Connect with us

রাজ্য

২৫ দিন অতিক্রান্ত এসএসসি চাকরিপ্রার্থীদের অনশন, বাড়ছে ইউরিন ইনফেকশন

ওয়েবডেস্ক: কলকাতার মেয়ো রোডে এসএসসি শিক্ষক চাকরিপ্রার্থীদের অনশন ২৫ দিন অতিক্রান্ত। সরকারি ভাবে মোখিক আশ্বাস দেওয়া হলেও অনশনকারীরা স্থায়ী সমাধান চেয়ে লিখিত প্রতিশ্রুতির দাবি করেছেন। এরই মধ্যে জানা গিয়েছে, খোলা জায়গায় এক নাগাড়ে ২৫ দিন অনশন চালিয়ে যাওয়া অনেকেই ইউরিন ইনফেকশনে আক্রান্ত হয়েছেন। স্বাভাবিক ভাবেই বিভিন্ন মহলের তরফে অনশনকারীদের প্রাথমিক পরিষেবা প্রদানের দাবি উঠছে।

মানবাধিকার সংগঠন এপিডিআরের তরফে আগেই দাবি করা হয়েছে, কোনো গণতান্ত্রিক আন্দোলনে সরকারের সহযোগিতার আশা করা যায়। এই রোদ-জলে-ঝড়ে মাথায় কোনো আচ্ছাদন নেই, পানীয় জলের বন্দোবস্ত নেই, শৌচাগারেরও কোনো বন্দোবস্ত নেই ! অবিলম্বে এই জরুরি পরিষেবাগুলোর ব্যবস্থা করুক সরকার। একই সঙ্গে এপিডিআরের প্রতিনিধিরা অনশনস্থলে গিয়ে পরিবেশ-পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণের পর আশঙ্কাপ্রকাশ করেন, অনশনকারীরা যে কোনো মুহূর্তে অসুস্থ হয়ে পড়তে পারেন এই অব্যবস্থার কারণেই।

জানা গিয়েছে, আদতে ঘটছেও সেটাই। ইতিমধ্যে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন প্রায় ৭০ জন। এঁদের মধ্যে অনেকেরই ইউরিন ইনফেকশনের মতো সমস্যা দেখা দিয়েছে৷ অনশনকারীরা জানিয়েছেন, মহিলারা শৌচাগারের সমস্যায় ভুগলেও কোনো সুরাহা হয়নি। ফলে তাঁরা যতটা সম্ভব কম জল পান করছেন। যে কারণে খুব সহজেই তাঁরা আক্রান্ত হচ্ছেন ইউরিন ইনফেকশনে।

[ আরও পড়ুন: এসএসসি চাকরিপ্রার্থীদের অনশন মঞ্চে যোগ দিলেন মন্দাক্রান্তা সেন ]

জানা গিয়েছে, আগামী সোমবার অনশনকারীদের দাবির প্রতি সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণের পাশাপাশি তাঁদের শারীরিক অবস্থান অবনতি নিয়েও সরব হতে মিছিলের আয়োজন করছে এপিডিআর।

রাজ্য

মৃত্যুহার কমে ৩ শতাংশে, রাজ্যে নতুন আক্রান্তের সংখ্যাও কিছুটা কমল

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রবিবার এক দিনে ১৫৬০ জন রাজ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন। ২৪ ঘণ্টা পর সেই সংখ্যাটা বেশ কিছুটা কমল। আক্রান্ত হয়েছেন ১৪৩৫ জন। একই সঙ্গে রাজ্যে মৃত্যুহারে অনেকটা পতন লক্ষ করা গিয়েছে।

রাজ্যের করোনা-তথ্য

রাজ্যে বর্তমানে রোগীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৩১,৪৪৮। তবে গত ২৪ ঘণ্টায় ৬৩২ জন সুস্থ হওয়ায় এখনও পর্যন্ত সুস্থ হলেন মোট ১৯,২১৩ জন। রাজ্যে নতুন করে ২৪ জনের মৃত্যু হওয়ায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৯৫৬ জন।

সুস্থতার হার রাজ্যে বর্তমানে রয়েছে ৬১.০৩ শতাংশ। অন্য দিকে মৃত্যুহার নেমে এসেছে মাত্র ৩.০৩ শতাংশে। এই প্রবণতা চলতে থাকলে রাজ্যে করোনার মৃত্যুহার আগামী দিনে আরও কমবে। রাজ্যে বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ১১,২৭৯।

কলকাতায় কমল, বাড়ল উত্তর ২৪ পরগণায়

কলকাতায় নতুন আক্রান্তের সংখ্যা কিছুটা কমল। গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪১৪ জন। যদিও এর ফলে শহরে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দশ হাজার অতিক্রম করেছে, সুস্থতার হার যথেষ্ট ভালো হওয়ায় শহরে এখন সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৩,৭৯৫ জন।

তবে উত্তর ২৪ পরগণায় আক্রান্তের সংখ্যা একটু বেড়েছে। এ দিন নতুন করে ৩৬৩ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এর ফলে এই জেলায় এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৫৯৯২। তবে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ২,৬৯০।

হুগলি, দক্ষিণ ২৪ পরগণা আর হাওড়ায় যথাক্রমে এ দিন নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫৪, ৯৫ আর ১৬৮ জন।

পূর্ব বর্ধমানে উদ্বেগ বাড়ল

দক্ষিণবঙ্গের বাকি জেলার মধ্যে পূর্ব বর্ধমানে আক্রান্তের সংখ্যায় উদ্বেগজনক বৃদ্ধি দেখা গেল। কারণ এক দিনেই এই জেলায় আক্রান্ত হলেন ৪৯ জন, এখনও পর্যন্ত এই জেলার ক্ষেত্রে যা সর্বোচ্চ।

এ ছাড়া পশ্চিম মেদিনীপুরে ২১, পূর্ব মেদিনীপুরে ১৮ আর পশ্চিম বর্ধমানে আক্রান্ত হয়েছেন ১২ জন। পাশাপাশি মুর্শিদাবাদে ২০ আর নদিয়ায় ১০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

বাঁকুড়া, পুরুলিয়া আর বীরভূমে নতুন করে আক্রান্তের সংখ্যায় উদ্বেগজনক কোনো বৃদ্ধি আসেনি। করোনামুক্ত থাকার রেকর্ডটি এখনও অক্ষত রয়েছে ঝাড়গ্রামের।

উত্তরবঙ্গে কারও মৃত্যু নেই, তবে চিন্তা বাড়ছে শিলিগুড়িকে ঘিরে

গত ২৪ ঘণ্টায় উত্তরবঙ্গের কোনো জেলাতেই করোনায় মৃত্যু হয়নি কারও। তবে শিলিগুড়ি নিয়ে চিন্তা ক্রমশ বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দার্জিলিং জেলায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৭৩ জন। এর প্রায় বেশির ভাগই শিলিগুড়ির বাসিন্দা। এই জেলায় এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৯৪৫।

অন্য দিকে ৫৬ জন করোনায় আক্রান্ত হওয়ায় মালদায় এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১২১১। তবে এর মধ্যে এই জেলায় ৮০৪ জনই সুস্থ হয়ে গিয়েছেন। দার্জিলিংয়ে এখনও পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৫৮৭ জন।

আলিপুরদুয়ার আর কালিম্পং বাদে বাকি জেলাগুলোতে নতুন আক্রান্তের সন্ধান পাওয়া গেলেও, সেটা উদ্বেগজনক কিছু নয়।

নমুনা পরীক্ষার তথ্য

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ১০ হাজারের কিছু বেশি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এর ফলে এখনও পর্যন্ত মোট ৬ লক্ষ ২৭ হাজার ৪৩৮টি নমুনা পরীক্ষা হল। রাজ্যে এখন প্রতি দশ লক্ষ মানুষে ৬,৯৭২ জনের নমুনা পরীক্ষা হচ্ছে।

Continue Reading

রাজ্য

বিধায়ক-মৃত্যুতে সিআইডিকে তদন্তভার রাজ্যের, উত্তরবঙ্গে বন্‌ধ ডাকল বিজেপি

খবরঅনলাইন ডেস্ক: হেমতাবাদের (Hemtabad) বিধায়কের রহস্যমৃত্যুর ঘটনায় বিজেপি নেতৃত্ব সিবিআই তদন্তের দাবি জানালেও, রাজ্য সরকার তদন্তভার তুলে দিল সিআইডির হাতে। সিআইডির স্পেশ্যাল সুপারিনটেন্ডেন্ট পদমর্যাদার এক আধিকারিক ইতিমধ্যেই ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন। এ দিকে এই ঘটনার প্রতিবাদে মঙ্গলবার উত্তরবঙ্গ বন্‌ধের ডাক দিয়েছে বিজেপি।

সিআইডি (CID) সূত্রে খবর, ফরেনসিক বিশেষজ্ঞ এবং অটোপ্সি সার্জেনের সঙ্গে কথা বলে সোমবারই প্রাথমিক রিপোর্ট তৈরি করবেন ওই আধিকারিক।

