সিস্টার্স নিবেদিতা ফলোয়ার্স এ বার পূর্ব মেদিনীপুরের মায়াচরে দুর্গতদের পাশে

    আরও পড়ুন

    খবরঅনলাইন ডেস্ক: এক বার ত্রাণ পৌঁছে দিয়েই থেমে যায়নি অশোকনগরের সিস্টার্স নিবেদিতা ফলোয়ার্স। তারা আবার ছুটে গেল দুর্দশাগ্রস্ত মানুষের পাশে দাঁড়াতে।

    কোভিডের দ্বিতীয় ঢেউ আর ‘ইয়াস’ ঘূর্ণিঝড়জনিত জলোচ্ছ্বাসের কবলে পড়ে নাভিশ্বাস অবস্থা পশ্চিমবঙ্গের উপকূলবর্তী এলাকার, দক্ষিণ ২৪ পরগণা ও পূর্ব মেদিনীপুরের মানুষজনের। সুন্দরবনের অবস্থা তো কহতব্য নয়। বাইরের ত্রাণই কার্যত তাঁদের বাঁচিয়ে রেখেছে। নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী নিয়ে অনেকেই সংগঠনগত ভাবে বা ব্যক্তিগত ভাবে পৌঁছে যাচ্ছেন তাঁদের কাছে।

    Loading videos...

    গত সপ্তাহের বুধবার সিস্টার্স নিবেদিতা ফলোয়ার্স (Sister Nivedita Followers’, SNF) গিয়েছিল দক্ষিণ ২৪ পরগণা সন্দেশখালির আতাপুর গ্রামে গোপালের ঘাটে। সেখানে প্রায় সাড়ে চারশো পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছিল শুকনো খাবার, জল, স্যানিটাইজার, মাস্ক, মোমবাতি, দেশলাই ও স্যানিটারি ন্যাপকিন সহ বারো রকমের অত্যাবশ্যকীয় জিনিস।

    - Advertisement -

    এ বার তাঁদের গন্তব্য ছিল মায়াচর

    এসএনএফ আবার ছুটে গেল। সংগঠনের তরফে অংশুপ্রভ চট্টোপাধ্যায় জানালেন, এ বার তাঁদের গন্তব্য ছিল পূর্ব মেদিনীপুরের মায়াচর। মায়াচরে পৌঁছোনোর জন্য কাকভোরেই রওনা হতে হয়েছিল উত্তর ২৪ পরগণার অশোকনগর থেকে।

    অংশুপ্রভ জানালেন, সন্দেশখালিতে যা যা দেওয়া হয়েছিল এখানেও সে সব জিনিস তো দেওয়া হলই, তার সঙ্গে দেওয়া হয় রান্না করা খাবার। প্রায় ৯৩০ জন মানুষকে রান্না করা খাবার দেওয়া হয়। ৪০৬ জনকে দেওয়া হয়েছে শুকনো খাবার।

    এ ছাড়া এই কোভিড পরিস্থিতিতে নিজেদের এলাকায় সেবাকাজ তো চালিয়েই যাচ্ছে অশোকনগরের এসএনএফ। স্যানিটাইজেশনের ব্যবস্থা যেমন করে যাচ্ছে, তেমনই কোভিড-আক্রান্ত পরিবারের কাছে পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে রান্না করা খাবার।

    অংশুপ্রভ বললেন, চাহিদার তুলনায় তাঁদের উদ্যোগ হয়তো সামান্য তবু সাধারণ মানুষের সদিচ্ছা আর ভালোবাসায় তাঁরা এই কর্মযজ্ঞ চালিয়ে যেতে চান। তাঁদের অঙ্গীকার, তাঁদের সংগঠন এই চরম দুঃসময়ে তাঁদের সেবামূলক কাজ চালিয়ে যাবে এবং হাতে হাত রেখে এই পরিস্থিতির বিরুদ্ধে লড়াই করে দুর্ভোগ কাটিয়ে উঠবে।

    আরও পড়ুন: ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের কমিউনিটি কিচেন চালু হল জলপাইগুড়িতে

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here

    This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

    - Advertisement -

    আপডেট খবর