tarak khyapa

কলকাতা: মাত্র ৫৭ বছর বয়সে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করলেন জয়দেব কেঁদুলির প্রখ্যাত বাউল তারক খ্যাপা। মঙ্গলবার মৃত্যু হয় তাঁর।

গত তিন মাস ধরেই অসুস্থ হয়ে শয্যাশায়ী ছিলেন তারকবাবু। গল ব্লাডারে টিউমার ক্রমশ ছড়িয়ে পড়ে লিভার এবং প্যানক্রিয়াসে। অগণিত ভক্ত ছাড়া নিজের স্ত্রী এবং চার সন্তানকে রেখে গেলেন তিনি।

কেঁদুলিতেই জন্ম তারকবাবুর। কেঁদুলির তমালতলা আশ্রমে সুধীরবাবার কাছে তাঁর সংগীতচর্চা শুরু। একটু বড়ো হয়ে সাধক বাউল পাগল রামদাসের শিষ্য হন তিনি। কেঁদুলি ছাড়িয়ে গোটা রাজ্য, তার পর গোটা দেশ হয়ে বিশ্বেও ছড়িয়ে পড়ে তারকবাবুর গলা।

অসাধারণ গলার সঙ্গে সঙ্গে তাঁর অনবদ্য নাচও ছিল প্রভূত জনপ্রিয়। দোতারা, ডুবকি, খোল, তবলা, বহু যন্ত্র বাজাতে পারতেন অসামান্য দক্ষতার সঙ্গে। তবে, সব কিছু ছাপিয়ে গায়ক তারকের ভাবগম্ভীর ছবিটাই সব চেয়ে উজ্জ্বল তাঁর ভক্ত এবং অনুরাগীদের মধ্যে। তাঁর প্রয়াণে বাংলার কেঁদুলি এবং গোটা বাংলায় একটি যুগের অবসান হল তা বলাই বাহুল্য।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here