লুঙ্গি, ফেজটুপি পরে ট্রেনে পাথর ছুড়তে গিয়ে ধৃত ৬

0
প্রতীকী ছবি: ওড়িশা টিভি থেকে

ওয়েবডেস্ক: লুঙ্গি ও ফেজটুপি পরে ট্রেনে পাথর ছুড়তে গিয়ে ধরা পড়ে গেল ছ’জন। স্থানীয়রা অভিযোগ করেছেন, এক বিজেপি কর্মী তার পাঁচ সঙ্গীকে নিয়ে এই ঘটনা ঘটিয়েছে। তবে বিজেপির তরফে দাবি করা হয়েছে, ধৃতদের সঙ্গে দলের কোনো যোগ নেই।

মুর্শিদাবাদের রাধামাধবতলার বাসিন্দারা পুলিশের হাতে তুলে দেন ধৃতদের। পুলিশ জানিয়েছে, অভিযুক্তদের মাথায় ফেজটুপি এবং পরনে ছিল লুঙ্গি। এই পোশাকেই তারা শিয়ালদহ-লালগোলা লাইনে ট্রেনে পাথর ছুড়তে গিয়ে স্থানীয় বাসিন্দাদের হাতে ধরা পড়ে যায়।

জানা গিয়েছে, আটকদের মধ্যে একজনের নাম অভিষেক সরকার। বছর একুশের অভিষেক এলাকার বিজেপি কর্মী হিসাবেই পরিচিত। তাকে বিজেপির মিছিলে-মিটিংয়েও দেখা গিয়েছে বলে দাবি করা হচ্ছে। ওই ঘটনায় অভিযেক-সহ তার পাঁচ সঙ্গীকে আটক করে পুলিশ।

পুলিশের জেরায় অবশ্য ধৃতরা জানিয়েছে, তারা ইউটিউব চ্যানেলের ভিডিও তৈরির জন্যই ওই ধরনের শুটিং করছিল। কিন্তু বৃহস্পতিবার পুলিশ সূত্রে খবর, ধৃতরা যে ইউটিউব চ্যানেলের নাম জানিয়েছে, তেমন কোনো চ্যানেলের অস্তিত্বই নেই

[ আরও পড়ুন: রোজভ্যালিকাণ্ডে কলকাতার প্রাক্তন পুলিশ কমিশনারকে জিজ্ঞাসাবাদ সিবিআইয়ের ]

প্রসঙ্গত, নাগরিকত্ব (সংশোধনী) আইন নিয়ে উত্তাল গোটা দেশ। কোথাও কোথাও অশান্তির ঘটনাও ঘটে চলেছে। ট্রেনে ভাঙচুর এবং আগুন লাগানোর ঘটনা বিভিন্ন জায়গা থেকেই পাওয়া গিয়েছে।

এ প্রসঙ্গে ঝাড়খণ্ডের একটি নির্বাচনী জনসভা থেকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেছিলেন, “নাগরিকত্ব (সংশোধনী) আইনের বিরুদ্ধে উত্তর-পূর্বের বিভিন্ন রাজ্য ও পশ্চিমবঙ্গে যে হিংসাত্মক বিক্ষোভ হচ্ছে, এতে বিরোধীরা পরোক্ষে প্রশ্রয় দিচ্ছে। যারা আগুন লাগাচ্ছে, টেলিভিশনে তাদের দেখা যাচ্ছে। পোশাক দেখেই তাদের চেনা যাচ্ছে”।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন