Connect with us

পূর্ব মেদিনীপুর

Deadline Nandigram: শুভেন্দুর ‘বহিরাগত’ ফ্লপ, এ বার কম্যুনাল তাস, ধুতি-লুঙ্গির কিসসায় নামলেন ভূমিপুত্র

Published

on

দেবারুণ রায়, নন্দীগ্রাম

নন্দীগ্রাম আছে নন্দীগ্রামেই। মানে শুধু ভোটে। আর সবেতেই একশো আশি ডিগ্রি ঘুরে সোজাসুজি দাঁড়িয়েছে তোমার খোলা হাওয়া লাগিয়ে পালে। নন্দীগ্রামের গুলি খাওয়া মানুষের রক্তের রসায়ন মা-মাটি-মানুষ ব্র্যান্ডের জন্মদাতা। সেই ব্র্যান্ড মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত থেকে কেড়ে নিতে চেয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী। কিন্তু ব্র্যান্ডের পাসওয়ার্ড শুভেন্দুর জানা নেই। কারণ ওই পাসওয়ার্ড ঠিক সময়ে বদলে ফেলেছেন নেত্রী। সেটা যখন মালুম হল যখন, তখনই ‘ভূমিপুত্র’ এবং ‘দিদি আমার ভবিষ্যত নষ্ট করতে চান’-এর মতো বিপন্নতা বাজারে এল। এবং নন্দীগ্রাম ভবি ভোলবার নয়। বোঝার পর বড়ো বোঝা শিশিরবাবুর মেজো ছেলের মাথায় চাপিয়ে দিল বিজেপি। একেবারে কড়া আরক। সাতচল্লিশের শিশিতে ভরা সেই আরক বিজেপির ভোট সঞ্জীবনী। ধর্মীয় বা সাম্প্রদায়িক বিভাজন, যা গঙ্গাজলের মতো ছিটিয়ে দিলে মরা পিচেও বল ঘুরবে। সুতরাং কানাঘুষো সাম্প্রদায়িক বিভাজনের রাজনীতিই নন্দীগ্রামের ফন্দিফিকির। শাসন এ বিষয়ে সম্যক অবহিত। এবং প্রশাসন তো আদর্শ  আচরণবিধির কল্যাণে নির্বাচন কমিশনের নিয়ন্ত্রণে। তবু মানুষের ভয় যায় না। ভয় গেলে তবে তো ভরসা হবে। এ বার শোনা যাক কী সেই বিভাজন বটিকা।

Loading videos...

মনে হচ্ছে যেন ভীষ্ম সাহনির ‘তমস’-এর পাতা ওল্টাচ্ছি। নন্দীগ্রাম ২ দক্ষিণ মণ্ডলের বিজেপি যুবমোর্চার সভাপতি শিবপ্রসাদ গিরি আরএসএস-এর সংস্কার নিয়ে যুবমোর্চায় এসেছেন। শৈশব থেকে সংঘের ‘শাখা’ প্রশাখায় লালিত। নন্দীগ্রাম নতুন বাজার পেরিয়ে বটতলায় শুভেন্দুর কেন্দ্রীয় নির্বাচনী কার্যালয়ে তাঁর সঙ্গে দেখা। একুশ শতকের বাংলায় বাংলার আলোকিত এক জনপদে বসে তিনি বলছেন, “এখানকার জানকীনাথের মন্দিরে…কারা যেন কী সব রেখে দিয়ে গেছে।” টাইমলাইন এক লহমায় ছেচল্লিশের দিল্লিতে পৌঁছে দিল। সেই মানস সফরে দেখলাম, দেশভাগের বিভীষিকার অন্ধকারে দেখা কালো রক্ত পঁচাত্তর বছরেও বদলায়নি! যার শুরু সিপাহি বিদ্রোহের আগুনকে বিদ্রোহী বীরদের দিকেই ঘুরিয়ে দিয়ে তাদের পুড়িয়ে মারতে। সেই গোরুর রচনা। সেই হিন্দু-মুসলমান। সেই খেলা আজও চলছে। তার কোনো পরিবর্তন হয়নি।  শুধু কালচক্রে খেলার সাথী বদলে গেছে।

শিবপ্রসাদ গিরিকে প্রশ্ন করি, আপনি যা বললেন সে সব কথা কি শুভেন্দু প্রচারে বলছেন? শিব বললেন, নেতা কখনও এ ভাবে বলেন না। এ সব সংগঠনের লোকেরা বলছেন। তাঁরা জমি তৈরি করেন। নেতা এসে জমিতে সেচের জল ছেটান। শুভেন্দুদা প্রচারে বলছেন, “মমতা জিতলে এ বার ধুতি ছেড়ে লুঙ্গি পরতে হবে।” ব্যাস। এটাই যথেষ্ট। হুঁশিয়ারোঁকে লিয়ে ইশারাহি কাফি।

শিবের মতে, শুভেন্দুর এই ব্রহ্মাস্ত্র রোখা শিবেরও অসাধ্য। যদিও প্রবীণ শিক্ষক দীপংকর ত্রিপাঠী বললেন, “আপনি নিজেই ভাবুন, কতটা বিপন্নতার মুখোমুখি হলে শুভেন্দুকে সাম্প্রদায়িক তাস খেলতে হয়। কারণ, ওঁর স্লোগান তো ‘মেদিনীপুরের ভূমিপুত্রকে জেতানো, বহিরাগতকে তাড়ানো’। এখন হিন্দু-মুসলমান হচ্ছে কেন?” মুসলমানরা কি এখানকার ভূমিপুত্র নন?”

মাস্টারমশাইয়ের দিকে তাকিয়ে কৃতজ্ঞ শ্রদ্ধায় সিক্ত ফারুকের চোখ। ফারুক খান নন্দীগ্রাম সরস্বতীবাজারের চা-ওলা। ওঁর দোকানে সব রঙের খদ্দের। বলছিলেন, “এত কাল কমরেডরা আর তৃণমূলীরা কিন্তু সারা দিন ভোটে একে অপরের সঙ্গে লড়ার পর এক সঙ্গেই চা খেতে আসত। কিন্তু এখন কেউ কারও মুখ দেখে না। চা খাওয়া তো দূরের কথা।”

চা-ওলা ফারুক প্রধানমন্ত্রীর চা-ওলা অতীত নিয়ে ভাবিত নন – “কারণ এখানে তো দিদির ভাই শুভেন্দু। তা ছাড়া এ বার তো দিদি নিজে দাঁড়িয়েছেন। দিদিকে ছাড়ব কী করে? যে ছাড়ে ছাড়ুক। আমরা তো ছাড়ব না। আমাদের জন্যে, মানে এই নন্দীগ্রামের যা দেখছেন সব দিদির জন্যে। টোটো, অটো, রিকশা, ব্যবসাপাতি সবাই কিছু না কিছু করতে পারছে। এখন তো সেই গরিব মানুষ বলতে কিছু নেই।  সবারই কিছু না কিছু খুঁটে খাওয়ার উপায় আছে। গ্রামে একশো দিনের কাজ আছে।”

এবং এই কথাগুলো ফারুক বলছেন তপ্ত নন্দীগ্রাম বাজারে আড্ডার আগুনে চা আহুতি দিতে দিতে, যখন বিজেপির প্রলয় পালকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ফোনের অডিও ক্লিপ আগুনের মতোই ছড়িয়ে দিচ্ছে বিজেপি।

মাস্টারমশাই বেশ বিরক্ত – “হঠাৎ এটা কী হল বুঝলাম না। এই সময় কেউ শত্রুশিবিরে ঢোকা বিভীষণদের ফোন করে? কিন্তু মমতা তো বিনা কারণে এটা করতে পারেন বলে মনে হয় না। এর মধ্যেও হয়তো কোনো গভীর রাজনৈতিক চাল আছে। না হলে এই ফোন বাজারে চাউর হবে এ তো জানা কথা।”

তবে অন্ধ হলে কি প্রলয় বন্ধ থাকে? তাই প্রলয় পালের ফোনকাহিনি নিয়ে তৃণমূল তেমন ডিফেন্সিভ নয়। এত বড়ো হট প্লেট প্রলয়ও হাতে রাখতে পারেননি। হাত তো পুড়তই। তা ছাড়া দলবদলের দলদলে যে পড়ে সে জানে। নিজের ছায়াকেও গোয়েন্দা মনে হয়। সুতরাং শুভেন্দু থুড়ি, ভাজপা শিবিরের অবস্থা তেমন আঁটোসাঁটো কিনা তা নিয়েও সংশয় আছে। প্রলয়কাণ্ডে এটা প্রচণ্ড পরিষ্কার।

(চলবে)

পূর্ব মেদিনীপুর

West Bengal Cabinet: অধিকারীদের দাপট কমতেই রাজ্যের মন্ত্রীসভায় ঠাঁই হল চার বারের বিধায়ক অখিল গিরির

২০০১ সালে প্রথম বার বিধায়ক হয়েছিলেম অখিল গিরি।

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ২০০১ সালে প্রথম বার পূর্ব মেদিনীপুরের রামনগর কেন্দ্র থেকে তৃণমূলের টিকিটে জিতেছিলেন তিনি। এর পর ২০০৬ সালে হেরে গেলেও ২০১১, ২০১৬-এর পর ২০২১-এ ওই কেন্দ্র থেকে জিতে বিধায়ক হয়েছেন অধিকারী পরিবারের ঘোর বিরোধী হিসেবে পরিচিত অখিল গিরি। তবে এ বারই প্রথম বার রাজ্য মন্ত্রীসভায় ঠাঁই পেয়েছেন অখিলবাবু।

পূর্ব মেদিনীপুরে অধিকারীদের সামাজ্র্যের অনেকটাই পতন হয়েছে। বিজেপির টিকিটে শুভেন্দু অধিকারী নন্দীগ্রাম থেকে জিতলেও আশেপাশের অঞ্চলে বিজেপি খুব বেশি প্রভাব বিস্তার করতে পারেনি। বরং অধিকারীদের ছাড়াও পূর্ব মেদিনীপুরে তৃণমূল ভালো ফল করতে পারে, সেটাই দেখা গিয়েছে। এই ভালো ফলের নেপথ্যে অনেকটাই ছিলেন অখিল গিরি।

Loading videos...

মন্ত্রীসভায় ঠাঁই পাওয়ার পর প্রতিক্রিয়া দিতে গিয়ে তাঁর আক্রমণের লক্ষ্য সেই অধিকারী পরিবারই। বিজেপির পাশাপাশি তাঁর লড়াইটা ছিল অধিকারী পরিবারের বিরুদ্ধেও, এমনটাই বলছেন অখিল। সাফল্য মেলায় দৃশ্যতই খুশি অখিল।

অধিকারী পরিবারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়ে অখিল বলছেন, ‘‘এ বার অন্য রাজনৈতিক দলের সঙ্গে যেমন লড়াই ছিল, তেমনই অধিকারীদের বিরুদ্ধেও আমার লড়াই ছিল। ওরা যে ভাবে দলকে পরিচালনা করছিল, আমার লড়াইটা ছিল তারই বিরুদ্ধে। আমার ভাবতে ভালো লাগছে, অধিকারীরা চলে যাওয়ার পরেও, আমরা জায়গাটা অনেকটা ধরে রাখতে পেরেছি।’’

জেলায় বিজেপিকে রুখে দেওয়ার ইঙ্গিত দিয়েই অখিল বলছেন, ‘‘তমলুকের থেকে কাঁথি লোকসভা কেন্দ্রের বেশি আসনে আমরা পিছিয়ে আছি। আমার প্রথম লড়াই হবে, যে আসনগুলি আমরা হারিয়েছি সেই জায়গাগুলিতে পুনরায় ফিরে আসা।’’ চেষ্টার ফল ফলবে বলেও আশাবাদী অখিল।

উল্লেখ্য, রামনগর থেকে অখিল প্রথম বার তৃণমূলের টিকিটে জিতেছিলেন ২০০১ সালে। এর পর ২০০৬ সালে সিপিএমের স্বদেশরঞ্জন দাসের কাছে হেরে যান তিনি। তবে ২০১১ সালে তাঁর প্রত্যাবর্তন ঘটে। তার পর লাগাতার ২০১৬ এবং গত বিধানসভা নির্বাচনেও রামনগর কেন্দ্র থেকে জেতেন অখিল। উল্লেখ্য, ২০০৬-এর সিপিএম বিধায়ক স্বদেশরঞ্জনই এ বার অখিলবাবুর বিরুদ্ধে বিজেপির টিকিটে প্রার্থী হয়েছিলেন।

আরও পড়তে পারেন Bengal Cabinet: এক-তৃতীয়াংশ নতুন মুখ, আজ পৌনে ১১টায় শপথ রাজ্যের নতুন মন্ত্রীসভার

Continue Reading

পূর্ব মেদিনীপুর

Bengal Polls 2021: শুভেন্দু নন্দীগ্রামে জিতলেও পূর্ব মেদিনীপুরে দাপট থাকল তৃণমূলেরই

জিতেও হেরে গেলেন শুভেন্দু, হেরেও জিতে গেলেন মমতা।

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: হেরেও জিতে গেলেন তৃণমূলনেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর অন্যদিকে জিতেও কার্যত হেরে গেলেন বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারী। নিজের বিধানসভা কেন্দ্র নন্দীগ্রামে তিনি জিতলেন ঠিকই, কিন্তু পূর্ব মেদিনীপুরে সে অর্থে কোনো প্রভাব ফেলতে ব্যর্থ বিজেপি।

‘অধিকারীদের গড়’ তকমা কার্যত খোয়ানোর পথে পূর্ব মেদিনীপুর। আর অন্যদিকে নন্দীগ্রামে হেরেও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রমাণ করে দিলেন, অধিকারীদের নয় পূর্ব মেদিনীপুর আসলে তৃণমূলেরই।

Loading videos...

ভোটের ফল বলছে, পূর্ব মেদিনীপুর জেলার ১৬টি আসনের মধ্যে তৃণমূল জিতেছে ১০টিতে। বিজেপির ঝুলিতে এসেছে ৬টি। শুভেন্দু দু’বার (২০০৯ এবং ২০১৪) যে লোকসভা কেন্দ্র থেকে জিতেছিলেন, সেই তমলুক লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত ৭টি বিধানসভা আসনের মধ্যে মাত্র ২টি বিজেপি জিতেছে। এই দুটি হল নন্দীগ্রাম এবং হলদিয়া। তমলুকের বর্তমান সাংসদ শুভেন্দুর ভাই দিব্যেন্দু।

অন্যদিকে, শুভেন্দুর বাবা শিশির অধিকারীর লোকসভা কেন্দ্র কাঁথিতে তুলনামূলক কিছুটা ভালো করেছে বিজেপি। এর লোকসভা আসনের অন্তর্গত ৭টি বিধানসভা কেন্দ্রের মধ্যে ৪টিতে জিতেছে বিজেপি। সেগুলি হল, কাঁথি-উত্তর, কাঁথি-দক্ষিণ, ভগবানপুর এবং খেজুরি।

এ ছাড়া মেদিনীপুর লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত এগরা এবং ঘাটাল লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত পাঁশকুড়া-পশ্চিম কেন্দ্রেও জিতেছে তৃণমূল। যদিও ২০১৯-এর লোকসভা ভোটের বিধানসভা ভিত্তিক হিসেব বলছে, অধিকারীদের সাহায্য ছাড়াই এগরা এবং পাঁশকুড়া-পশ্চিমে বিজেপি এগিয়ে ছিল।

আরও পড়তে পারেন প্রথম বার জিতলেন মুকুল রায়, গড় হাতছাড়া হল পুত্র শুভ্রাংশুর

Continue Reading

পূর্ব মেদিনীপুর

পর্যটকদের মনোরঞ্জনে দিঘায় চালু হল টয় ট্রেন পরিষেবা

মোহনা থেকে উদয়পুর পর্যন্ত চলবে এই টয় ট্রেন।

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দিঘাকে গোয়া করার পরিকল্পনা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু এ বার দার্জিলিংয়ের স্বাদও দিঘায় মিলবে। উত্তরের দার্জিলিং তো টয় ট্রেনের জন্যই বিখ্যাত। এ বার দক্ষিণের দিঘাতেও সেই পরিষেবা চালু হল। দিঘায় বেড়াতে আসা পর্যটকদের মনোরঞ্জনে এ বার সমুদ্রের ধার দিয়ে ছুটতে শুরু করল টয় ট্রেন।

দিঘার মোহনা থেকে উদয়পুর সৈকত পর্যন্ত চালু হয়েছে এই টয় ট্রেন পরিষেবা। সমুদ্রের ধার ধরে এই বাঁধানো কংক্রিটের রাস্তাটা রয়েছে সেখান দিয়েই ছুটে যাবে চার কামরার এই টয় ট্রেন।

Loading videos...

গত মঙ্গলবার এই টয় ট্রেন পরিষেবা চালু করেছে দিঘা উন্নয়ন পর্ষদ। সমুদ্রের পাড় বরাবর ছুটবে ট্রেন। ফলে পর্যটকের সঙ্গে টানা তিন কিলোমিটার পথ ছুটে সমুদ্রের সৌন্দর্যও। সু্ন্দর–চওড়া রাস্তা, ঝকঝকে আলো এবং সুন্দর বসার জায়গার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

অনিয়মিত হলেও শুরু হয়েছে কলকাতা–দিঘা হেলিকপ্টার পরিষেবা। এ বার একধাপ এগিয়ে দিঘার সমুদ্র সৈকত ধরে টয়ট্রেন ছুটতে শুরু করেছে। ওল্ড দিঘা থেকে নিউ দিঘা যেতে হলে পর্যটকদের ভরসা ছিল টোটো বা ভ্যান। এ বার চলে এল টয় ট্রেনও।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

টিকাকরণের পুরো ডোজ সম্পূর্ণ হলে নিশ্চিন্তে ভ্রমণে বেরিয়ে পড়ুন, জানিয়ে দিল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের রোগ নিয়ন্ত্রণ সংস্থা

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
ক্রিকেট13 mins ago

ভারতের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে হার কেন? অদ্ভুত যুক্তি দিলেন টিম পেইন

মুর্শিদাবাদ26 mins ago

অনাস্থার আগেই মুর্শিদাবাদের জেলা সভাধিপতির পদ থেকে পদত্যাগ শুভেন্দু-ঘনিষ্ঠর

রাজ্য38 mins ago

কোভিডে আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত মরণোত্তর দেহ ও অঙ্গদান আন্দোলনের পথিকৃৎ ব্রজ রায়

Coronavirus Delhi
দেশ59 mins ago

Coronavirus Second Wave: সংক্রমণের হার ১৪ শতাংশে, সংক্রমণ নামল ১০ হাজারে, অভাবী রাজ্যগুলিকে অক্সিজেন দিয়ে সাহায্য করতে চায় দিল্লি

delhi pollution
পরিবেশ1 hour ago

পরিবেশগত ভাবে সব থেকে ঝুঁকিপূর্ণ বিশ্বের ২০ শহরের মধ্যে ১৩টি ভারতে

ধর্মকর্ম2 hours ago

Religious Places in Bengal: কালীক্ষেত্র কালীঘাট

দেশ3 hours ago

Corona Lockdown: বিহারে লকডাউনের মেয়াদ বেড়ে ২৫ মে, ঘোষণা নীতীশ কুমারের

শিল্প-বাণিজ্য3 hours ago

জিএসটি কাউন্সিলের বৈঠক অবিলম্বে ডাকা হোক, নির্মলা সীতারমনকে চিঠি অমিত মিত্রের

Madhyamik examination west bengal
শিক্ষা ও কেরিয়ার2 days ago

Madhyamik 2021: আপাতত সম্ভব নয় মাধ্যমিক পরীক্ষা, সরকারের সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় পর্ষদ

বিজ্ঞান2 days ago

জানেন কি, কোভিড থেকে সুস্থ হওয়ার পর অ্যান্টিবডিগুলি কত দিন পর্যন্ত রক্তে থেকে যায়

দেশ2 days ago

Covid Crisis: সংক্রমণের ধার কমাতে একটি বিশেষ ওষুধে ছাড়পত্র দিল গোয়া, খেতে হবে সবাইকে

বিজ্ঞান2 days ago

রক্তের গ্রুপের উপর কি কোভিড আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে, গবেষণায় জানাল সিএসআইআর

প্রযুক্তি2 days ago

পশ্চিমবঙ্গ সরকারের কোভিড অ্যাপ, সহজে জানা যাবে যাবতীয় তথ্য

শরীরস্বাস্থ্য1 day ago

করোনার এই দুঃসহ সময়ে অক্সিজেন বিপর্যয়ের সহজ সমাধান দিলেন বিজ্ঞানী ড. বিজন কুমার শীল

দেশ2 days ago

Corona Update: দৈনিক সংক্রমণকে ছাপিয়ে গেল সুস্থতা, দু’মাস ধরে টানা বৃদ্ধির পর অবশেষে কমল সক্রিয় রোগী

দেশ2 days ago

Covid Crisis: অক্সিজেনের অভাবে ১১ কোভিডরোগীর মৃত্যু অন্ধ্রপ্রদেশের হাসপাতালে

ভিডিও

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 months ago

বাজেট কম? তা হলে ৮ হাজার টাকার নীচে এই ৫টি স্মার্টফোন দেখতে পারেন

আট হাজার টাকার মধ্যেই দেখে নিতে পারেন দুর্দান্ত কিছু ফিচারের স্মার্টফোনগুলি।

কেনাকাটা3 months ago

সরস্বতী পুজোর পোশাক, ছোটোদের জন্য কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সরস্বতী পুজোয় প্রায় সব ছোটো ছেলেমেয়েই হলুদ লাল ও অন্যান্য রঙের শাড়ি, পাঞ্জাবিতে সেজে ওঠে। তাই ছোটোদের জন্য...

কেনাকাটা3 months ago

সরস্বতী পুজো স্পেশাল হলুদ শাড়ির নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই সরস্বতী পুজো। এই দিন বয়স নির্বিশেষে সবাই হলুদ রঙের পোশাকের প্রতি বেশি আকর্ষিত হয়। তাই হলুদ রঙের...

কেনাকাটা4 months ago

বাসন্তী রঙের পোশাক খুঁজছেন?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই আসছে সরস্বতী পুজো। সেই দিন হলুদ বা বাসন্তী রঙের পোশাক পরার একটা চল রয়েছে অনেকের মধ্যেই। ওই...

কেনাকাটা4 months ago

ঘরদোরের মেকওভার করতে চান? এগুলি খুবই উপযুক্ত

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘরদোর সব একঘেয়ে লাগছে? মেকওভার করুন সাধ্যের মধ্যে। নাগালের মধ্যে থাকা কয়েকটি আইটেম রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার...

কেনাকাটা4 months ago

সিলিকন প্রোডাক্ট রোজের ব্যবহারের জন্য খুবই সুবিধেজনক

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন সামগ্রী এখন সিলিকনের। এগুলির ব্যবহার যেমন সুবিধের তেমনই পরিষ্কার করাও সহজ। তেমনই কয়েকটি কাজের সামগ্রীর খোঁজ...

কেনাকাটা4 months ago

আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজ রইল আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার সময় যে দাম ছিল...

কেনাকাটা4 months ago

রান্নাঘরের এই সামগ্রীগুলি কি আপনার সংগ্রহে আছে?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরে বাসনপত্রের এমন অনেক সুবিধেজনক কালেকশন আছে যেগুলি থাকলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যেতে পারে। এমনকি দেখতেও সুন্দর।...

কেনাকাটা4 months ago

৫০% পর্যন্ত ছাড় রয়েছে এই প্যান্ট্রি আইটেমগুলিতে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনন্দিন জীবনের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসগুলির মধ্যে বেশ কিছু এখন পাওয়া যাচ্ছে প্রায় ৫০% বা তার বেশি ছাড়ে। তার মধ্যে...

কেনাকাটা4 months ago

ঘরের জন্য কয়েকটি খুবই প্রয়োজনীয় সামগ্রী

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় ও সুবিধাজনক বেশ কয়েকটি সামগ্রীর খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদনটি লেখার সময় যে দাম ছিল তা-ই...

নজরে