winter in kolkata
শীতের সকালে আড্ডা। ছবি রাজীব বসু।

ওয়েবডেস্ক: অন্য বারের থেকে দেরিতে হলেও কলকাতা-তথা দক্ষিণবঙ্গে পারদের নিম্নগামী যাত্রা গতি বাড়িয়েছে। বুধবার সকালে কলকাতায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১৫.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। দমদমে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। উত্তরবঙ্গেও তাপমাত্রা আরও কমেছে। আগামী কয়েক দিনের পূর্বাভাসে শীতের ভাগ্য খুবই উজ্জ্বল মনে হচ্ছে। পারদের এই নিম্নগামী যাত্রা এখনই থামবে না বলেও আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।

বুধবারের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা

একবার দেখে নিই, বুধবার রাজ্যের কোথায় কত পারদ রেকর্ড করা হয়েছে।

আসানসোল – ১৫, বাঁকুড়া – ১৪.৪, ব্যারাকপুর – ১২.৫, বর্ধমান – ১৪.৮, ক্যানিং – ১৩.৮, কাঁথি – ১২, ডায়মন্ড হারবার – ১৫, দিঘা – ১৪.৫, হলদিয়া – ১৫.৭, খড়গপুর- ১২.৪, কৃষ্ণনগর – ১৩.৬, মালদা – ১৬.৯, মেদিনীপুর – ১৫.১, পানাগড় – ১৩.৩, বোলপুর- ১২.৩, বহরমপুর- ১৩.৩ উলুবেড়িয়া – ১৬, কোচবিহার – ১০.৯, জলপাইগুড়ি – ১২.৮, শিলিগুড়ি – ১১.২।

তবে এ দিনের তাপমাত্রার রেকর্ড বুঝিয়ে দিচ্ছে রাঢ়বঙ্গকে ফের পেছনে ফেলে দিয়েছে উপকূলবর্তী অঞ্চল। ফলে দক্ষিণবঙ্গের শীতলতম জায়গায় শিরোপা এ দিন কাঁথির মাথায় উঠেছে। খুব একটা পিছিয়ে ছিল না ব্যারাকপুরও।

কী কারণে তাপমাত্রার এই পতন

তাপমাত্রার এই নিম্নগামী যাত্রা এবং শীত পড়ার পেছনে তিনটে কারণ রয়েছে বলে জানিয়েছে বেসরকারি আবহাওয়া সংস্থা ওয়েদার আল্টিমা। প্রথমত উত্তর ভারতের ওপরে প্রধানত পরিষ্কার আকাশ, দ্বিতীয়ত ঝাড়খণ্ডের ওপরে একটি দুর্বল ঘূর্ণাবর্ত এবং তৃতীয়ত বঙ্গোপসাগরের ওপরে তৈরি হতে চলা একটি নিম্নচাপ।

ওয়েদার আল্টিমার কর্ণধার রবীন্দ্র গোয়ঙ্কা বলেন, “উত্তর ভারতে পরিষ্কার আকাশ থাকার ফলে উত্তুরে হাওয়া বিনা বাধায় বইছে। সেই হাওয়াকে টেনে নিয়ে পশ্চিমবঙ্গের দিকে পাঠাচ্ছে ঝাড়খণ্ডের ওই ঘূর্ণাবর্ত। পাশাপাশি তামিলনাড়ু উপকূলের কাছে তৈরি হতে চলা একটি নিম্নচাপ সেই হাওয়াকে নিজের দিকে টানছে। ফলে গোটা রাজ্যেই বাধাহীন ভাবে বইছে উত্তুরে হাওয়া।

আগামী দিনের পূর্বাভাস

ওয়েদার আল্টিমা জানাচ্ছে, আগামী কয়েক দিন তাপমাত্রা আরও কমবে সমগ্র রাজ্যেই। খাস কলকাতাতেই তাপমাত্রা ১৩ ডিগ্রির কাছাকাছি নেমে যেতে পারে। এমনটা হলে রাঢ়বঙ্গের পারদ যে ১০-১১ ডিগ্রির কাছাকাছি চলে যেতে পারে, তা বলাই বাহুল্য। অন্য দিকে পারদ পতন জারি থাকবে উত্তরবঙ্গেও। পাহাড় তো বটেই, দশের নীচে নেমে যেতে পারে সমতলের তাপমাত্রাও।

সুতরাং আগামী কয়েক দিন জোরদার শীত জারি থাকবে গোটা রাজ্যেই।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here