উত্তর দিনাজপুর পুলিশের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, বিধায়কের জামার পকেটে একটি সুইসাইড নোট পাওয়া গিয়েছে। সেই নোটে দুই ব্যক্তির নাম রয়েছে এবং তাদের মৃত্যুর জন্য দায়ী করেছেন বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায়।

যদিও আত্মহত্যার তত্ত্ব মানতে চাইছে না দেবেন্দ্রনাথ রায়ের পরিবার ও বিজেপি নেতৃত্ব। তাদের দাবি, খুন হয়েছেন ওই বিধায়ক।

পকেটে সুইসাইড নোট পাওয়া গেলেই যে সেটা আত্মহত্যা নয়, সেটা স্বীকার করছেন রাজ্য পুলিশ আর সিআইডির আধিকারিকরা। প্রথমত, সুইসাইড নোটের হাতের লেখার সঙ্গে বিধায়কের হাতের লেখা মিলিয়ে দেখা প্রয়োজন।

পাশাপাশি, যে ভাবে দেহটি ঝুলছিল, তা থেকে আত্মহত্যা ছাড়াও খুনের আশঙ্কা এক্কেবারে উড়িয়ে দেওয়া যায় না। খতিয়ে দেখা হচ্ছে বিধায়কের মোবাইলের কল রেকর্ডও।

দেবেন্দ্রনাথবাবুর মৃত্যুর প্রতিবাদে এ দিন কলকাতায় মিছিল করে বিজেপি। তার পরেই উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতে মঙ্গলবার বন্‌ধের ডাক দেওয়া হয়।

উল্লেখ্য, রবিবার রাত একটা নাগাদ বেশ কয়েক জন যুবক তাঁকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায় বলে অভিযোগ করেছে দেবেন্দ্রনাথবাবুর পরিবার। তার পর রাতভর তাঁর আর কোনো খোঁজ পাওয়া যায়নি।

সোমবার সকালে খোঁজাখুঁজি শুরু হয় ওই বিধায়কের। তখনই ওই চায়ের দোকানটি থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় তাঁর দেহ উদ্ধার হয়। চায়ের দোকানটি বন্ধ ছিল।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে বিধানসভা নির্বাচনে হেমতাবাদ কেন্দ্র থেকে সিপিএমের টিকিটে জয়লাভ করেন দেবেন্দ্রনাথ রায়। বিন্দোল গ্রাম পঞ্চায়েতে পর পর তিন বার সিপিএমের প্রধান ছিলেন তিনি। ২০১৯-এর লোকসভা ভোটের পর দিল্লিতে গিয়ে বিজেপিতে যোগদান করেন তিনি।

Continue Reading

উঃ দিনাজপুর

বিজেপি বিধায়কের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার, পরিবারের দাবি খুন

বিজেপি নেতা রাহুল সিনহা বলেন, “এই খুনের পেছনে তৃণমূল রয়েছে। ওরাই খুন করে দেহকে এমন ভাবে ঝুলিয়ে দিয়েছে যাতে মনে হয় এটা আত্মহত্যা।

রায়গঞ্জ: রহস্যজনক ভাবে মৃত্যু হল উত্তর দিনাজপুরের হেমতাবাদের (Hemtabad) বিজেপি বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায়ের (Debendranath Roy)। সোমবার সকালে একটি চায়ের দোকান থেকে তাঁর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়।

রায়গঞ্জের (Raiganj) বিন্দোল পঞ্চায়েতের বালিয়া গ্রামে তাঁর আদি বাড়ি। সেখান থেকে দেড় কিলোমিটার দূরে রাস্তার ধারে অবস্থিত ওই চায়ের দোকানটি। পরিবারের দাবি, খুন করা হয়েছে বিধায়ককে। ঘটনায় সিবিআই তদন্তের দাবিও জানিয়েছেন তাঁরা। একই দাবি বিজেপিরও।

রবিবার সন্ধ্যায় আদি বাড়িতে ফিরেছিলেন তিনি। পরিবারের দাবি, রাত একটা নাগাদ বেশ কয়েক জন যুবক তাঁকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। তার পর রাতভর তাঁর আর কোনো খোঁজ পাওয়া যায়নি।

সোমবার সকালে খোঁজাখুঁজি শুরু হয় ওই বিধায়কের। তখনই ওই চায়ের দোকানটি থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় তাঁর দেহ উদ্ধার হয়। চায়ের দোকানটি বন্ধ ছিল।

পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে। যদিও খুন না আত্মহত্যা, সে বিষয়ে এখনও নিশ্চিত হতে পারছে না পুলিশ। আপাতত ময়নাতদন্ত রিপোর্ট হাতে আসার অপেক্ষা।

রায়গঞ্জের সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী দেবশ্রী চৌধুরী এই বিষয় বলেন, “দেবেনবাবুর মৃত্যু যথেষ্ট সন্দেহজনক। একজন মানুষ হাত বাঁধা অবস্থায় কখনোই আত্মহত্যা করতে পারেন না। সকলেই সন্দেহ করছে। পুলিশ সঠিক তদন্ত করে মৃত্যুর কারণ বের করুক।” 

বিজেপি নেতা রাহুল সিনহা বলেন, “এই খুনের পেছনে তৃণমূল রয়েছে। ওরাই খুন করে দেহকে এমন ভাবে ঝুলিয়ে দিয়েছে যাতে মনে হয় এটা আত্মহত্যা। মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আমার অনুরোধ, দয়া করে সিবিআই তদন্তের নির্দেশ দিন।”

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে বিধানসভা নির্বাচনে হেমতাবাদ কেন্দ্র থেকে সিপিএমের টিকিটে জয়লাভ করেন দেবেন্দ্রনাথ রায়। বিন্দোল গ্রাম পঞ্চায়েতে পর পর তিন বার সিপিএমের প্রধান ছিলেন তিনি। ২০১৯-এর লোকসভা ভোটের পর দিল্লিতে গিয়ে বিজেপিতে যোগদান করেন তিনি।

Continue Reading
Advertisement
প্রযুক্তি2 hours ago

‘মেড ইন ইন্ডিয়া’, টিকটকের পাল্টা ‘জোশ’ অ্যাপ এল বাজারে

রাজ্য3 hours ago

মৃত্যুহার কমে ৩ শতাংশে, রাজ্যে নতুন আক্রান্তের সংখ্যাও কিছুটা কমল

ক্রিকেট5 hours ago

ন্যাটওয়েস্ট ফাইনালের ১৮ বছর, টুইটে নাসির হুসেনকে ট্রোল যুবরাজের, জবাবে নাসির যা বললেন…

বিদেশ5 hours ago

প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের কবলে নেপাল, ভূমিধসে মৃত ৬০

রাজ্য6 hours ago

বিধায়ক-মৃত্যুতে সিআইডিকে তদন্তভার রাজ্যের, উত্তরবঙ্গে বন্‌ধ ডাকল বিজেপি

cbse class X result
দেশ6 hours ago

সিবিএসইর দ্বাদশ শ্রেণির ফলাফল প্রকাশিত, নেই মেধাতালিকা

দেশ6 hours ago

শক্তিপ্রদর্শন গহলৌত শিবিরের, বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার প্রস্তাব

football2
ফুটবল12 hours ago

কোভিড-পরিস্থিতিতে আসন্ন আই লিগের সব ম্যাচই কলকাতায় করার ভাবনা

কেনাকাটা

কেনাকাটা1 day ago

হ্যান্ডওয়াশ কিনবেন? নামী ব্র্যান্ডগুলিতে ৩৮% ছাড় দিচ্ছে অ্যামাজন

খবরঅনলাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস বা কোভিড ১৯ এর সঙ্গে লড়াই এখনও জারি আছে। তাই অবশ্যই চাই মাস্ক, স্যানিটাইজার ও হ্যান্ডওয়াশ।...

কেনাকাটা4 days ago

ঘরের একঘেয়েমি আর ভালো লাগছে না? ঘরে বসেই ঘরের দেওয়ালকে বানান অন্য রকম

খবরঅনলাইন ডেস্ক : একে লকডাউন তার ওপর ঘরে থাকার একঘেয়েমি। মনটাকে বিষাদে ভরিয়ে দিচ্ছে। ঘরের রদবদল করুন। জিনিসপত্র এ-দিক থেকে...

কেনাকাটা6 days ago

বাচ্চার জন্য মাস্ক খুঁজছেন? এগুলোর মধ্যে একটা আপনার পছন্দ হবেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক : নিউ নর্মালে মাস্ক পরাটাই দস্তুর। তা সে ছোটো হোক বা বড়ো। বিরক্ত লাগলেও বড়োরা নিজেরাই নিজেদেরকে বোঝায়।...

কেনাকাটা1 week ago

রান্নাঘরের টুকিটাকি প্রয়োজনে এই ১০টি সামগ্রী খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক : লকডাউনের মধ্যে আনলক হলেও খুব দরকার ছাড়া বাইরে না বেরোনোই ভালো। আর বাইরে বেরোলেও নিউ নর্মালের সব...

নজরে