রাজ্যের একমাত্র পুরসভাও হাতছাড়া হল বিজেপির

0
BJP TMC
প্রতীকী ছবি

ওয়েবডেস্ক: আস্থাভোটে জিতে উত্তর ২৪ পরগনার ভাটপাড়া পুরসভার দখল নিল তৃণমূল কংগ্রেস। এরই সঙ্গে বিজেপির হাতে থাকা রাজ্যের একটি মাত্র পুরসভাও খোয়াতে হল গেরুয়া শিবিরকে।

হালিশহর, কাঁচরাপাড়া, নৈহাটি, জগদ্দল এবং গারুলিয়া পুরসভা পুনরুদ্ধারের পর জেলার ভাটপাড়া পুনর্দখল করল রাজ্যের শাসক দল। এ দিন আস্থাভোটে ৩৫ কাউন্সিলারের ভাটপাড়া পুরসভায় ১৯-০ ব্যবধানে জিতেছে তৃণমূল। অন্য দিকে বিজেপি কাউন্সিলাররা ভোট বয়কট করেন বলে জানা গিয়েছে।

বিজেপি এই ফলাফলের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে গিয়েছে। পুরপ্রধানের বিরুদ্ধে অনাস্থা বৈঠক বেআইনি বলে দাবি করে আদালতের দ্বারস্থ হয় বিজেপি। তাদের দাবি, আগামী ২০ জানুয়ারি পুরপ্রধান সৌরভ সিং বৈঠক ডাকলেও তার আগে এ দিন নিয়ম ভেঙে আস্থাভোট করেছে তৃণমূল।

গত লোকসভা ভোটের সময় থেকেই ভাটপাড়া পুরসভা খবরের শিরোনামে উঠে আসে। অর্জুন সিং বিজেপিতে যোগদান করতেই তাঁর বিরুদ্ধে অনাস্থা আনেন তৃণমূল কাউন্সিলররা। গত ৮ এপ্রিল ভাটপাড়া পুরসভায় আস্থা ভোটে ১১-২২ ফলে হেরে যান অর্জুন। এর পর সোমনাথ তালুকদারকে কার্যনির্বাহী পুরপ্রধান নিয়োগ করা হয়। কিন্তু লোকসভা ভোট মিটতেই বিজেপিতে যোগ দেন প্রায় এক ডজনের বেশি তৃণমূল কাউন্সিলার।

এর পরই গত জুন মাসে ৩৫ আসনের ভাটপাড়া পুরসভায় আস্থা ভোটে ২৬ জন পুরপ্রতিনিধি হাত তুলে বিজেপির সৌরভ সিংকে সমর্থন করেন। যার ফলে বোর্ড হাতছাড়া হয় তৃণমূলের। চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন সৌরভ সিংহ।

গত নভেম্বরে ৩৫ আসনের ভাটপাড়া পুরসভার ১২ জন কাউন্সিলার তৃণমূলে ফিরে আসায় রাজ্যের শাসক দলের কাউন্সিলার সংখ্যা হল ১৭, অন্য দিকে বিজেপির কাউন্সিলার সংখ্যা ১৬। সিপিএম কাউন্সিলারের মৃত্যু হওয়ায় এবং অর্জুন সিং কাউন্সিলার পদ থেকে পদত্যাগ করায় দু’টি আসন শূন্য রয়েছে। তবে এ দিনের আস্থাভোটে তৃণমূল ১৯ জন কাউন্সিলারের সমর্থন পেয়েছে।

------------------------------------------------
সুস্থ, নিরপেক্ষ সাংবাদিকতার স্বার্থে খবর অনলাইনের পাশে থাকুন।সাবস্ক্রাইব করুন।
সুস্থ, নিরপেক্ষ সাংবাদিকতার স্বার্থে খবর অনলাইনের পাশে থাকুন।সাবস্ক্রাইব করুন।
সুস্থ, নিরপেক্ষ সাংবাদিকতার স্বার্থে খবর অনলাইনের পাশে থাকুন।সাবস্ক্রাইব করুন।
সুস্থ, নিরপেক্ষ সাংবাদিকতার স্বার্থে খবর অনলাইনের পাশে থাকুন।সাবস্ক্রাইব করুন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.