কলকাতা: শীত একটু কমলেও এখনও তার যথেষ্ট দাপট রয়েছে দক্ষিণবঙ্গ জুড়ে। কলকাতায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা শুক্রবারও থাকল চোদ্দো ডিগ্রি সেলসিয়াসের নীচে। এই নিয়ে টানা দেড় সপ্তাহ ধরে কলকাতার পারদ ১৪ বা নীচে থাকল, যা শীতের স্থিতিশীলতাই প্রমাণ করছে। তবে বছরের শেষ সপ্তাহে একের পর এক পশ্চিমী ঝঞ্ঝার আগমনের ফলে শীত কিছুটা স্তব্ধ হয়ে যাবে।

শুক্রবার কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৩.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। দক্ষিণবঙ্গে এ দিন দুটি জায়গায় তাপমাত্রা ছিল দশ ডিগ্রির নীচে। জায়গাগুলি হল পুরুলিয়া (৯.১ ডিগ্রি) এবং খড়গপুর (৯.৮ ডিগ্রি)। এ ছাড়া, প্রায় সর্বত্রই ঠান্ডা ছিল যথেষ্ট। উপকূলের দিঘাতেই এ দিন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১২.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

উল্লেখ্য, শীতের এই ইনিংসে এ বার কিছুটা বাধা আসতে চলেছে। সৌজন্যে পশ্চিমী ঝঞ্ঝা। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে উত্তর ভারতে তিনটে পশ্চিমী ঝঞ্ঝা হানা দেবে। এর প্রভাবে দক্ষিণবঙ্গে বাধাপ্রাপ্ত হবে উত্তুরে হাওয়া। এর মধ্যে শেষ ঝঞ্ঝাটি অত্যন্ত শক্তিশালী হবে বলে মনে করা হচ্ছে।

২৭ থেকে ২৯ ডিসেম্বর ওই শক্তিশালী পশ্চিমী ঝঞ্ঝাটি হানা দিতে পারে দেশে। এর প্রভাবে সমগ্র হিমালয় জুড়ে তুষারপাত হতে পারে। এমনকি সিকিম, অরুণাচল প্রদেশ এবং উত্তরবঙ্গেও তুষারপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। আর সমতল জুড়ে জোর বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। বৃষ্টির কিছুটা ছোঁয়া পশ্চিমবঙ্গের দিকেও চলে আসতে পারে।

ওই ঝঞ্ঝা থেকে দেশ মুক্ত হলে তবেই ফের কমবে শুরু করবে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। মনে করা হচ্ছে নতুন বছরের শুরুতে ফের জাঁকিয়ে শীত ফিরতে পারে দক্ষিণবঙ্গে। ফের একবার তাপমাত্রা নামতে পারে হুহু করে।

আরও পড়তে পারেন:

ফের কিছুটা কমল দৈনিক সংক্রমণ, কমল সক্রিয় রোগীর সংখ্যাও

পশ্চিমবঙ্গের কোন পুরসভায় ভোট কবে, এক নজরে দেখে নিন

ওমিক্রন: উত্তরপ্রদেশের নির্বাচন পিছিয়ে দেওয়ার জন্য নির্বাচন কমিশনের কাছে আর্জি জানাল এলাহাবাদ হাইকোর্ট

পশ্চিমবঙ্গের কোভিডগ্রাফ নিম্নমুখীই, কলকাতাতেও সংক্রমণ দুশোর নীচে

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন