Connect with us

রাজ্য

ধারের টাকা ফেরত না দেওয়ার অভিযোগে অনুব্রত মণ্ডলকে খুনের হুমকি, গ্রেফতার তৃণমূল নেতা!

হুমকির অভিযোগ স্বীকার করে নিলেন তৃণমূল নেতা। কিন্তু কেন হুমকি?

Published

on

অনুব্রত মণ্ডল এবং নিত্যানন্দ চট্টোপাধ্যায়। সংগৃহীত ছবি

খবর অনলাইন ডেস্ক: বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলকে খুনের হুমকি গিয়ে গ্রেফতার দলেরই নেতা তথা গুসকরা পুরসভার প্রাক্তন কাউন্সিলার নিত্যানন্দ চট্টোপাধ্যায়। কী কারণে হুমকি?

মঙ্গলবার দুপুরে নিত্যানন্দকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তাঁর অভিযোগ, স্ত্রীর অসুখের সময় অনুব্রত তাঁর কাছ থেকে টাকা ধার নিয়েছিলেন। সেই টাকা ফেরত না পেয়েই তিনি হুমকি দিয়েছিলেন।

অন্য দিকে কাউন্সিলারের কাছ থেকে টাকা ধার নেওয়ার ঘটনা সম্পূর্ণ ভাবে অস্বীকার করেছেন অনুব্রত।

কত টাকা ধার নেওয়ার অভিযোগ?

সংবাদ প্রতিদিনের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ধৃত নিত্যানন্দবাবু জানিয়েছেন, “কেষ্ট মণ্ডলের স্ত্রীর অসুখের সময় ২০ লক্ষ টাকা ধার দিয়েছিলাম। ৩-৪ মাসের মধ্যেই সেই টাকা ফেরত দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু এখনও সেই টাকা ফেরত পাইনি। আমার কাছে টাকা ধার দেওয়ার প্রমাণ রয়েছে। তার পরেও উনি দিচ্ছেন না। তাই হুমকি দিয়েছি”।

ঘটনায় প্রকাশ, ফোন করে অনুব্রতকে খুনের হুমকি দিচ্ছিলেন নিত্যানন্দ। এই অভিযোগেই থানায় অভিযোগ দায়ের হয়। সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই এ দিন গুসকরা স্কুল মোড় থেকে নিত্যানন্দবাবুকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

যদিও টাকা ধার নেওয়ার বিষয়টি সম্পূর্ণ অস্বীকার করে অনুব্রত জানিয়েছেন, “ওর কাজই হুমকি দিয়ে বেড়ানো। ওর লাইসেন্স এবং বিনা লাইসেন্সে আগ্নেয়াস্ত্র রয়েছে। আমি ওর কাছ থেকে টাকা ধার নিইনি”।

অন্য দিকে টাকা ধার দেওয়ার দাবিতে অনড় নিত্যানন্দবাবু। তিনি সাফ জানিয়েছেন, “আমার টাকা ফেরত চাই-ই। পরেও টাকা চাইতে যাব”।

আরও পড়তে পারেন: কৃষি বিলের বিরোধিতায় গান্ধী মূর্তির পাদদেশে মহিলা তৃণমূলের বিক্ষোভ

রাজ্য

জেপি নাড্ডাকে একহাত নিলেন অধীররঞ্জন চৌধুরী

এক বছর হয়ে গিয়েছে, এখনও সিএএ বাস্তবায়নে বিধি তৈরি করতে পারেনি কেন্দ্রীয় সরকার!

Published

on

জেপি নাড্ডা এবং অধীররঞ্জন চৌধুরী। প্রতীকী ছবি

খবর অনলাইন ডেস্ক: পশ্চিমবঙ্গের প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি এবং লোকসভায় কংগ্রেস দলনেতা অধীররঞ্জন চৌধুরী (Adhir Ranjan Chowdhury) মঙ্গলবার একহাত নিলেন বিজেপি সভাপতি জেপি নাড্ডাকে। সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (CAA) নিয়ে নাড্ডার বিরুদ্ধে বাংলার জনগণকে বিভ্রান্ত করার অভিযোগ করলেন অধীর।

কোভিড মহামারির (Covid pandemic) কারণে সিএএ বাস্তবায়নে দেরি হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন নাড্ডা। পর দিনই সেই মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে এই ইস্যুটি নিয়ে রাজনীতি করার অভিযোগ তুললেন অধীর।

পশ্চিমবঙ্গে সিএএ নিয়ে ফের নতুন করে বিতর্ক উসকে দিয়েছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা (JP Nadda)।

বিজেপি সভাপতি গত সোমবার শিলিগুড়িতে একটি সভায় বলেছিলেন বলেন, সিএএ অবশ্যই কার্যকর হবে। এখন নিয়ম-কানুন তৈরি হচ্ছে। করোনার কারণে কিছুটা থমকে গিয়েছে। করোনা সংকট কেটে গেলেই সাধারণ মানুষ এর সুবিধা পাবেন।

নাড্ডা আরও বলেন, সিএএ সংসদে অনুমোদিত হওয়ার পর আইনে পরিণত হয়েছে। বিজেপি এই আইন রূপায়ণে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

এমন পরিস্থিতিতে বিজেপির নেতৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকারকে নিশানা করে অধীর বলেন, এক বছর কেটে গিয়েছে, কিন্তু সরকার সিএএ বাস্তবায়নের জন্য বিধি তৈরি করতে পারেনি। পাশাপাশি তিনি বিজেপির বিরুদ্ধে এই ইস্যু নিয়ে রাজনীতি করার এবং পশ্চিমবঙ্গের জনগণকে বিভ্রান্ত করার অভিযোগ তুলেছেন।

উল্লেখ্য, গতকাল নাড্ডা বলেন, “কোভিড -১৯ মহামারির কারণে এর (সিএএ) বাস্তবায়ন বিলম্বিত হয়েছে। তবে পরিস্থিতি ধীরে ধীরে উন্নতির সঙ্গেই বাস্তবায়নের কাজ শুরু হয়েছে। বিধিগুলি এখনই তৈরি করা হচ্ছে এবং খুব শীঘ্রই সিএএ বাস্তবায়িত হবে। এই আইনের আওতায় সমস্ত যোগ্য ব্যক্তি অবশ্যই নিশ্চিত ভাবে ভারতীয় নাগরিকত্ব পাবেন”।

আরও পড়তে পারেন: প্রত্যেক দেশবাসীর কাছে টিকা পৌঁছানোর জন্য চেষ্টা চলছে: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

Continue Reading

রাজ্য

এই প্রথম রাজ্যে এক দিনে আক্রান্ত ৪ হাজার, বাড়ছে সুস্থতাও

দৈনিক সুস্থতার সংখ্যায় রেকর্ড তৈরি হল রাজ্যে।

Published

on

coronavirus west bengal

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আপাতত দৃষ্টিতে খুব উদ্বেগজনক ছবি। কিন্তু সব কিছুর মধ্যেই স্বস্তির কিছু চিহ্নও থাকে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের তরফে যে কোভিড-রিপোর্ট প্রকাশিত হয়েছে, তাতে একদম স্বস্তির কিছু নেই, সেটাও না। যেমন, দৈনিক সংক্রমণের হারটি এখনও ঊর্ধ্বগামী হলেও, গত কয়েক দিনের তুলনায় একটু থিতু হয়েছে বলে মনে হচ্ছে।

এ ছাড়া, দৈনিক সুস্থতার সংখ্যাটাও ধীরে ধীরে বাড়তে শুরু করেছে। কলকাতা আর উত্তর ২৪ পরগণায় ফের নতুন আক্রান্তের সংখ্যার সঙ্গে পাল্লা দিচ্ছে সুস্থতা।

রাজ্যের কোভিড-তথ্য

গত ২৪ ঘণ্টায় পশ্চিমবঙ্গে নতুন করে কোভিডে (Covid 19) আক্রান্ত হয়েছেন ৪,০২৯ জন। এই প্রথম, রাজ্যে এক দিনে চার হাজারের বেশি মানুষ আক্রান্ত হলেন। এর ফলে রাজ্যে মোট কোভিডরোগীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৩ লক্ষ ২৯ হাজার ৫৭ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৩,৩৮২ জন। এখনও পর্যন্ত রাজ্যে এটাই দৈনিক সুস্থতার সংখ্যায় রেকর্ড। রাজ্যে মোট কোভিডজয়ীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২ লক্ষ ৮৭ হাজার ৭০৭। নতুন করে আরও ৬১ জনের মৃত্যু হওয়ায় রাজ্যে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৬,১৮০। রাজ্যে মৃত্যুহার সামান্য কমে বর্তমানে ১.৮৮ শতাংশে রয়েছে।

রাজ্যে বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৩৫ হাজার ১৭০ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ৫৬৮ জন সক্রিয় রোগী বেড়েছে রাজ্যে। উল্লেখ্য, রবিবার সক্রিয় রোগী বেড়েছিল আটশোরও বেশি। সোমবার বেড়েছিল ৬৫৭। অর্থাৎ সক্রিয় রোগীর বৃদ্ধিটা একটু কমেছে। সুস্থতার হার রাজ্যে বর্তমানে রয়েছে ৮৭.৪৩ শতাংশ।

সংক্রমণের হার অপরিবর্তিত

টেস্টের সংখ্যা ধীরে ধীরে বাড়ছে। গত তিন সপ্তাহের মধ্যে সব থেকে বেশি নমুনা পরীক্ষা মঙ্গলবারই হয়েছে রাজ্যে। এর ফলে দৈনিক সংক্রমণের হার কিছুটা থিতু হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। গত এক সপ্তাহ ধরে এই হারটা লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছিল।

গত ২৪ ঘণ্টায় ৪৩ হাজার ৭৬২টি নমুনার পরীক্ষা হয়েছে। এর বিচারে দেখতে গেলে সংক্রমণের হার ছিল ৯.২০ শতাংশ। রাজ্যে এখনও পর্যন্ত মোট ৪০ লক্ষ ৭৮ হাজার ৬৫১টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এর বিপরীতে আক্রান্ত হয়েছেন ৮.০৭ শতাংশ মানুষ।

হাসপাতাল শয্যা-তথ্য

বর্তমানে রাজ্যে সরকারি এবং বেসরকারি মিলিয়ে মোট ৯৩টি হাসপাতালে কোভিড চিকিৎসা হচ্ছে। রাজ্য জুড়ে মোট ১২ হাজার ৭৫১টি শয্যা চিকিৎসার জন্য চিহ্নিত রয়েছে। এর মধ্যে ৩৭.৮৫ শতাংশ শয্যা বর্তমানে ভরতি রয়েছে।

জুলাইয়ে ৪২ শতাংশেরও বেশি শয্যা ভরতি ছিল। এই তথ্যে বোঝা যাচ্ছে যে রাজ্যের অধিকাংশ কোভিডরোগীর চিকিৎসা বাড়িতে হচ্ছে।

কলকাতা, উত্তর ২৪ পরগণায় সুস্থতাও বাড়ছে

পর পর দু’ দিন কলকাতায় সক্রিয় রোগী কিছুটা কমল। অন্য দিকে দৈনিক সংক্রমণের উত্তর ২৪ পরগণা কলকাতার থেকে ওপরে থাকলেও সেখানেও পাল্লা দিয়ে বাড়ছে সুস্থতা।

কলকাতার গত ২৪ ঘণ্টায় ৮০৯ জন নতুন করে কোভিডে আক্রান্ত হলেও ৮০৪ জন সুস্থ হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ১৭ জনের। অন্য দিকে উত্তর ২৪ পরগণা ৮৭১ জন কোভিডে আক্রান্ত হয়েছেন। সুস্থ হয়েছেন ৮৪০ জন। মৃত্যু হয়েছে ১৩ জনের।

কলকাতায় এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৭১ হাজার ৪৬২ জন। উত্তর ২৪ পরগণায় মোট আক্রান্ত ৬৬ হাজার ৫০৯। কলকাতায় বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৭,৩৩১ জন এবং উত্তর ২৪ পরগণায় ৭,২১৯।

কলকাতা আর উত্তর ২৪ পরগণায় বর্তমানে সুস্থ হয়ে ওঠা মানুষের সংখ্যা যথাক্রমে ৬২ হাজার ১১২ এবং ৫৭ হাজার ৮৯৩।

পড়শি তিন জেলার পরিস্থিতি স্থিতিশীল

হাওড়া, হুগলি আর দক্ষিণ ২৪ পরগণার কোভিড পরিস্থিতি অনেকটাই স্থিতিশীল হয়েছে। তবে দক্ষিণ ২৪ পরগণায় এ দিন সুস্থ হওয়া মানুষের সংখ্যা কম হওয়ায় এই জেলায় ব্যাপক ভাবে বেড়েছে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা।

দক্ষিণ ২৪ পরগণায় নতুন করে ২২৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন, সুস্থ হয়েছেন মাত্র ৫৫ জন। হাওড়ায় নতুন করে ২১১ জন আক্রান্ত হয়েছেন, সুস্থ হয়েছেন ২৯৭ জন। অন্য দিকে হুগলিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ২৪৭ জন। সুস্থ হয়েছেন ২৩১ জন।

আরও ছয় জেলায় আক্রান্ত শতাধিক

কলকাতা ও তার পড়শি জেলাগুলির থেকে রাজ্যের অন্য কয়েকটি জেলার পরিস্থিতি বেশি মাত্রার উদ্বেগজনক হয়ে উঠেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ছ’টা জেলায় নতুন করে শতাধিক মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন।

এর মধ্যে সব থেকে বেশি আক্রান্তের খোঁজ মিলেছে পশ্চিম মেদিনীপুরে (২২৪)। এর পর রয়েছে নদিয়া (১৫৬), দার্জিলিং (১৪৯), জলপাইগুড়ি (১৪৩), পূর্ব মেদিনীপুর (১৩৯) এবং পশ্চিম বর্ধমান (১২০)।

তবে একটা স্বস্তির খবরও কিন্তু রয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যের ২৩টা জেলার মধ্যে ন’টা জেলায় সক্রিয় রোগী কমেছে। কলকাতা ছাড়াও এই জেলাগুলি হল কোচবিহার, আলিপুরদুয়ার, উত্তর দিনাজপুর, মালদা, বাঁকুড়া, ঝাড়গ্রাম, পূর্ব মেদিনীপুর এবং হাওড়া। সোমবার মাত্র চারটে জেলায় সক্রিয় রোগী কমেছিল।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

প্রত্যেক দেশবাসীর কাছে টিকা পৌঁছানোর জন্য চেষ্টা চলছে: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

Continue Reading

রাজ্য

ডাক্তারি পড়তে আগ্রহীদের জন্য সুখবর দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

রাজ্যে সব মিলিয়ে চার হাজার মেডিক্যাল ছাত্র-ছাত্রীর পড়ার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

Published

on

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ছবি: ফেসবুক থেকে

খবর অনলাইন ডেস্ক: পশ্চিমবঙ্গে এমবিবিএস (MBBS) পড়ার আসন বাড়ল। মঙ্গলবার এই ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)।

এ দিন টুইটারে মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেন, রাজ্যে সব মিলিয়ে চার হাজার মেডিক্যাল ছাত্র-ছাত্রীর পড়ার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

তিনি জানিয়েছেন, পুরুলিয়া মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে (Purulia Govt MCH) এই প্রথম ব্যাচের এমবিবিএস পড়ুয়াদের পঠনপাঠন শুরু হচ্ছে। ১০০টি এমবিবিএস আসন নিয়ে সূচনা হচ্ছে এই ব্যাচের। পাশাপাশি দুর্গাপুরের গৌরীদেবী মেডিক্যাল কলেজে (Gouri Devi Medical College) আরও ১৫০টি আসন বাড়ানো হচ্ছে।

প্রতি বছরই রাজ্যের অনেক ডাক্তারি পড়ুয়াকে ভিন রাজ্যে পড়তে যেতে হয়। আবার যোগ্যতা থাকা সত্ত্বেও ভিন রাজ্যে যেতে না পারার কারণে অনেকই ডাক্তারি পড়ার স্বপ্ন পূরণ হয় না। যে কারণে, বেশ কিছুদিন ধরেই চিকিৎসকদের নানা সংগঠন এমবিবিএস পড়ার আসন বাড়ানোর দাবি তুলতে থাকে। ফলে রাজ্যে আসন সংখ্যা বাড়ানো হলে সেই সমস্যা অনেকটাই লাঘব হবে।

প্রসঙ্গত, কয়েক দিন আগেই রাজ্যের স্বাস্থ্যক্ষেত্র আরও শক্তিশালী করার স্বার্থে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কোভিড হাসপাতালগুলিতে আরও নার্স নিযুক্ত করার নির্দেশ দেন মুখ্যমন্ত্রী। রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, শীঘ্রই ২৪৭৫ জন নার্স বাড়ানো হবে। আগামী কয়েক দিনের মধ্যেই তাঁদের নিয়োগ করা হচ্ছে। বিস্তারিত পড়ুন এখানে: রাজ্যে কোভিড টেস্টের খরচ কমছে

Continue Reading

Amazon

Advertisement
দেশ1 hour ago

বিহারে গোরক্ষপুর-কলকাতা পুজো স্পেশাল ট্রেনের দু’টি কামরা বেলাইন, অল্পের জন্য রক্ষা

দুর্গা পার্বণ2 hours ago

দুর্গোৎসব বাংলাদেশে: করোনা কেড়ে নিয়েছে বরদেশ্বরী কালীমন্দিরের দুর্গাপুজোর উৎসব

রাজ্য2 hours ago

জেপি নাড্ডাকে একহাত নিলেন অধীররঞ্জন চৌধুরী

coronavirus west bengal
রাজ্য2 hours ago

এই প্রথম রাজ্যে এক দিনে আক্রান্ত ৪ হাজার, বাড়ছে সুস্থতাও

দেশ4 hours ago

প্রত্যেক দেশবাসীর কাছে টিকা পৌঁছানোর জন্য চেষ্টা চলছে: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

রাজ্য5 hours ago

ডাক্তারি পড়তে আগ্রহীদের জন্য সুখবর দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

দেশ6 hours ago

আজ থেকে ৩৯২টি উৎসব স্পেশাল ট্রেন, দেখে নিন পূর্ণাঙ্গ তালিকা

দেশ6 hours ago

‘বালিয়া গুলিচালনা’য় অভিযুক্তকে সমর্থনের জন্য বিজেপির শোকজ নোটিশ বিধায়ককে

দেশ12 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ৪৬৭৯০, সুস্থ ৬৬৩৯৯

দেশ7 hours ago

কোভিড মহামারিতে বিহার ভোটে খরচের ঊর্ধ্বসীমা বাড়ল ১০ শতাংশ

দেশ6 hours ago

আজ থেকে ৩৯২টি উৎসব স্পেশাল ট্রেন, দেখে নিন পূর্ণাঙ্গ তালিকা

ক্রিকেট2 days ago

লাইভ সাক্ষাৎকারে নিজের বাতকর্মের আওয়াজ রেকর্ডিং করে শোনালেন ডেভিড ওয়ার্নার!

দেশ2 days ago

আসন্ন শীতে করোনা সংক্রমণের ‘দ্বিতীয় ঢেউ’-এর সম্ভাবনা অস্বীকার করছেন না বিশেষজ্ঞ কমিটির প্রধান

ক্রিকেট3 days ago

শিখর ধাওয়ানের শতরানে চেন্নাইয়ের বিরুদ্ধে নাটকীয় জয় দিল্লির

কলকাতা2 days ago

বন্দুকওয়ালা দাঁ বাড়িতে সন্ধিপূজার সময় পুরুষ সদস্যরা নৈবেদ্য সাজান

durga
রাজ্য1 day ago

রাজ্যের সব পুজো প্যান্ডেল ‘নো এন্ট্রি জোন’, ঐতিহাসিক রায় কলকাতা হাইকোর্টের

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 weeks ago

মেয়েদের কুর্তার নতুন কালেকশন, দাম ২৯৯ থেকে শুরু

খবর অনলাইন ডেস্ক: পুজো উপলক্ষ্যে নতুন নতুন কুর্তির কালেকশন রয়েছে অ্যামাজনে। দাম মোটামুটি নাগালের মধ্যে। তেমনই কয়েকটি রইল এখানে। প্রতিবেদন...

কেনাকাটা2 weeks ago

‘এরশা’-র আরও ১০টি শাড়ি, পুজো কালেকশন

খবর অনলাইন ডেস্ক : সামনেই পুজো আর পুজোর জন্য নতুন নতুন শাড়ির সম্ভার নিয়ে হাজর রয়েছে এরশা। এরসার শাড়ি পাওয়া...

কেনাকাটা3 weeks ago

‘এরশা’-র পুজো কালেকশনের ১০টি সেরা শাড়ি

খবর অনলাইন ডেস্ক : পুজো কালেকশনে হ্যান্ডলুম শাড়ির সম্ভার রয়েছে ‘এরশা’-র। রইল তাদের বেশ কয়েকটি শাড়ির কালেকশন অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন...

কেনাকাটা3 weeks ago

পুজো কালেকশনের ৮টি ব্যাগ, দাম ২১৯ টাকা থেকে শুরু

খবর অনলাইন ডেস্ক : এই বছরের পুজো মানে শুধুই পুজো নয়। এ হল নিউ নর্মাল পুজো। অর্থাৎ খালি আনন্দ করলে...

কেনাকাটা3 weeks ago

পছন্দসই নতুন ধরনের গয়নার কালেকশন, দাম ১৪৯ টাকা থেকে শুরু

খবর অনলাইন ডেস্ক : পুজোর সময় পোশাকের সঙ্গে মানানসই গয়না পরতে কার না মন চায়। তার জন্য নতুন গয়না কেনার...

কেনাকাটা4 weeks ago

নতুন কালেকশনের ১০টি জুতো, ১৯৯ টাকা থেকে শুরু

খবর অনলাইন ডেস্ক : পুজো এসে গিয়েছে। কেনাকাটি করে ফেলার এটিই সঠিক সময়। সে জামা হোক বা জুতো। তাই দেরি...

কেনাকাটা4 weeks ago

পুজো কালেকশনে ৬০০ থেকে ১০০০ টাকার মধ্যে চোখ ধাঁধানো ১০টি শাড়ি

খবর অনলাইন ডেস্ক: পুজোর কালেকশনের নতুন ধরনের কিছু শাড়ি যদি নাগালের মধ্যে পাওয়া যায় তা হলে মন্দ হয় না। তাও...

কেনাকাটা4 weeks ago

মহিলাদের পোশাকের পুজোর ১০টি কালেকশন, দাম ৮০০ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক : পুজো তো এসে গেল। অন্যান্য বছরের মতো না হলেও পুজো তো পুজোই। তাই কিছু হলেও তো নতুন...

কেনাকাটা1 month ago

সংসারের খুঁটিনাটি সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে এই জিনিসগুলির তুলনা নেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক : নিজের ও ঘরের প্রয়োজনে এমন অনেক কিছুই থাকে যেগুলি না থাকলে প্রতি দিনের জীবনে বেশ কিছু সমস্যার...

কেনাকাটা1 month ago

ঘরের জায়গা বাঁচাতে চান? এই জিনিসগুলি খুবই কাজে লাগবে

খবরঅনলাইন ডেস্ক : ঘরের মধ্যে অল্প জায়গায় সব জিনিস অগোছালো হয়ে থাকে। এই নিয়ে বারে বারেই নিজেদের মধ্যে ঝগড়া লেগে...

নজরে