‘হিংসায় মদত’ মামলায় মিঠুন চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ করা যাবে না, জানাল কলকাতা হাইকোর্ট

0

কলকাতা: অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ করা যাবে না। ‘মহাগুরু’র বিরুদ্ধে হিংসায় মদত দেওয়ার অভিযোগের মামলায় বৃহস্পতিবার রায় দিয়ে জানাল কলকাতা হাইকোর্ট। সেই সঙ্গে ওই সময় মানিকতলা থানায় দায়ের হওয়া মামলাও খারিজ করার নির্দেশ দিল আদালত।

বিচারপতি কৌশিক চন্দের একক বেঞ্চ এই রায় দিয়েছে। বিচারপতি বলেন, ‘‘এখন অনেক অভিনেতাই রাজনীতি করছেন। অনেকে মনোরঞ্জনের জন্য এই জাতীয় কথা বলেই থাকেন। উনি তা স্বীকারও করেছেন। ফলে তার মধ্যে কোনো হিংসা খুঁজে পায়নি আদালত।’’

উল্লেখ্য, পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভা ভোটের আগে গত মার্চ মাসের শুরুতে ব্রিগেডের মঞ্চে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর উপস্থিতিতে বিজেপি-তে যোগ দেন মিঠুন। সে দিন ব্রিগেডে বক্তৃতা করার সময় তাঁর মুখে শোনা যায় তাঁর অভিনীত ছায়াছবির একাধিক সংলাপ। যেমন, ‘মারব এখানে, লাশ পড়বে শ্মশানে’, ‘জাত গোখরো’।

এর পর ভোট-পর্ব মিটতেই মিঠুনের এই সমস্ত সংলাপ নিয়ে আপত্তি তুলে মানিকতলা থানায় অভিযোগ দায়ের করে তৃণমূল। জোড়াফুল শিবিরের অভিযোগ, হিংসায় মদত দিতেই ব্রিগেডের মঞ্চে এই সব সংলাপ বলেছেন অভিনেতা।

ওই মামলা খারিজের দাবিতে হাইকোর্টে আবেদন করেছিলেন মিঠুন। তাঁর বক্তব্য ছিল, জনতার দাবিতেই তিনি তাঁর ছায়াছবির জনপ্রিয় সংলাপ বলেছেন। এর পিছনে অন্য কোনো উদ্দেশ্য নেই।

আরও পড়তে পারেন:

পূর্বাভাস সত্যি করে ফের বৃষ্টি নামল কলকাতায়, শুক্রবার থেকেই বদলাবে আবহাওয়া

১৫ মাস পর ইতি কৃষক আন্দোলনে, সিংঘু সীমান্তের বিক্ষোভস্থল থেকে সরছে তাঁবু

দিল্লির রোহিণী আদালতে বিস্ফোরণ, উদ্ধার আইইডি

একই নামে একাধিক সিম কার্ড রাখা নিয়ে বড়োসড়ো সিদ্ধান্ত কেন্দ্রের, সীমার বেশি হলে বিচ্ছিন্ন করা হবে সংযোগ

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন