কলকাতা: নিজের দলের কোর কমিটির মেসেজ গ্রুপ ব্লক করেছে তাঁকে। যার ফলে কমিটির কোনো কর্মসূচি সম্পর্কে তিনি যেমন কিছু জানতে পারছেন না, তেমনই তিনি নিজেও কারও সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারছেন না। বাধ্য হয়ে দলের রাজ্য সভাপতিকে টুইট করে জানালেন সমস্যার কথা জানালেন বিজেপির রাজ্যসভা সাংসদ রূপা গঙ্গোপাধ্যায়।

বিজেপির অন্দর মহলের খবর, রাজ্য নেতৃত্বের কয়েক জনের সঙ্গে বিভিন্ন ইস্যুতে মতানৈক্য চলছে রূপার। গত বছরের শেষের দিকে  তিনি না কি খোদ নয়াদিল্লিতে গিয়ে সভাপতি অমিত শাহের কাছে এ ব্যাপারে মুখও খুলেছেন।  দলের একটা অংশ মনে করে, রাজ্যসভার সাংসদের পদটা পেয়ে গিয়ে রূপার আগের সেই আন্দোলনমুখী বৈশিষ্ট্য গায়েব হয়ে গিয়েছে।  এখন পথে-ঘাটে নেমে আন্দোলনের থেকে তিনি চার দেওয়ালের মধ্যেই বেশি সময় দিচ্ছেন।  সাম্প্রতিক সময়ে পদ্মাবত ছবিটির মুক্তি ঘিরেও রাজ্য বিজেপি নেতৃত্বের ‘চক্ষুশূল’ হয়েছেন। ‘পদ্মাবত’ নিয়ে যখন দেশ জুড়ে বিরোধিতার পথে হাঁটছে, তখন কলকাতায় ওই ছবির মুক্তি নিয়ে দলের সাংসদ হয়ে তিনি যে ধরনের মন্তব্য করেন, তাতে সমর্থকরা মনোবল হারায় বলে মনে করে দলের ওই অংশটি।

তবে আচমকা দলের কোর কমিটির মেসেজ গ্রুপ থেকে কী ভাবে বাদ পড়লেন রূপা, সে বিষয়ে বিশেষ কিছু জানা যায়নি। কিন্তু রূপার টুইট থেকে স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে, তাঁকে কোনো কারণে পশ্চিমবঙ্গে দলের সরকারি মেসেজ গ্রুপে ব্লক করে ফেলা হয়েছে। রূপা নিজের টুইটার অ্যাকাউন্ট @রূপাস্পিকস-এ এই টুইটটি করার পর হাসির রোল উঠেছে।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন