কলকাতা: রাজ্যের কলেজগুলোতে স্নাতকোত্তর কোর্স চালু করার কথা আগেই ঘোষণা করেছিল বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি)। এ বার কলেজগুলোতে পিএইচডি পাঠক্রমও চালু করার নির্দেশিকা জারি করেছে ইউজিসি।

ইউজিসির এই নির্দেশিকা মেনে ইতিমধ্যেই পদক্ষেপ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। তবে সে ক্ষেত্রে প্রধান বাধা হতে পারে কলেজের পরিকাঠামো। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য আশুতোষ ঘোষ বলেন, প্রাথমিক ভাবে বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনস্থ দেড়শোটি কলেজে পিএইচডির পাঠক্রম চালু করার চিন্তাভাবনা চলছে। ইতিমধ্যে অনেক কলেজও এই পাঠক্রম চালু করার ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। আশুতোষবাবু বলেন, “বেশ কিছু কলেজে পিএইচডি পাঠক্রম চালু করার ভাবনাচিন্তা চলছে, তবে সব কিছুই সিন্ডিকেটের বৈঠকে আলোচনা হবে।”

তবে পিএইচডি পাঠক্রমের ক্ষেত্রে পরিকাঠামোগত সমস্যা তৈরি হতে পারে, সে ব্যাপারে দ্বিধাগ্রস্ত শিক্ষা মহল। শিক্ষাবিদদের মতে শুধুমাত্র বিজ্ঞানের জন্যই উন্নতমানের গবেষণাগার থাকা প্রয়োজন। কলেজগুলোতে এই গবেষণাগার রয়েছে কি না, তা খতিয়ে দেখেই পিএইচডি কোর্স চালু করার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া উচিত কর্তৃপক্ষের, এমনই মত শিক্ষাবিদদের।

কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশাপাশি বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয়ও তাদের অধীনস্থ কলেজগুলোতে এই পাঠক্রম চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কলেজগুলোতে এই পাঠক্রমের জন্য প্রয়োজনীয় পরিকাঠামো রয়েছে কি না, তা দেখার জন্য কমিটিও গঠন করেছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন