TMC MLA

শুভদীপ চৌধুরী, পুরুলিয়া: দক্ষিণ-পূর্ব রেলের বহুদিনের চিন্তাভাবনা আদ্রা ডিভিশনের আদ্রা রেলস্টেশন সংলগ্ন বেআইনি দোকানগুলি উচ্ছেদ করে আদ্রা রেলস্টেশনকে মডেল স্টেশনরূপে তৈরি করা। এই উদ্দেশ্য আদ্রা রেলস্টেশন সংলগ্ন দোকানগুলির  মালিকদের জায়গা খালি করার নোটিশ দেন রেল কর্তৃপক্ষ। রেলের এহেন নোটিশের বিরুদ্ধে সম্মুখসমরে নেমে পড়লেন দুই তৃণমূল বিধায়ক।

গত ১২ নভেম্বর এই বিষয়ে দোকানিদের ৭ দিনের মধ্যে দোকান উঠিয়ে নেওয়ার নোটিশ দেন রেল কর্তৃপক্ষ। সেই হিসাবে উচ্ছেদের সময় আগামী ১৯ নভেম্বর, সোমবার। তার আগের দিন, অর্থাৎ রবিবার রেলশহর আদ্রায় এই নোটিশ জারির বিরুদ্ধে কাশীপুর তৃণমূল বিধায়ক স্বপন বেলথরিয়ার ও রঘুনাথপুর বিধায়ক পূর্ণচন্দ্র বাউরির নেতৃত্বে আদ্রা তৃণমূল নেতা ধনঞ্জয় চৌবে-সহ অন্যান্য স্থানীয় নেতা ও দোকানিরা মিলে এক প্রতিবাদ মিছিলে যোগদান করেন আদ্রা বিদ্যাসাগর বিদ্যাপীঠ স্কুলের সামনে থেকে।

এ দিনের এই মিছিলে তৃণমূল বিধায়ক স্বপন বেলথরিয়া বলেন, “অপদার্থ ডিআরএম দূর হঠো “। এ ছাড়াও তিনি বলেন, দোকানিদের পুনর্বাসনের ব্যবস্থা না হলে এই উচ্ছেদ কোনো ভাবেই তাঁরা মেনে নেবেন না। একই সঙ্গে রেলের উদ্দেশে হুঁশিয়ারি দেন, পুনর্বাসন না দিলে তৃণমূল আরও বৃহত্তর আন্দোলনে নামবে আগামী দিনে।

এ দিন তৃণমূলের তরফে আদ্রা ডিভিশনের রেল প্রবন্ধক শরদকুমার শ্রীবাস্তবের কাছে স্মারকলিপিও দেন তৃণমূল নেতৃত্ব ।
যদিও রেলের কর্তৃপক্ষের তরফে জানানো হয়, জায়গাটি রেলের। তাই কোনো রকম মিটিং-মিছিলে এই উচ্ছেদ আটকাবে না। সোমবার থেকে রেলস্টেশন সংলগ্ন দোকানগুলি উচ্ছেদের কাজ শুরু হবে ।

আরও পড়ুন: জাতীয় স্কুল ব্যাডমিন্টন প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার সুযোগ পেল জলপাইগুড়ির অষ্টমশ্রেণির ছাত্র!

এখন দেখার, সোমবার রেলের চ্যালেঞ্জের বিরুদ্ধে কী ব্যবস্থা নেন রাজ্যের শাসক দলের নেতৃত্ব।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here