কলকাতা: আগামী ছয় মাসের মধ্যে ১৫ বছরের পুরনো সব গাড়ি বাতিল করতে হবে। বাড়াতে হবে সিএনজি এবং বিদ্যুৎচালিত বাসের সংখ্যা। মঙ্গলবার পশ্চিমবঙ্গ সরকারকে এমনই নির্দেশ দিল জাতীয় পরিবেশ আদালতের (ন্যাশনাল গ্রিন ট্রাইব্যুনাল) পূর্বাঞ্চল বেঞ্চ।

আদালতের নির্দেশ, আগামী ছ’মাসের মধ্যে কলকাতা, হাওড়া-সহ রাজ্যের সর্বত্র বাতিল করতে হবে ১৫ বছরের পুরনো ব্যক্তিগত এবং বাণিজ্যিক সমস্ত গাড়ি। এ ছাড়া মঙ্গলবার পরিবেশ দূষণ নিয়ে আরও কয়েকটি নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

১৫ বছরের পুরনো গাড়ি বন্ধ করতে বেশ কিছু পদক্ষেপ করার কথা হলফনামায় জানিয়েছে রাজ্য। তবে পরিবেশ আদালতের পর্যবেক্ষণে উঠে এসেছে, এর আগে এই নির্দেশ কার্যকর করার জন্য কোনো নির্দিষ্ট সমসয়সীমা ছিল না। ফলে রাজ্য কিছু পদক্ষেপ করলেও, এখনও কলকাতা বা হাওড়ার রাস্তায় ১৫ বছরের পুরনো অনেক গাড়িই দেখা যায়। এখন সেই নির্দেশ কার্যকর করতে ছ’মাস সময় বেঁধে দিল পরিবেশ আদালত।

পরিবেশ দূষণ রোধে একাধিক নির্দেশ দিয়েছে গ্রিন ট্রাইব্যুনাল। আদালতের নির্দেশ, কঠিন বর্জ্য নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে নিষ্কাশন করতে হবে। আলাদা করতে হবে ব্যবহারযোগ্য এবং পুনর্ব্যবহারযোগ্য বর্জ্য। তিন মাসের মধ্যে রাজ্যের পুলিশকে পর্যাপ্ত পরিমাণে শব্দসীমা নির্ধারণ যন্ত্র ব্যবহার করতে হবে। টাস্ক ফোর্স গঠন করে রাজ্যের সব থানা অঞ্চলে নজরদারি করতে হবে।

আরও পড়তে পারেন

আগস্টে একান্ত বৈঠকে মুখোমুখি মমতা-মোদী?

নির্বাচন কমিশনে তৎপরতা, পঞ্চায়েত ভোট এগিয়ে আসছে?

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন