নন্দীগ্রাম মামলা ছাড়লেন বিচারপতি কৌশিক চন্দ! কেন ৫ লক্ষ টাকা জরিমানা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে

0

খবর অনলাইন ডেস্ক: নন্দীগ্রাম মামলা থেকে সরে দাঁড়ালেন বিচারপতি কৌশিক চন্দ। এই মামলা না শোনার জন্য তাঁকে আবেদন জানান নন্দীগ্রামের তৃণমূল প্রার্থী এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

এই মামলার শুনানি শেষ হয় গত ২৪ জুন। তবে মামলার রায় দিতে গিয়ে বুধবার বিচারপতি চন্দ স্পষ্ট জানান, তাঁর বিরুদ্ধে মামলাকারীর পক্ষ থেকে যে অভিযোগ তোলা হয়েছে, তার জন্য তিনি সরছেন না। বরং, বিষয়টি নিয়ে বিতর্ক তৈরি হওয়ার কারণেই তিনি সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

কেন জরিমানা?

সরে দাঁড়ানোর আগে বিচারপতি এবং বিচারবিভাগের মানহানির অভিযোগে মুখ্যমন্ত্রীকে ৫ লক্ষ টাকা জরিমানা করেছেন কৌশিক চন্দ। মামলা সরানোর আর্জি জানিয়ে মমতার আইনজীবী দাবি করেছিলেন, কৌশিক চন্দের সঙ্গে একসময় বিজেপির সক্রিয় যোগাযোগ ছিল, তাই অন্য বিচারপতির কাছে নন্দীগ্রাম গণনা মামলা সরানো হোক।

এ ব্যাপারে বিচারপতি জানিয়েছেন, “আমার সঙ্গে একটি রাজনৈতিক দলের গভীর সম্পর্ক রয়েছে, তাই মামলাটি ছেড়ে দেওয়া উচিত— এই অভিযোগের ভিত্তিতে সিদ্ধান্ত নেওয়াটা সাধারণ মানুষের উপর ছাড়া যায় না। এটা বিচারপতি ঠিক করবেন। কারও কোনো রাজনৈতিক পছন্দ থাকতে পারে না, এটা এ দেশে প্রায় অসম্ভব। বিচারপতিরাও গণতান্ত্রিক অধিকার প্রয়োগ করেন। তাঁরাও বিভিন্ন রাজনৈতিক দলকে ভোট দেন। তাছাড়া বিচারপতির নিয়োগ সংক্রান্ত সিক্রেট রিপোর্ট জনসমক্ষে আনাটা কি ঠিক? একজন মুখ্যমন্ত্রী গোপনীয়তা বজায় রাখারও শপথ নেন”।

কী হবে এই টাকায়?

তাঁর কথায়, যেহেতু স্থায়ী বিচারপতি হিসেবে তাঁকে স্বীকৃতি দেওয়ার ক্ষেত্রে নিজের আপত্তির কথা প্রকাশ্যে এনেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, তাতে বিচারপতি ও বিচারবিভাগের মানহানি হয়েছে।  তাই মুখ্যমন্ত্রীকে ৫ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হল। এই টাকা জমা দিতে হবে বার কাউন্সিলে। যা পরবর্তীকালে কোভিড চিকিৎসায় ব্যবহৃত হবে।

প্রসঙ্গত, এ বারের বিধানসভা ভোটে নন্দীগ্রামে প্রার্থী হয়েছিলেন মমতা। ভোটের ফল গণনায় কারচুপির অভিযোগ তুলে হাইকোর্টে মামলা করেন তিনি। ভোট পুনর্গণনার দাবিও জানান তিনি। কিন্তু নন্দীগ্রাম মামলাটি বিচারপতি কৌশিক চন্দের বেঞ্চে উঠতেই তাঁর সঙ্গে বিজেপির সম্পর্ক নিয়ে সরব হয় তৃণমূল। মামলাটি অন্য বিচারপতির এজলাসে সরানোর আর্জি জানানো হয়। এ দিন বিচারপতি সরানোর দাঁড়ানোয় সায় দিলেও মমতাকে ৫ লক্ষ টাকা জরিমানার বিরুদ্ধে সরব হয়েছে তৃণমূল।

আরও পড়তে পারেন: পুরসভার মর্যাদা পেল উত্তরবঙ্গের দুই শহর

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন