Homeরাজ্যউঃ দিনাজপুরচোপড়ার ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ তৃণমূল বিধায়ক হামিদুল রহমানের, ধৃত জেসিবি যেন গ্রামের ‘প্রশাসক’

চোপড়ার ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ তৃণমূল বিধায়ক হামিদুল রহমানের, ধৃত জেসিবি যেন গ্রামের ‘প্রশাসক’

প্রকাশিত

চোপড়ার সাম্প্রতিক ঘটনায় রাজ্য রাজনীতি তোলপাড় হওয়ার পর সোমবার চোপড়ার তৃণমূল বিধায়ক হামিদুল রহমান দুঃখপ্রকাশ করেছেন। ঘটনার পর তাঁর মন্তব্য নিয়েই রাজনৈতিক মহলে নানা আলোচনা হয়েছিল। হামিদুল বলেন, ‘‘যা হয়েছে তা একদমই ঠিক হয়নি। আমি মেনে নিচ্ছি। ওই জায়গায় জাতপাত সংক্রান্ত সমস্যা হলে সালিশি সভা হয়। একে আমি বা আমার দল একদমই সমর্থন করি না। আমার নামে অপপ্রচার হচ্ছে যে, আমি নাকি বলেছি, ‘মুসলিম রাষ্ট্রে এই ধরনের ঘটনা ঘটে’। আমি ‘মুসলিম রাষ্ট্র’ কথাটি মুখেই আনিনি। বিরোধীরা আমার নামে অপপ্রচার করছে। আমার মন্তব্যের ভুল ব্যাখ্যা দেওয়া হচ্ছে।’’

চোপড়ার ঘটনা নিয়ে ইতিমধ্যেই কেন্দ্রীয় বিজেপি নেতৃত্ব সরব হয়েছেন। বিজেপির জাতীয় সভপতি জেপি নড্ডা এক্স হ্যান্ডেলে লিখেছেন, ‘‘পশ্চিমবঙ্গের একটি ভয়ঙ্কর ভিডিয়ো প্রকাশ্যে এসেছে, যা বর্বরতার কথা মনে করিয়ে দেয়। আরও খারাপ লাগছে যে তৃণমূলের বিধায়ক এবং ক্যাডারেরা বিষয়টিকে মান্যতা দিচ্ছেন। সন্দেশখালি হোক, উত্তর দিনাজপুর হোক বা অন্য কোনও জায়গা, দিদির পশ্চিমবঙ্গ মহিলাদের জন্য নিরাপদ নয়।’’

সাংসদ কঙ্গনা রানাউতও এই ঘটনার তীব্র সমালোচনা করেছেন। বালুরঘাটের সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী সুকান্ত মজুমদারও সমালোচনার সুরে কথা বলেছেন।

জেসিবি কে?

এদিকে, মারধরের ঘটনায় জেসিবি নামে এক তৃণমূল নেতাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাঁর আসল নাম তাজমুল। চোপড়ার লক্ষ্মীপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের বাসিন্দারা জানান, গোটা গ্রামে তাজমুলই ‘প্রশাসক’ হিসেবে পরিচিত। তিনি বিধায়ক হামিদুল রহমানের ঘনিষ্ঠ এবং লক্ষ্মীপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের তৃণমূলের কোর কমিটির চেয়ারম্যান। গ্রামবাসীদের অভিযোগ, সেই সুবাদেই এলাকায় চলত জেসিবি-র দাপট। তাঁর ভয়ে পুলিশ প্রশাসন এবং সংবাদমাধ্যমের সামনে মুখ খুলতে ভয় পেতেন সবাই।

গত শনিবার সালিসি সভায় তালিবানি কায়দায় অত্যাচারের দৃশ্য এক ব্যক্তি মোবাইলে বন্দি করেছিলেন এবং সামাজিক মাধ্যমে পোস্ট করেছিলেন। সেখানকার বাসিন্দারা তা শেয়ারও করেছিলেন। কিন্তু সূত্রের খবর, জেসিবি-র কানে বিষয়টি পৌঁছতেই যে ব্যক্তি ভিডিয়ো করেছিলেন, তিনি গ্রামছাড়া হয়ে যান। যাঁরা সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার করেছিলেন, তাঁরাও ভিডিয়োটি তুলে নেন।

এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে গ্রামবাসীদের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে এবং প্রশাসনের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে।

বিধানসভা চত্বরে অবস্থান শুরু করল বিজেপি

কোচবিহার ও চোপড়া ঘটনার প্রতিবাদে বিধানসভার সামনে ধর্নায় বসেন বিজেপির মহিলা বিধায়করা। বিজেপি বিধায়ক ও মহিলা মোর্চা নেত্রী অগ্নিমিত্রা পাল এই ধর্নার কর্মসূচির নেতৃত্ব দেন। তাদের দাবি, শাসক দলের নেতৃত্বে রাজ্যে সন্ত্রাস চলছে। অবিলম্বে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানিয়েছে বিজেপি। অন্যদিকে, রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস চোপড়ার ঘটনায় রাজ্যের পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। রাজভবন সূত্রে খবর, এই ঘটনায় তিনি নভান্নার স্বরাষ্ট্র দফতর থেকে রিপোর্ট তলব করেছেন।

সাম্প্রতিকতম

NEET-UG 2024: প্রশ্নপত্র ফাঁসের অন্যতম পাণ্ডা এবং দুই ‘সল্ভার’ এমবিবিএস ছাত্রকে গ্রেফতার করল সিবিআই

খবর অনলাইন ডেস্ক: ডাক্তারি প্রবেশিকা পরীক্ষা নিট-ইউজি (NEET-UG 2024) প্রশ্নপত্র ফাঁসের অন্যতম পাণ্ডা এবং দুই...

তৃণমূলের শহিদ দিবসে কলকাতার একাধিক রাস্তায় যান নিয়ন্ত্রণ, পথে বেরোতে হলে জেনে নিন বিস্তারিত

তৃণমূলের শহিদ দিবস উপলক্ষে কলকাতার বিভিন্ন রাস্তায় যানজটের আশঙ্কা রয়েছে। কলকাতা পুলিশ আগেভাগেই বিশেষ ব্যবস্থা নিয়েছে। রবিবার ধর্মতলা ও আশপাশের এলাকায় যান নিয়ন্ত্রণ থাকবে।

কারফিউতেও জারি মৃত্যু, ঢাকায় অন্তত ৭ জন নিহত

ঢাকা, বাংলাদেশ: কারফিউ সত্ত্বেও ঢাকায় হিংসার ঘটনা ঘটেছে, যার ফলে অন্তত ৭ জন নিহত হয়েছেন। এই পরিস্থিতিতে শহরের বিভিন্ন স্থানে উত্তেজনা বিরাজ করছে এবং নিরাপত্তা বাহিনী কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ করছে।

দীর্ঘ সময় ধরে বসে বসে একটানা কাজ, পিঠের ব্যথায় কাতর? কী খাবেন, কী বলছে গবেষণা

আজকাল বেশির ভাগ মানুষ একটানা বসে বসে এসির ঠান্ডা ঘরে কাজ করে। কাজের ব্যস্ততা...

আরও পড়ুন

সালিশি সভায় পালিয়ে বিয়ের শাস্তি, চোপড়ায় যুগলকে রাস্তায় ফেলে মার, গ্রেফতার তৃণমূল নেতা

উত্তর দিনাজপুর: চোপড়া ব্লকের বাংলাদেশ সীমান্তবর্তী লক্ষ্মীপুর পঞ্চায়েত এলাকায় এক সালিশি সভায় যুগলকে তালিবানি...

দফায় দফায় রণক্ষেত্র কালিয়াগঞ্জ, খোঁজ নিলেন রাজ্যপাল

কলকাতা: কালিয়াগঞ্জের ঘটনায় উদ্বিগ্ন রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস! মঙ্গলবার কার্যত রণক্ষেত্রের আকার নিয়েছিল এলাকা।...

পঞ্চায়েত ভোটের টিকিট নিয়ে বচসা, গুলিবিদ্ধ হয়ে চোপড়ায় মৃত ২ তৃণমূল কর্মী

পঞ্চায়েত নির্বাচনের টিকিট পাওয়াকে কেন্দ্র করে রক্তারক্তি কাণ্ড। বৃহস্পতিবার প্রাণ গেল দুই তৃণমূল কর্মীর। এলোপাথাড়ি গুলিতে তৃণমূলের আরও কয়েক জন আহত...
বাড়তি মেদ ঝরানোর নয়া ট্রেন্ড ‘ওয়াটার ফাস্টিং’ কী? মানসিক স্বাস্থ্য ভাল রাখার ৮ টি অভ্যাস