বিধানসভা ভোটে বিজেপির বিপর্যয় নিয়ে বিস্ফোরক শুভেন্দু অধিকারী

0
শুভেন্দু অধিকারী

নিজের নাক কেটে পরের যাত্রা ভঙ্গ করেছে অনেকে, দলীয় সভায় বললেন শুভেন্দু অধিকারী!

খবর অনলাইন ডেস্ক: বিধানসভা ভোটে বিজেপির বিপর্যয় নিয়ে আত্মসমালোচনার সুর শোনা গেল বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর (Suvendu Adhikari) বক্তব্যে। একই সঙ্গে তিনি দলের একাংশকে কটাক্ষ করতেও ছাড়লেন না পূর্ব মেদিনীপুরে বিজেপির এক দলীয় সভামঞ্চ থেকে।

Shyamsundar

শুভেন্দু এ দিন বলেন, “আপনাদের অনেকেই নিজেরা নিজেদের প্রার্থীর সম্পর্কে খারাপ কথা আলোচনা করেছেন। নিজেরা অনেকে আত্মতুষ্টিতে ভুগেছেন। অনেকেই ভেবেছেন, এই জেলায় ১৬টি আসন, রাজ্যে ২৯৪টা, এর মধ্যে ১৭০-১৮০ তো হয়েই গিয়েছে, চণ্ডীপুরটা হারলে হারুক। নন্দকুমার, ভগবানপুর, খেজুরি, নন্দীগ্রাম তো জিতে গিয়েছি আমারটা হারলে হারুক। এই করতে গিয়ে অনেকে নিজের নাক কেটে পরের যাত্রাভঙ্গ করেছে”।

শুভেন্দুর এই আত্মসমালোচনা প্রসঙ্গে তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কুণাল ঘোষ এক বৈদ্যুতিন সংবাদ মাধ্যমে বলেন, “শুধু বিজেপি দলের অন্য নেতা-কর্মীরাই নায়, শুভেন্দু অধিকারীও ক্ষমতায় আসা নিয়ে আত্মতুষ্টিতে ভুগেছেন”।

প্রসঙ্গত, এ বারের বিধানসভা ভোটে বাংলা দখলে সর্বশক্তি নিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল বিজেপি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ থেকে শুরু করে বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব ঘনঘন রাজ্যে এসে নিয়মিত সভা করেন। ২০০ আসনে জয়ের লক্ষ্য নিয়ে এগিয়ে ৭৭-এ থামতে হয় বিজেপি-কে।

এ দিকে খবর, ২০২৪-এ লোকসভা ভোটকে সামনে রেখে রাজ্যে এনডিএ জোটকে শক্তিশালী করতে চাইছেন শুভেন্দু। এ ব্যাপারে ইতিমধ্যেই বিহারের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জিতেনরাম মাঝির হিন্দুস্তান আওয়াম মোর্চার (হাম) সঙ্গে কলকাতায় বৈঠক করেছেন তিনি।

আরও পড়তে পারেন: কোচবিহার জেলা তৃণমূল সভাপতি পার্থপ্রতিম রায়ের বাড়িতে ঢুকে গুলি চালাল দুষ্কৃতীরা!

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন