যু হয় অসীমবাবুর।

আরও পড়ুন শাহিদ আফ্রিদিকে সমর্থন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের

খুনের ঘটনার তদন্তে নেমে এয়ারপোর্ট থানার পুলিশ স্থানীয় বেশ কয়েকজন দুষ্কৃতীকে গ্রেফতার করে৷ আদালত সূত্রে খবর, খুন, খুনের চেষ্টা, শ্লীলতাহানি-সহ ভারতীয় দণ্ডবিধি ১৪৮, ৩০২, ৩০৭, ৩২৪, ৪২৭, ৩৪ নম্বর ধারায় মামলা রুজু করে পুলিশ৷ দীর্ঘ ছ’বছর মামলা চলার পরে অবশেষে সাজা ঘোষণা করল আদালত।

তবে এই সাজায় খুশি নয় অসীমবাবুর পরিবার। যাঁকে বাচাতে গিয়ে খুন হলেন অসীমবাবু, সেই ভাগ্নির কথায়, “আমরা দোষীদের ফাঁসি চেয়েছিলাম। যাবজ্জীবনে খুশি নই।”

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here