খবরঅনলাইন ডেস্ক: এক ধাক্কায় পাঁচ ডিগ্রির ‘লাফ’ দিল কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। শুধু কলকাতাই নয়, দক্ষিণবঙ্গের বাকি জায়গা, বিশেষত পশ্চিমাঞ্চলেও একই পরিস্থিতি। ফলে, বুধবার সকালের অবস্থা দেখে অনেকেই ভাবতে পারেন শীত এ বার বিদায় নিতে চলেছে।

কিন্তু না, শীত বিদায় এখনই নিচ্ছে না। বৃহস্পতিবারই সে ফিরবে। দাপট একটু কম থাকলেও, আপাতত ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত শীত বজায় থাকবে বলেই মনে করা হচ্ছে।

বুধবার কোথায় কেমন পারদ

কলকাতায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা বুধবার ছিল ১৯.২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। শহরের উপকণ্ঠের ব্যারাকপুরে তাপমাত্রা ছিল ১৬ ডিগ্রি এবং দমদমে ১৭.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। উপকূলবর্তী দিঘায় তাপমাত্রা বেড়ে হয়েছে ২০.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ক্যানিং এবং ডায়মন্ড হারবারে তাপমাত্রা ছিল যথাক্রমে ১৯.৪ এবং ১৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

পশ্চিমাঞ্চলেও তাপমাত্রা বেড়েছে। পানাগড়ে এ দিন তাপমাত্রা ছিল ১৩.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস, আসানসোলে ১৪.৬, বাঁকুড়ায় তাপমাত্রা ছিল ১৬ ডিগ্রি, বর্ধমানে ১৬.৮ ডিগ্রি। তবে কিছুটা চমক দিয়েছে মধ্যবঙ্গের তাপমাত্রা। বহরমপুরে এ দিন সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ৯.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

এ দিকে, উত্তরবঙ্গে তাপমাত্রা স্থিতিশীল রয়েছে। দার্জিলিংয়ে তাপমাত্রা এ দিন ৩.২ ডিগ্রি ছিল। শিলিগুড়ি, জলপাইগুড়ি, কোচবিহারে তাপমাত্রা ১১-১২ ডিগ্রির মধ্যে ঘোরাফেরা করেছে।

দক্ষিণবঙ্গে কেন বাড়ল পারদ

বেসরকারি আবহাওয়া সংস্থা ওয়েদার আল্টিমা জানাচ্ছে, বুধবার দক্ষিণবঙ্গের ওপরে একটি ঘূর্ণাবর্ত অবস্থান করছে। এই ঘূর্ণাবর্তের কারণে হাওয়ার গতিমুখ এক্কেবারেই উলটোপালটা হয়ে গিয়েছে দক্ষিণবঙ্গে। বর্তমানে এখানে তিন ধরনের হাওয়ার সংমিশ্রণ ঘটছে।

উত্তর ভারত থেকে আসা শীতল বাতাস, মধ্য ভারত থেকে আসা তুলনামূলক উষ্ণ বাতাস এবং সমুদ্র থেকে আসা জলীয় বাষ্পের সংমিশ্রণের ফলে পারদ এ ভাবে বেড়ে গিয়েছে দক্ষিণবঙ্গে। এর ফলেই এ দিন ভোরের দিকে কুয়াশাও পড়েছে কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের কিছু জায়গায়।

তবে দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টির কোনো সম্ভাবনা নেই। উত্তরবঙ্গে আগামী ২৪ ঘণ্টায় অল্পস্বল্প বৃষ্টি হতে পারে।

আবহাওয়ার পরিবর্তন বৃহস্পতিবার

তবে বৃহস্পতিবার থেকেই আবহাওয়া ফের বদলে যাবে বলে মনে করা হচ্ছে। এই ব্যাপারে আশাবাদী ওয়েদার আল্টিমাও। তারা জানাচ্ছে, আগামী ২৪ ঘণ্টায় এই ঘূর্ণাবর্তটি দক্ষিণপূর্ব সরে গিয়ে বাংলাদেশের দিকে চলে যাবে। ফলে ঘূর্ণাবর্তের প্রভাবমুক্ত হবে দক্ষিণবঙ্গ।

সেই সঙ্গে, এই ঘূর্ণাবর্তটি উত্তর ভারতের শীতল বাতাসকে টেনে নিয়ে আসবে দক্ষিণবঙ্গের দিকে। এর ফলে বৃহস্পতিবার সকাল থেকে ফের শীতের অনুভূতি ফিরে আসতে পারে দক্ষিণবঙ্গে। আশা করা যায়, শুক্রবার সকালে কলকাতার তাপমাত্রা ফের ১২-১৩ ডিগ্রিতে নেমে যাবে।

তাপমাত্রায় ফেরফের চলতে থাকলেও ফেব্রুয়ারির অন্তত প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত শীত দক্ষিণবঙ্গে ভালো মতোই থাকবে, সে আশা করাই যাচ্ছে। মাঝে ফের একবার পারদ ১৬-১৭ ডিগ্রিতে উঠলেও, ফেব্রুয়ারির ১-২ তারিখে কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৩ ডিগ্রি হলেও অবাক হওয়ার কিছু থাকবে না।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

রবিবার পর্যন্ত করোনাহীন ছিল লাক্ষাদ্বীপ, পরের দু’ দিনে পজিটিভ ১৫

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন