Madan-Mitra

ওয়েবডেস্ক: প্রার্থী কেন একই বুথে একাধিকবার পরিদর্শন করছেন, এই অভিযোগ তুলে ভোটাররা বিক্ষোভ দেখালেন ভাটপাড়া উপনির্বাচনে তৃণমূল প্রার্থী মদন মিত্রকে ঘিরে। এমনকী উত্তেজিত জনতাকে সামাল দিতে গিয়ে হাতাহাতিতে জড়িয়ে পড়লেন রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রীর দেহরক্ষীরা। এর পরই পরিস্থিতি এতটাই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে যে মুড়ি-মুড়কির মতো বোমাবাজিও হয়।

নিজের নির্বাচনী কেন্দ্রের অন্তর্গত কাঁকিনাড়া হাইস্কুলের ভোটগ্রহণ কেন্দ্রে সকাল সকাল হাজির হয়েছিলেন মদন। সেখানে কেন্দ্রীয় বাহিনীর সঙ্গে এক প্রস্ত বচসায় জড়িয়ে পড়তে দেখা যায় তাঁকে। তাঁর অভিযোগ ছিল, বিজেপি প্রার্থী পবন সিংকে ভোট দিতে সাধারণ ভোটারদের উৎসাহিত করছেন কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা। এই অভিযোগেই শুরু হয়ে যায় বচসা। তবে পরিস্থিতি কিছুক্ষণের মধ্যেই শান্ত হয়। কিন্তু ফের দুপুরে একই কেন্দ্রে যেতেই তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন একশ্রেণির মানুষ।

পরিস্থিতি এমন জায়গায় পৌঁছায় যে মদনকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে থাকা উত্তেজিত জনতা তাঁকে উদ্দেশ্য করে ‘গো ব্যাক’ এবং ‘চোর’ স্লোগান তুলতে শুরু করেন। তাঁদের অভিযোগ, একই বুথে একাধিকবার পরিদর্শনে এসে বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি করতে চাইছেন তৃণমূল প্রার্থী। বিক্ষোভকারীদের কেউ কেউ মদনের উপর চড়াও হন বলেও অভিযোগ। এর পরই পরিস্থিতি সামাল দিতে এগিয়ে যান মদনের নিরাপত্তারক্ষী। তাঁদের সঙ্গেই হাতাহাতি বেঁধে যায় জনতার। জানা যায়, খবর পেয়ে পার্শ্ববর্তী এলাকাগুলি থেকেও বেশ কিছু মানুষ এসে জড়ো হন কাঁকিনাড়া হাই স্কুলে। ফলে ধন্ধুমার কাণ্ড বেঁধে যায় ঘটনাস্থলে।

[ দফা ৭ লাইভ: দেখুন এখানে ক্লিক করে ]

এর পরই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাচ্ছে দেখে স্থান ত্যাগ করেন মদন। তিনি সংবাদ মাধ্যমের কাছে অভিযোগ করেন, বিজেপি হেরে যাওয়ার ভয়েই বাইরে থেকে লোক নিয়ে উত্তেজনা সৃষ্টি করতে চাইছে। অন্য দিকে বিজেপির তরফে এ বিষয়ে ঘটনার দায় অস্বীকার করা হয়েছে।

অন্য দিকে ঘটনার খবর পেয়েই জেলা প্রশাসনের রিপোর্ট তলব করেছে নির্বাচন কমিশন। দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here