একুশের মহারণে নতুন স্লোগান প্রকাশ্যে আনল তৃণমূল

0

খবর অনলাইন ডেস্ক: ২০২১ বিধানসভা ভোটের আগে আনুষ্ঠানিক ভাবে নতুন স্লোগান প্রকাশ্যে আনল রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস।

শনিবার তৃণমূল ভবনে দলের সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন, সুখেন্দুশেখর রায়, কাকলী ঘোষদস্তিদার, রাজ্যের মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়, পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং তৃণমূল সভাপতি সুব্রত বকসি-সহ অন্যান্য দলীয় নেতৃত্বের উপস্থিতিতে এই স্লোগান উদ্বোধন হয়।

Shyamsundar

ভোটের ময়দানে যে কোনো রাজনৈতিক দলের পক্ষেই স্লোগান একটা গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। ভোটারদের কাছে দলের বার্তা পৌঁছে দেওয়ার পাশাপাশি দৃষ্টি আকর্ষণের মাধ্যমে তাঁদের মনজয়ের ব্যাপারও রয়েছে। এ বারের ভোটে তৃণমূলের ট্যাগলাইন- ‘বাংলা নিজের মেয়েকেই চায়’। যথারীতি সঙ্গে রয়েছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছবি।

কেন এই স্লোগান?

নতুন স্লোগান প্রকাশ্যে আনার অনুষ্ঠানে পার্থবাবু বলেন, “তিনি (মমতা) সকলের খবর রাখেন। ছাত্র-যুব, মহিলা, কৃষক-শ্রমিক, সমস্ত খেটে খাওয়া মানুষের খবর রাখেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বাংলাকে বোঝেন। সকলের সমস্যা সমাধানের দায়িত্ব তুলে নেন নিজের হাতে। ফলে তাঁকে নেতৃত্বে রেখেই আমরা এগোতে চাই। বাংলার মেয়েকেই আমরা আবারও চাই। গোটা বাংলার মানুষ তাঁর উপর দায়িত্ব দিয়ে যে ভাবে উপকৃত হয়েছেন, তাই বাংলা চায় তাঁর হাতেই আবার দায়িত্ব তুলে দিতে”।

এ দিন তৃণমূল কংগ্রেস নিজের টুইটার হ্যান্ডলে জানিয়েছে, “তাঁর (মমতার) জীবন ন্যায় প্রতিষ্ঠায় আপোসহীন সংগ্রামের প্রতিমূর্তি। তাঁর মানবতা মন ছুঁয়েছে বাংলার প্রতিটি মানুষের। তাঁর সারল্য ও বন্ধুতা তাঁকে করে তুলেছে বাড়ির মেয়ে। তাঁর নেতৃত্বে বাংলা এগিয়েছে প্রগতির পথে। তাই সোচ্চারে বলছেন সবাই- ‘বাংলা নিজের মেয়েকেই চায়”।

শনিবারের অনুষ্ঠানে মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায় বলেন, “নারীদের উন্নয়নে কাজ করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজ্যে কৃষিতে স্বনির্ভরতা আনতে হবে। শুধু ত্যাগ স্বীকার করে সেবা করে চলেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। যখন মহিলা সংরক্ষণের প্রশ্ন ওঠে, তখন সারা ভারতের মধ্যে নজির গড়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ৩৩ শতাংশের জায়গায় তিনি মহিলাদের জন্য ৫০ শতাংশ বরাদ্দ করে সমস্ত রেকর্ড ভেঙে দিয়েছেন”।

আরও পড়তে পারেন: ভোটের নির্ঘণ্ট প্রকাশের আগেই রাজ্যে ১২৫ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন