খবর অনলাইনডেস্ক: যে আশঙ্কাটা করা হচ্ছিল, সে রকম তথ্যই সামনে আসছে। ভয়াল ঘূর্ণিঝড় উম্পুনের (Cyclone Amphan) তাণ্ডবে সুন্দরবনের ৪০ শতাংশ ম্যানগ্রোভ (Mangrove) ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। রাজ্য বন দফতরের প্রাথমিক হিসেবে এমনই তথ্য উঠে এসেছে।

চার হাজার বর্গ কিলোমিটারের সুন্দরবনে (Sunderbans) অন্তত ১৬০০ বর্গ কিলোমিটার এলাকায় উম্পুনের ব্যাপক প্রভাব পড়েছে বলে মনে করছে বন দফতর।

Loading videos...

কলকাতাকে ভয়াল ঘূর্ণিঝড়ের হাত থেকে বাঁচিয়েছে ম্যানগ্রোভ, এই ধরনের ঘটনা অতীতে অনেক বার ঘটেছে। এ বারও সে রকম হয়েছিল। নইলে যে ঝড় ১৮৫ কিলোমিটার বেগে সুন্দরবনে আছড়ে পড়ে, তার গতিবেগ কলকাতায় ১৩৩-এ এসে ঠেকত না।

কিন্তু জলবায়ু পরিবর্তনের (Climate Change) প্রভাব যে সুন্দরবনের ওপরে মারাত্মক ভাবে পড়ছে সেটা অনেক দিন আগে থেকেই আন্দাজ করা হয়েছিল। ‘ফরেস্ট সার্ভে অব ইন্ডিয়া’ জানিয়েছে ২০১৭ থেকে ২০১৯-এর মধ্যে সুন্দরবনের পশ্চিমবঙ্গের অংশে অন্তত দুই শতাংশ ম্যানগ্রোভ কমে গিয়েছে।

রাজ্যের মুখ্য বনপাল রবিকান্ত সিনহা জানিয়েছেন, “এ বারের ঘূর্ণিঝড়ের জেরে সুন্দরবনের ১,৬০০ বর্গ কিলোমিটার এলাকা ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।”

শুধু যে ম্যানগ্রোভের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা নয়, ঝড় এবং জলোচ্ছ্বাসের কারণে সুন্দরবনে নতুন নতুন খাঁড়ি তৈরি হয়ে গিয়েছে। যা দিয়ে নোনা জল ঢুকছে। সিনহা বলেন, “বিদ্যা আর হলদিবাড়ি অঞ্চলে নতুন খাঁড়ি তৈরি হয়ে গিয়েছে। এর ফলে জোয়ার-ভাটার ধরনে পরিবর্তন হতে পারে। বিভিন্ন দ্বীপে আরও বেশি করে ভাঙনও শুরু হতে পারে।

নতুন খাঁড়ি তৈরি হওয়ার ফলে সুন্দরবনের গ্রামগুলির কৃষিজমিতে নোনা জল ঢুকে পরতে পারে। রাজ্যের বন্যপ্রাণ বিষয়ক উপদেষ্টা বোর্ডের সদস্য বিশ্বজিৎ রায়চৌধুরী বলেন, “লবণ-সহিষ্ণু ধান চাষের দিকে বেশি করে নজর দিতে হতে পারে অনেক গ্রামকে।”

তবে ঘূর্ণিঝড়ের পর এখনও পর্যন্ত সুন্দরবনে বাঘ বা অন্য কোনো বন্যপ্রাণীর মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন সিনহা। তবে তাঁর বক্তব্য, লোকালয়ে বাঘের ঢুকে যাওয়া আটকাতে যে বৈদ্যুতিন তারের বেড়া রয়েছে, অনেক জায়গাতেই তা নষ্ট হয়ে গিয়েছে।

এই প্রসঙ্গে সিনহা বলেন, “প্রায় ১০৭ কিলোমিটারের মতো বেড়া নষ্ট হয়ে গিয়েছে। এখন যুদ্ধকালীন পরিস্থিতিতে আমাদের কাজে নামতে হচ্ছে। রামগঙ্গা আর বসিরহাট অঞ্চলের দিকে বেশি নজর দেওয়া হচ্ছে এখন। তার পর বাকি দিকে নজর দেওয়া হবে।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.