বৃষ্টি থামল দক্ষিণবঙ্গে, তবে ঝাড়খণ্ডে এখনও জারি প্রবল বর্ষণ

0
kalboishakhi kolkata

ওয়েবডেস্ক: দক্ষিণবঙ্গে এ বার দেরিতে গতি পেল বর্ষা। কিন্তু সে এমন গতিপ্রাপ্ত হল যে মানুষের জীবনকে দুর্বিষহ করে তুলল। যদিও এর জন্য বর্ষাকে দোষ দেওয়ার কোনো কারণ নেই। যতই জল জমুক, বৃষ্টি হল বলেই তো কলকাতা ও খরা পরিস্থিতির সম্মুখীন হওয়া দক্ষিণ বঙ্গের বিভিন্ন জায়গায় মাটির নীচের জলস্তর অনেকটাই বেড়েছে।

যা-ই হোক, সোমবার সকাল থেকে দক্ষিণবঙ্গ, বিশেষত কলকাতার আবহাওয়ার লক্ষণীয় পরিবর্তন দেখা গিয়েছে। সকাল থেকে দেখা পাওয়া যাচ্ছে রোদের। যদিও মাঝেমধ্যেই মেঘের মধ্যে মুখ লুকোচ্ছে। বৃষ্টি আপাতত নেই। তার মানে এই নয় যে বৃষ্টি এখন হবে না। বরং নিম্নচাপের প্রভাব এখনও কিছুটা থাকায় আপাতত আগামী কয়েক দিন বিক্ষিপ্ত ভাবে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি হতে পারে।

তবে কলকাতা বা দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টি থামলেও, বৃষ্টি এখনও হয়ে চলেছে ঝাড়খণ্ডে। এই বৃষ্টি এক দিক থেকে ভালো এবং খারাপ খবর বয়ে নিয়ে আসতে পারে। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় দেড়শো থেকে দু’শো মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। ছোটোনাগপুর মালভূমি অঞ্চলে প্রবল বর্ষণ হওয়ায় দামোদরের জল বাড়তে পারে। এখনই দামোদরের জলস্তরে পরিবর্তন দেখা গিয়েছে। গত শুক্রবার এবং রবিবারের মধ্যে দামোদরে জল অনেকটাই বেড়েছে। এর ফলে কৃষকদের আরও সুবিধা হবে বলেই মনে করা হচ্ছে। যদিও বৃষ্টি না থামলে বন্যার আশঙ্কাও থেকে যাচ্ছে।

আরও পড়ুন দক্ষিণের পর বন্যা-ধসের দাপট উত্তর ভারতে, মৃত অসংখ্য, বন্যার সতর্কতা রাজধানী দিল্লিতে

তবে আপাতত বন্যার বিশেষ আশঙ্কা নেই, কারণ বৃষ্টি ধীরে ধীরে কমে আসবে। এর পরে আরও কয়েক দফা প্রবল বর্ষণ হলে, তখন সমস্যা তৈরি হতে পারে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here