হাইকোর্টের নির্দেশে সিএএ, এনআরসির প্রেক্ষিতে কিছুটা পিছু হঠল রাজ্য সরকার

Kolkata High Court
কলকাতা হাইকোর্ট। ফাইল ছবি

কলকাতা: সিএএ এবং এনআরসির বিরোধিতায় আদালতে ধাক্কা খেল রাজ্য সরকার। ফলে হাইকোর্টের নির্দেশে বেশ খানিকটা পিছু হঠতে হল তাদের।

সিএএ এবং এনআরসির বিরোধিতায় রাজ্য সরকার যে বিভিন্ন জায়গায় বিজ্ঞাপন দিয়েছে, সেগুলি অবিলম্বে প্রত্যাহার করে নিতে হবে বলে নির্দেশ দিয়েছেন কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি।

এর জবাবে রাজ্য সরকার জানিয়েছে যে তারা সব জায়গা থেকে সমস্তরকম বিজ্ঞাপন সরিয়ে নিচ্ছে। বিজ্ঞাপন দেওয়াও বন্ধ করে দিচ্ছে বলে আদালতকে জানিয়েছেন অ্যাডভোকেট জেনারেল।  

মুখ্যমন্ত্রীর মতো একটি সাংবিধানিক পদে থেকে রাষ্ট্রপতির সই করা আইনের কীভাবে বিরোধিতা করা হচ্ছে, এই মর্মে জনস্বার্থ মামলা দায়ের হয়েছিল হাইকোর্টে। পাশাপাশি, নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের বিরোধিতায় বিক্ষোভকারীদের তাণ্ডবের জেরে ক্ষতিপূরণ চেয়েও আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিল রেলও। সোমবার সেই সব মামলারই শুনানি হয়।

আরও পড়ুন গণনা শেষ না হতেই ঝাড়খণ্ডের ভাবী মুখ্যমন্ত্রীর নাম ঘোষণা তেজস্বীর

সিএএ, এনআরসির প্রেক্ষিতে এ দিন প্রধান বিচারপতি স্পষ্ট নির্দেশ দেন, সরকারি টাকায় কোথাও কোনো বিজ্ঞাপন চলবে না। ওয়েবসাইট সহ সমস্ত জায়গা থেকে সব বিজ্ঞাপন সরিয়ে ফেলার নির্দেশ দেন তিনি। একইসঙ্গে রেলকেও নির্দেশ দেন, তাণ্ডবের জেরে তাদের কত টাকা ক্ষতি হয়েছে তা জানাতে। রেল কী ব্যবস্থা নিয়েছে তার রিপোর্ট দিতে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.