কলকাতা: গত বুধবার থেকে রাজ্যে শুরু হয়েছে লোকাল ট্রেন পরিষেবা। তবে নির্দিষ্ট সংখ্যক ট্রেন চালানোয় ভিড় নিয়ন্ত্রণ সম্ভব হচ্ছে না বলে রাজ্যের পরামর্শ মতোই আরও বেশি সংখ্যক ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নিল রেল।

বৃহস্পতিবার লোকাল ট্রেনের ভিড় নিয়ন্ত্রণ এবং ট্রেনের সংখ্যা বাড়ানোর মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলি নিয়ে বৈঠকে বসেন রাজ্য এবং রেলের উচ্চপদস্থ আদিকারিকরা। সেখানেই স্থির হয়, দিনের ব্যস্ততম সময় একশো শতাংশ লোকাল ট্রেন চালানো হবে। চলতি সপ্তাহ থেকেই এই পরিষেবা চালু হয়ে যাবে।

Loading videos...

বুধবার থেকে ৪৬ শতাংশ লোকাল ট্রেন নিয়ে পরিষেবা শুরু হয়েছিল রাজ্যে। ৬৯৬টি ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নেয় শিয়ালদহ, হাওড়া এবং খড়গপুর ডিভিশন। তবে পরিস্থিতি বিবেচনা করে সেই সংখ্যা ইতিমধ্যেই বাড়ানো হয়েছে।

কিন্তু কোভিডবিধি মেনে লোকাল ট্রেন পরিষেবা চালু হওয়ার প্রথম দিনেই দেখা যায়, যাত্রীদের ভিড় সেই আগের মতোই। অর্থাৎ, ট্রেনের সংখ্যা কমিয়ে দেওয়ায় করোনা এড়াতে শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখার বিষয়টি বজায় রাখা সম্ভব হচ্ছে না। এর পরই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রেলের উদ্দেশে দিনের ব্যস্ত সময়ে আরও বেশি সংখ্যক ট্রেন চালানোর পরামর্শ দেন। এ দিনের রেল-রাজ্য বৈঠকে সেই পরামর্শেই সিলমোহর পড়ে।

এ দিন বৈঠকের শেষ সাংবাদিকদের সামনে রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “‌রেল পরিষেবার সঙ্গে যাত্রী স্বাচ্ছন্দ্য আরও বাড়ানো নিয়ে পূর্ব রেল ও দক্ষিণ–পূর্ব রেলের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা কমানোর লক্ষ্যে আমরা একযোগে রাজ্যে অফিস টাইমে ১০০ শতাংশ লোকাল ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছি”।‌

পূর্বরেলের চিফ অপারেশন ম্যানেজার বলেন,”১০০ শতাংশ না হলেও, অন্তত ৯৫ শতাংশ ট্রেন চালাব। আগামীকাল, শুক্রবার থেকে অফিস টাইমে আগের মতোই ট্রেন চলবে”। তিনি আরও বলেন,”১১ তারিখের অভিজ্ঞতা থেকে বুঝেছি পরিষেবা বাড়াতে হবে। ৭৫ শতাংশের মতো ট্রেন চলছে। যদিও ৪৬ শতাংশ চালানোর পরিকল্পনা করেছিলাম। কিছু ট্রেন বেশি চালানো হয়েছে। সকাল-সন্ধে এ বার ৯৫ শতাংশ ট্রেন চালাব”।

তবে লোকাল ট্রেন চালু হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে হকারও সরব হয়েছেন। তাঁদের দাবি, ফের তাঁদের ট্রেনে উঠতে দিতে হবে। যদিও এ দিনের বৈঠকে এ বিষয়ে কোনো আলোচনা হয়েছে কি না, তা জানা যায়নি।

আরও পড়তে পারেন: বিধায়কপদ থেকে ইস্তফা বেচারাম মান্নার

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.