Santragachhi rail foot over bridge

কলকাতা: গত ২৩ অক্টোবর ট্রেনের বিভ্রান্তিকর সময়সূচি ঘোষণার জেরে দুর্ঘটনা ঘটে যায় সাঁতরাগাছি স্টেশনের ফুটওভারব্রিজে। মৃত্যু হয় দুই যাত্রীর। ওই ঘটনার তদন্তের কথা আগেই ঘোষণা করেছেন রেল কর্তৃপক্ষ। তবে রাজ্যের তরফেও ঘটনার কারণ প্রকৃত কারণ অনুসন্ধানে বিশেষ তদন্ত চলছে। এক দিকে রেলের বিরুদ্ধে জিআরপির এফআইআর দায়ের অন্য দিকে রাজ্যের পৃথক তদন্তে যথেষ্ট চাপে পূর্বরেল।

গত মঙ্গলবার রেড রোডে চলছিল দুর্গাপুজোর কার্নিভাল। ওই অনুষ্টানে উপস্থিত ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সে দিন সন্ধ্যায় আচমকা দুর্ঘটনার শিকার হয় ট্রেন ধরার অপেক্ষায় থাকা অসংখ্য যাত্রী। তবে দুর্ঘটনার খবর পাওয়া মাত্রই ঘটনাস্থলে পৌঁছান মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর সঙ্গে ছিলেন পুর ও নগরোন্নয়নমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম এবং মুখ্যসচিব মলয় দে। সেখানে গিয়ে তিনি মৃত দুই ব্যক্তির পরিবারকে পাঁচ লক্ষ টাকা আর্থিক অনুদানের কথা ঘোষণা করেন।

একই সঙ্গে রেলের উদাসীনতা নিয়েও সমালোচনা করে তিনি বলেন, এই দুর্ঘটনার দায় রেল কোনো মতেই এড়াতে পারে না। এ ব্যাপারে রেলের আরও দায়িত্বশীল হওয়া প্রয়োজন। পাশাপাশি তিনি পুরো ঘটনা খতিয়ে দেখতে তদন্ত কমিটি গড়ার কথাও জানিয়েছিলেন। সেই নির্দেশ অনুযায়ী শিল্পসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে ওই তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

জানা গিয়েছে, ইতিমধ্যেই দুর্ঘটনার সময়কালীন সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করছে তদন্ত কমিটি। যা থেকে কী ভাবে বা কোন পরিস্থিতিতে ওই দুর্ঘটনা ঘটেছিল, তার সার্বিক ছবি স্পষ্ট হয়ে যেতে পারে। সব মিলিয়ে রাজ্যের পৃথক তদন্ত কমিটি গঠনের বিষয়টি ভাবাচ্ছে পূর্ব রেল কর্তৃপক্ষকেও।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here