বিধায়কের কার্যালয় বদলে গেল ‘শুভেন্দু অধিকারীর সহায়তা’ কেন্দ্রে, সংঘাতে নতুন ইন্ধন

0

খবর অনলাইন ডেস্ক: রবিবার পশ্চিম মেদিনীপুরের দাঁতনে রোড শো করেন বিজেপি (BJP) নেতা শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari)। এরই মধ্যে পূর্ব মেদিনীপুরের নন্দীগ্রামের প্রাক্তন বিধায়কের কার্যালয়টির নাম-ও বদলে গেল।

নন্দীগ্রামের বিধায়ক থাকাকালীন এই কার্যালয়টিতে বসেই এলাকার ভোটারদের অভাব-অভিযোগের কথা শুনতেন শুভেন্দু। এলাকার মানুষ জানান, তখন এটার নাম ছিল বিধায়কের কার্যালয়। গত ১৯ ডিসেম্বর বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন তিনি। তার আগেই ইস্তফা দিয়েছেন বিধায়কপদে।

শুভেন্দু ঘনিষ্ঠরা দাবি করেছেন, এই কার্যালয়টি থেকে বিনামূল্যে অ্যাম্বুলেন্স পরিষেবা দেওয়া হয়। এ ছাড়া এলাকার দু:স্থ পড়ুয়াদের বই এবং অন্য়ান্য উপকরণ দিয়ে সাহায্য করা হয়। তবে নাম বদলের সুস্পষ্ট কারণ নিয়ে তাঁর মুখ খুলতে চাননি।

তবে নন্দীগ্রাম-১ ব্লকের তৃণমূল (TMC) সভাপতি স্বদেশ দাস বলেন, “শুভেন্দু অধিকারী তো এখন বিধায়ক নন। ফলে তাঁর আবার কার্যালয় কীসের। সেখান থেকে মানুষকে কী পরিষেবাই বা দেওয়া হবে, তা নিয়ে আমরা ভাবছি না”।

বিজেপিতে যোগ দেওয়ার পর থেকেই তৃণমূলের বিরুদ্ধে ক্রমশ সুর ধারালো করছেন শুভেন্দু। তাঁর সঙ্গে তৃণমূলের সংঘাতের বিষয়টিও এখন আর ছায়াযুদ্ধে আবৃত নয়। ফলে বিধায়কের কার্যালয়টি সরাসরি ‘শুভেন্দু অধিকারী মহোদয়ের সহায়তা কেন্দ্রে’ পরিণত হওয়া সেই সংঘাতে নতুন ইন্ধন জোগালো।

তবে এ ধরনের সহায়তা কেন্দ্র এই প্রথম নয়। এর আগে  ‘অধিকারী গড়’ হিসেবে পরিচিত কাঁথিতে তৃণমূল শ্রমিক সংগঠনের কার্যালয়ের রং বদল হয়েছে রাতারাতি।  সঙ্গে পাল্টে গিয়েছে নাম। নতুন নাম হয়েছে ‘শুভেন্দুবাবুর সহায়তা কেন্দ্র’

আরও পড়তে পারেন: ভিতর থেকে দেখে ঘেন্না ধরে গিয়েছে: শুভেন্দু অধিকারী

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন