দেড় দিনেও সমুদ্রে ফিরতে না পারায় বেঘোরে মৃত্যু ডলফিনের, প্রশ্নে বন দফতরের ভূমিকা

0

ভগবানপুর (পূর্ব মেদিনীপুর): দেড় দিনেও সমুদ্রে ফিরতে না পাড়ায় বেঘোরে মৃত্যু হল একটি ডলফিনের। ঘটনাটি ঘটেছে পূর্বমেদিনীপুরের ভগবানপুরে। মাছ ধরার জালে জড়িয়েই এই অঘটন বলে জানাচ্ছেন মৎস বিশেষজ্ঞরা।

তবে এলাকায় বনকর্মী এবং পুলিশ থাকার পরও ঠিক সময়ে কেন উদ্ধার করে সমুদ্রে পাঠানো হল না ওই ডলফিনকে প্রশ্ন তুলে সরব হয়েছেন স্থানীয়রা।

স্থানীয় সূত্রে খবর, বৃহস্পতিবার সমুদ্র থেকে খালে উঠে আসে ওই ডলফিনটি। যদিও স্থানীয়রা বুঝতে পারেননি অস্থীর হয়েই ঘুরে বেরাচ্ছিল সে। এর পর শনিবার হঠাৎই কালীনগরের নিতুড়িয়ার কাছে খালে ভেসে ওঠে ডলফিনের দেহ।

প্রাথমিক তদন্তে অনুমান, খালে বসানো মাছ ধরার জালে দেহ জড়িয়ে মৃত্যু হয়েছে ওই ডলফিনের। তার দেহে জাল জড়ানোর চিহ্নও রয়েছে।

আরও পড়ুন কাশ্মীরের ইতিহাসে প্রথমবার এই ঘটনাটি ঘটল, ৩৭০ অনুচ্ছেদ রদই তার কারণ

তবে স্থানীয় বাসিন্দাদের প্রশ্ন, বন দফতরের কর্মীরা, গোটা ঘটনার দিকে নজর রাখলেও, কেন তাঁকে উদ্ধার করা যায়নি বনকর্মীরা। ডলফিনের মৃতদেহ উদ্ধার করতে এলে দীর্ঘক্ষণ ডলফিনের দেহ নিয়ে বিক্ষোভ দেখান স্থানীয়রা।

কী ভাবে মৃত্যু হল ওই ডলফিনের?

এক মৎস্য বিশেষজ্ঞের কোথায়, ডলফিন সাধারণত যে পরিবেশে থাকে, তার থেকে অনেকটাই দূরে চলে গিয়েছিল এই ডলফিনটি। মূলত অক্সিজেনের অভাব, দূষণ, পর্যাপ্ত খাদ্যের অভাবেই মৃত্যু হয়েছে ওই ডলফিনের।

প্রথমেই নজর দেওয়া হলে, তার এই মর্মান্তিক পরিণতি হত না বলে জানাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.