Dead Body

খবর অনলাইনডেস্ক: সিকিমের পর এ বার উত্তরপ্রদেশ (Uttar Pradesh)। ফের ভ্রমণে বেরিয়ে প্রাণঘাতী দুর্ঘটনার শিকার হল বাঙালি পরিবার।

বুধবার রাতে উত্তরপ্রেদেশের এটাওয়ায় (Etawah) মর্মান্তিক ওই দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়েছে পাঁচ জনের। মৃতদের মধ্যে চার জন একই পরিবারের সদস্য। তাঁদের বাড়ি তমলুকে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, তমলুকের (Tamluk) নন্দকুমার থানার ব্যবত্তাহাট এলাকার বাসিন্দা শ্রীকান্ত মাইতি‌। জেলা ভূমি ও ভূমি সংস্কার দফতরের ড্রাফটসম্যান বিভাগের কর্মী ছিলেন। বছরখানেক আগে শ্রীকান্তবাবুর মেয়ের বিয়ে হয় কলকাতার যাদবপুর এলাকার বাসিন্দা অভিজিতের সঙ্গে। অভিজিৎ পেশায় দিল্লির একটি বেসরকারি সংস্থার কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার।

মেয়ে জামাইয়ের আমন্ত্রণে স্ত্রী কবিতাদেবীকে নিয়ে দিল্লি বেড়াতে গিয়েছিলেন শ্রীকান্তবাবু। দিল্লিতে পৌঁছে আগরা আর লখনউ ভ্রমণে বেরিয়ে যান।

আরও পড়ুন এলাহাবাদ হাইকোর্টের পর উত্তরপ্রদেশ সরকারকে ভর্ৎসনা সুপ্রিম কোর্টেরও

এই ভ্রমণের মধ্যেই দুর্ঘটনা ঘটল। বুধবার এটাওয়া এলাকায় ব্যস্ততম জাতীয় সড়কে উলটো দিক থেকে আসা একটি লরির সঙ্গে সংঘর্ষ হয় তাঁদের গাড়ির। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় গাড়ি চালক-সহ পাঁচ জনের।

এই দুর্ঘটনার খবর তমলুকে পৌঁছোতেই শোকস্তব্ধ গোটা এলাকা। তমলুকের মহকুমা পুলিশ আধিকারিক অতীশ বিশ্বাস বলেন, “লখনউ পুলিশ সূত্রে দুর্ঘটনায় তমলুকের চার পর্যটকের মৃত্যুর খবর আমরা জানতে পেরেছি। সেই সঙ্গে মৃতদেহগুলিকে দিল্লি থেকে ফিরিয়ে আনার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।”

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন