মাধ্যমিকে ঝাড়গ্রামের মান রাখল শুভদীপ

0

সমীর মাহাত, ঝাড়গ্রাম: শহরের স্কুলকে ছাড়িয়ে এ বার মফস্‌সলের স্কুল থেকে মাধ্যমিকে রাজ্যে দশম স্থান পেয়ে ঝাড়গ্রামের মান রাখল শুভদীপ মাঝি। তার প্রাপ্ত নম্বর ৬৮১। ঝাড়গ্রাম-২ নম্বর বাঁধগোড়া অঞ্চলের জামশোলা গ্রামে শুভদীপের বাড়ি। বাড়ির সামনেই বাঁধগোড়া অঞ্চল উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এ বার সে মাধ্যমিক পরীক্ষা দিয়েছিল।

বিঘা দুই জমি ও সামান্য গ্রামের মুদির দোকান সামলে বাবা নিত্যানন্দ ও মা কৃষ্ণাদেবী ছেলের পড়াশোনায় কোনও খামতি রাখেননি। সে কারণেই শুভদীপ তাঁর এই সাফল্যকে বাবা-মা ও শিক্ষকদের উৎসর্গ করেছে। উল্লেখ্য, গতানুগতিক ভাবে অভিভাবকেরা জেলা শহরের “নামী” স্কুলগুলিতে ছেলে-মেয়েদের পড়াশোনায় বেশি আগ্রহ দেখিয়ে থাকেন। শুধু পড়াশোনার কারণেই অনেক গ্রাম ছেড়ে শহরে এসে বাসা বেঁধেছেন। সেই চিরাচরিত ধারণাকে এ বার নস্যাৎ করে দিল শুভদীপ।

সে জানায়, “প্রতিদিন ১২ ঘন্টা পড়াশোনা করতাম, বিভিন্ন বিষয়ের টিউশানের জন্য সাইকেলে চড়ে ঝাড়গ্রামে যেতে হয়। ভবিষ্যতে সায়েন্স বিভাগে পড়ে ডাক্তার হতে চাই”।

পাশাপাশি শুভদীপের এই সাফল্যে খুশির হাওয়া ঝাড়গ্রাম জুড়ে। ইতিমধ্যেই ঝাড়গ্রাম পুলিশের পক্ষ থেকে তাকে সংবর্ধনা দেওয়া হয়। তাঁর সম্পর্কে দাদা, প্রিয়রঞ্জন মাঝি বলেন, “ভাই খুবই ভালো রেজাল্ট করবে, তা আমরা সবাই ভেবেছি। এত বড় সাফল্য আসবে তা প্রত্যাশা করিনি। এই স্কুলে আমিও পড়াশোনা করে পোস্ট গ্রেজুয়েট হয়েছি। নিচু তলার ক্লাসে আমিও প্রথম হতাম। রাজ্য স্তরের জায়গা পাইনি। শুভদীপ তা পূরণ করে দিল”।

Shyamsundar

এ ব্যাপারে বাঁধগোড়া অঞ্চল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক উত্তম পাত্র বলেন, “ভালো ছাত্র-ছাত্রী দের উপর বাবা-মা ও শিক্ষকদের বাড়তি নজর থাকেই। শভদীপের সাফল্য আমাদের সবার গর্ব”।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন