কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গে বুধবার থেকে জোর বৃষ্টির সম্ভাবনা

0
1023

কলকাতা: দিন পাঁচেক স্তিমিত থাকার পর ফের মাথাচাড়া দেওয়ার ইঙ্গিত দিচ্ছে বর্ষা। মঙ্গলবার দুপুর থেকেই তার ট্রেলার দেখা যাচ্ছে কলকাতায়। আগামী কয়েক দিন জোর বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দফতর।

গত সপ্তাহের মাঝামাঝি থেকেই বৃষ্টির পরিমাণ কমেছে গোটা রাজ্যেই। এর ফলে দক্ষিণবঙ্গে কিছুটা বেড়ে গিয়েছে বৃষ্টির ঘাটতি। সোমবার পর্যন্ত দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টির ঘাটতি ১৮ শতাংশ। এর পাশাপাশি উল্লেখযোগ্য বৃষ্টির অভাবে উত্তরবঙ্গেও ঘাটতি পৌঁছেছে ১২ শতাংশে।

দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টি কমে যাওয়ার কারণ ছিল মৌসুমী অক্ষরেখার দূরে সরে যাওয়া। সাধারণত দক্ষিণবঙ্গ থেকে মৌসুমী অক্ষরেখা সরে গেলে উত্তরবঙ্গে ঘাঁটি গাড়ে। কিন্তু এ বার সেই অক্ষরেখা উত্তরবঙ্গে না গিয়ে আরও দক্ষিণে সরে অবস্থান করছিল ওড়িশার ওপরে। এর ফলে গোটা রাজ্যেই কমে গিয়েছিল বৃষ্টির পরিমাণ।

বুধবার থেকে বৃষ্টি বাড়ার কারণ কী?

আবহাওয়া বিশেষজ্ঞদের মতে, এই মুহূর্তে বঙ্গোপসাগরের ওপর অবস্থান করছে একটি গভীর নিম্নচাপ। সেই নিম্নচাপটি মঙ্গলবার পুরীর কাছাকাছি অঞ্চল দিয়ে স্থলভূমিতে প্রবেশ করবে। বেসরকারি আবহাওয়া সংস্থা ওয়েদার আল্টিমার কর্ণধার তথা আবহাওয়া বিশেষজ্ঞ রবীন্দ্র গোয়েঙ্কার কথায়, “নিম্নচাপটা ওড়িশায় প্রবেশ করার পর উত্তর-পশ্চিম দিকে যাবে। এর ফলে দক্ষিণবঙ্গে প্রচুর জলীয় বাস্প ঢুকবে। সেই সঙ্গে মায়ানমার-বাংলাদেশ অঞ্চল দিয়েও জলীয় বাষ্প ঢুকবে। এর ফলে কলকাতায় মাঝারি বৃষ্টি হবে। উপকূলবর্তী অঞ্চলে ভারী বৃষ্টি হবে।” পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলিতে তুলনায় বেশি বৃষ্টি হবে বলে জানান রবীন্দ্রবাবু।

আগামী কয়েক দিনের বৃষ্টির ফলে বেশি উপকৃত হবে উপকূল এবং পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলি। দক্ষিণবঙ্গের বর্তমান পরিস্থিতি যা তাতে জেলাগুলিতে বেশি বৃষ্টি হওয়া বাঞ্ছনীয়। কারণ, কলকাতায় বৃষ্টি বাড়তি হলেও, জেলাগুলিতে এখনও বৃষ্টির পরিমাণ বেশ কমই।

দক্ষিণবঙ্গের পাশাপাশি উত্তরবঙ্গেও ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস জারি করেছে আবহাওয়া দফতর।

 

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here